Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৭ মাঘ ১৪২৭, ০৭ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

আরথ্রাইটিসের চিকিৎসায় অকুপেশনাল থেরাপি

| প্রকাশের সময় : ৩ নভেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

সাধারণত দেহের বিভিন্ন জয়েনট এ প্রদাহ এবং শক্ত হয়ে গেলে সেই অবস্থাকে আমরা আরথ্রাইটিস বলে থাকি। সাধারণ কিছু আরথ্রাইটিক রোগের মধ্যে রয়েছে অষ্টিওআরথ্রাইটিস, জুভেনাইল আরথ্রাইটিস, ফাইব্রোমায়ালজিয়া, গাউট, রিউমাটয়েড আরথ্রাইটিস, সিস্টেমিক লুপাস ইরাইদ্যামেটোসাস। এই রোগগুলোতে আক্রান্ত হলে প্রাথমিকভাবে দেহের জোড়ায় জোড়ায় ব্যথা হয়, সকালে জোড়া শক্ত শক্ত ভাবে থাকে, ফুলে যায় এবং অসাড় বা দুর্বল মনে হয়। অকুপেশনাল থেরাপি চিকিৎসকগণ এসব আরথ্রাইটিস রোগের চিকিৎসা করে থাকেন। মূল উদ্দেশ্য থাকে অস্থিজোড়া সচলতা বৃদ্ধির মাধ্যমে দৈনিক কাজ ভালভাবে সম্পাদন করা যা একজন মানুষের দৈনিক জীবনকে করে অর্থবহ ও উদ্দেশ্যমূলক। 

অকুপেশনাল থেরাপির ভূমিকাঃ
অকুপেশনাল থেরাপি চিকিৎসা প্রক্রিয়া শুরু হয় রোগী কি চায়, তার কি প্রয়োজন এবং কিভাবে দৈনিক কাজসমূহ আরথ্রাইটিস দ্বারা প্রভাবিত তা মূল্যায়নের মাধ্যমে। এর মধ্যে চিকিৎসা পরিকল্পনা বাস্তবায়নের জন্যে রোগীর কর্মদক্ষতাকে পুরোপুরি বিশ্লেষণ করা হয়। মূল্যায়নের মধ্যে রয়েছে জোড়ার রেঞ্জ অফ মোশন, মাংসপেশির শক্তি, ব্যথা এবং অনুভূতির তীব্রতা, এবং কাজের সময় নিরীক্ষণ। একজন অকুপেশনাল থেরাপিস্ট রোগীর চাহিদা অনুযায়ী অর্থোটিকস, সহায়ক সামগ্রী, বাড়ি ও কর্মস্থলের রূপান্তরের বিষয়গুলিও নিরীক্ষণ করেন। রোগীর যদি অস্রোপচার এর প্রয়োজন হয়, অকুপেশনাল থেরাপিসট তখন রোগীর জন্যে অস্রোপচার পরবর্তী চিকিৎসা পরিকল্পনা তৈরি করেন।
চিকিৎসাব্যবস্থার মধ্যে রয়েছে-
ফিজিক্যাল এজেন্ট মোডালিটিস: ব্যথা দূরীকরণে গরম বা ঠাণ্ডার ব্যবহার যা রোগীকে দৈনিক কাজ করতে সহায়তা করবে
ইডিমা ও প্রদাহ ব্যাবস্থাপনা : ফুলে যাওয়া ভাব বা প্রদাহ দূরীকরণে ক¤েপ্রশন গারমেনটস, লিম্ব ইলিভেশন, থেরাপিউটিক এক্সারসাইজ এবং স্প্লিন্টিং এর ব্যবহার
থেরাপিউটিক এক্সারসাইজ এবং কাজ যা ছোট-বড় জয়েনটের নাড়াচাড়া নিয়ন্ত্রণ, রেঞ্জ অব মোশন, সময় এবং শক্তি বাড়াতে সহায়তা করে। ফলশ্রুতিতে রোগীর দৈনিক কাজ যেমন নিজের যতœমূলক, গৃহ ব্যবস্থাপনা, আয় বর্ধনমূলক এবং অবসরমূলক কাজ এ দক্ষতা বৃদ্ধি পায়।
অর্থোটিকস ডিভাইস প্রোভিশন: হাতের বিকৃতি রোধে, ব্যথা দূরীকরণে এবং কাজের সামর্থ্য বৃদ্ধি করতে বৈজ্ঞানিক মাপ সম্বলিত অর্থোটিক ডিভাইস প্রদান
জয়েন্ট প্রটেশশন ও এনার্জি কন্জারভেশন টেকনিক- এর মাধ্যমে সহায়ক সামগ্রীর ব্যবহার শেখানো এবং দৈনিক কাজ সম্পাদনে বিশ্রাম ও অতিরিক্ত ব্যবহারের প্রভাব সম্পর্কে প্রশিক্ষণ দেয়া।
এরগোনোমিক এসেসমেন্ট: -রোগীর প্রয়োজন অনুযায়ী অফিস, বাড়ি কিংবা স্কুলে আর্গনমিক এসেসমেনট এবং কাজের রুপান্তর
চিকিৎসাব্যবস্থার এই এপ্রচগুলো রোগীকে শেখাতে, পরিকল্পনা করতে, তার দৈনিক কাজসমূহকে সহজ করতে, চলমান করতে, চাপ-ব্যথা ও একঘেয়েমি কমাতে, জোড়ার সামর্থ্য বাড়াতে সাহায্য করে। এছাড়াও সহায়ক সামগ্রী যেমন সহজের ধরা যায় এমন হাতল, খাপ খাওয়ানোর মত শেলফ, গ্রাব বার, উঁচু টয়লেট, হাতল চেয়ার রোগীর পরিবেশের সাথে কর্মদক্ষতাকেও প্রভাবিত করে। এসব সমন্বিত প্রচেষ্টার ফলে সমস্যা কমে গিয়ে রোগীর কর্মচাহিদা রক্ষণাবেক্ষণ এবং বাড়ি, অফিস, সমাজে বিভিন্ন কাজে অংশগ্রহণ বৃদ্ধি পায়।

শম ফারহান বিন হোসেন
ক্লিনিক্যাল অকুপেশনাল থেরাপিসট,
অকুপেশনাল থেরাপি বিভাগ,
সিআরপি-মিরপুর, ঢাকা।
মোবাইলঃ ০১৬৮৫৬৫৬১৯৯



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন