Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৭, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ২১ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী

আরও দুই লাখ টন চাল-গম আমদানি করবে সরকার

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৭ ডিসেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

সরকারিভাবে আরও দেড় লাখ মেট্রিক টন সিদ্ধ চাল ও আন্তর্জাতিক দর প্রস্তাব চেয়ে মধ্য দিয়ে কোটেশনের মাধ্যমে ৫০ হাজার টন গম আমদানির প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে সরকার।
গতকাল বুধবার সচিবালয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সভাপতিত্বে সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সভায় এই খাদ্যশস্য আমদানির প্রস্তাব অনুমোদন দেয়া হয়। সভা শেষে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মোস্তাফিজুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, ভারতের জাতীয় কৃষি সমবায় বিপণন সমিতি (নাফেদ) থেকে সরকারিভাবে দেড় লাখ মেট্রিক টন নন-বাসমতি সিদ্ধ চাল আমদানির প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে ক্রয় কমিটি। টনপ্রতি চাল ৪৪০ ডলার দরে মোট ৫৪৭ কোটি ৮০ লাখ টাকায় দেড় লাখ টন চাল আমদানি করবে সরকার। এছাড়া আন্তর্জাতিক দরপ্রস্তাব আহ্বান করে ৫০ হাজার টন গম কেনার প্রস্তাবও ক্রয় কমিটি অনুমোদন দিয়েছে। অতিরিক্ত সচিব বলেন, সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে কোরিয়ার মেসার্স সিং সং ফুড করপোরেশন প্রতি টন ২৪৫ দশমিক ৩৫ মার্কিন ডলার ব্যয়ে মোট ১০১ কোটি ৮২ লাখ টাকায় এই গম সরবরাহ করবে। হাওরে আগাম বন্যায় ফসলহানির পর দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে দুই দফার বন্যায় ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়। এছাড়া রোগবালাইয়ের কারণেও এবার ধানের ফলন অনেক কম হয়েছে। হাওরে ফসলহানির পর থেকে চালের দাম বাড়তে শুরু করে। চালের সরকারি মজুদ তলানিতে নেমে এলে দফায় দফায় বাড়ে বাঙালির প্রধান এই খাদ্যশস্যের দাম। বাজার নিয়ন্ত্রণে রাখতে চাল আমদানি শুল্ক কমিয়ে দুই শতাংশে নামিয়ে আনে সরকার। অন্যদিকে সরকারি মজুদ বাড়াতে চলতি অর্থ বছরে সরকারিভাবে ২০ লাখ টন চাল-গম আমদানির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।
অতিরিক্ত সচিব বলেন, কুমার নদ পুনঃখনন শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় একটি ৬- ভেন্ট রেগুলেটর, ৪৪ দশমিক ৩৯৭ কিলোমিটার মরা কুমার নদ খনন, ৯ দশমিক শূন্য ৯৫ কিলোমিটার মান্দারতলা খাল পুনঃখনন এবং আরসিসি পাকা ঘাট ও মেয়েদের পোশাক পরিবর্তনের ঘর নির্মাণ কাজ বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মাধ্যমে সরাসরি ক্রয় পদ্ধতির একটি প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে কমিটি। এজন্য ব্যয় হবে ১৭৮ কোটি ৬৭ লাখ টাকা। মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, রূপকল্প-২০২১ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দ্রুত সরবরাহ বৃদ্ধি (বিশেষ বিধান) আইন, ২০১০ এর আওতায় রূপকল্প-৩ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় মাদারগঞ্জ-১ কূপ এলাকায় যাওয়ার জন্য নতুন রাস্তা নির্মাণসহ বিদ্যমান সংযোগ রাস্তা মজবুত ও উন্নয়ন কাজ সংক্ষিপ্ত সময়ে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে সর্বনিম্ন দরদাতা নিয়োগের একটি প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে কমিটি। মেসার্স অন্বেষা লিমিটেড প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে। এজন্য ব্যয় হবে ১৪১ কোটি ৯৯ লাখ টাকা। এছাড়া বৈঠকে জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের ৩ কোটি ৯৭ লাখ টাকা ব্যয়ে আরো তিনটি ক্রয় প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।