Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮, ০৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে হলে শেখ হাসিনাকে আবার ক্ষমতায় আনুন -এনামুল হক শামীম

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৪ নভেম্বর, ২০১৭, ৭:০৮ পিএম

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম বলেছেন, দেশে উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে হলে এবং অন্ধকার থেকে আলোকিত হতে হলে জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে হবে। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আবার নৌকায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে জয়যুক্ত করতে হবে।
শুক্রবার বিকালে শরিয়তপুরের সখিপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত সদস্য সংগ্রহ ও সদস্যপদ নবায়নের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।
এনামুল হক শামীম বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম হয়েছিল বলেই আমরা বাংলাদেশ নামক রাষ্ট্র পেয়েছি। আজকে আমি-আপনি বাঙালি জাতি হিসেবে বিশ্বের বুকে পরিচয় দিতে পারছি। আর বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আছে বলেই আমরা বিশ্বের বুকে উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে পরিচিতি লাভ করছি। দেশকে এগিয়ে নিতে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই-এটা ইতোমধ্যে প্রমাণিত। কারণ দেশে যত উন্নয়ন হয়েছে, সব আওয়ামী লীগ ও শেখ হাসিনার হাত ধরে। বাংলাদেশের উন্নয়নের জন্য বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনার বিকল্প আর কিছু নেই। দেশকে এগিয়ে নিয়ে হলে এবং শেখ হাসিনাকে আবারো প্রধানমন্ত্রী করতে হবে। সারাবিশ্বে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এখন নন্দিত নেতা।
বিকাল তিনটায় সদস্য সংগ্রহ ও সদস্যপদ নবায়ন কার্যক্রমের শুরু হওয়ার কথা থাকলেও জুম্মার নামাজ পর সখিপুর থানার প্রতিটি ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড, গ্রাম থেকে মিছিল নিয়ে নেতাকর্মীরা ইসলামিয়া স্কুল মাঠে উপস্থিত হন। বিভিন্ন ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ও ইউপি আওয়ামী লীগের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকরা মিছিলের নেতৃত্ব দেন। বেলা ৩ টার মধ্যে বিশাল মাঠে নেতাকর্মীদের ভিড়ে কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায়। স্কুল মাঠ ছাড়াও থানা সদর জুড়েই ছিল উৎসবের আমেজ। আওয়ামী লীগের সদস্য পদ নবায়ন ও সদস্য সংগ্রহ অভিযান রূপ নেয় সখিপুরের ইতিহাসে স্মরণকালের জনসমুদ্রে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি এনামুল হক শামীম নিজের সদস্য পদ নবায়নের মাধ্যমে কর্মসূচির উদ্বোধন করেন। পরে বিভিন্ন পেশার ৫ জন নারী ও ৫ জন পুরুষকে নতুন সদস্য পদ দেন। রশিদ মূল্যে তারা ক্রয় করে শামীয়ের হাত ধরে আনুষ্ঠানিকভাবে আওয়ামী লীগের সদস্য হন। পরে একজন মুক্তিযোদ্ধাসহ বিভিন্ন পেশার ১০জনের সদস্যপদ নবায়ন করা হয়।
সখিপুর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি হুমায়ুন কবির মোল্লার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বাবু অনল কুমার দে ও উপজেলা চেয়ারম্যান একেএম ইসমাইল হক। বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগ নেতা হাবিবুর রহমান সিকদার, কোহিনুর সিকদার দোলা, মানিক সরদার, কাওছার আহমেদ ত্বকি, বাদল চৌকিদার, জহির সিকদার, আলী আহমেদ, মিজানুর রহমান বয়াতী, আনোয়ার হোসেন বালা, আলমগীর, ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক নূর আলম আশিক, ইউপি চেয়ারম্যানদের মধ্যে হাবিবুর রহমান সিকদার, আবুল হাসেম দেওয়ান, জসিম মাতবর, মোজাম্মেল মোল্লা, জিতু বেপারি, সামসুজ্জোহা রতন, ইউনুস সরকার, বীর মুক্তিযোদ্ধা নাসির উদ্দিন, মান্নান সিকদার, মোহাম্মদ হানিফ, মোয়াজ্জেম সরদার, শাহজালাল মোল্লা প্রমুখ।
সদস্য সংগ্রহ ও নবায়নের উপর জোর দিয়ে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শামীম বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কর্মী হওয়া গৌরবের, বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনার কর্মী হওয়া অহংকারের। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিল এ দেশের প্রতিটি মানুষ অন্ন পাবে, আশ্রয় পাবে, উন্নত জীবন পাবে এবং আওয়ামী লীগের প্রত্যেকটি নেতাকর্মীর দায়িত্ব জাতির পিতার সে স্বপ্নকে বাস্তবায়িত করা। এদেশের দুঃখী মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন হবার আগ পর্যন্ত আওয়ামী লীগের সংগ্রাম অব্যাহত থাকবে। জনগণকে সেই কাঙ্ক্ষিত জায়গায় পৌঁছানোর জন্য দেশকে সঠিক রাস্তায় পরিচালিত করাই আওয়ামী লীগের লক্ষ্য। এ জন্য নতুন ভোটার ও নারীদের গুরুত্ব দিয়ে আওয়ামী লীগের নতুন সদস্য করতে হবে। পাশাপাশি আমাদের দলের একটি সদস্যও যেন তাদের সদস্যপদ নবায়ন করা থেকে বিরত থাকে সেজন্য নেতাকর্মীদের কাজ করতে হবে।
বিএনপির সমালোচনা করে ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এনামুল হক শামীম বলেন, আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় থাকা মানে দেশের উন্নয়ন। আর বিএনপি ক্ষমতায় আসা মানেই লুটপাট, জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসের সৃষ্টি করা। বিএনপি ক্ষমতায় থাকতে রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় সন্ত্রাসের জš§ দেয়। মায়ে-পুতে দেশের অর্থ লুটপাট করে বিদেশে পাচার করে। দীর্ঘদিন ক্ষমতার বাইরে থেকে বিএনপি নানামুখী ষড়যন্ত্র শুরু করেছে ক্ষমতায় আসার জন্য। তারা জনগণের ভোটে কখনোই ক্ষমতায় আসতে পারে না। তাই ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নেয়। তৃণমূল নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। তৃণমূল ঐক্যবদ্ধ থাকলে আবারও আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ