Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫ আশ্বিন ১৪২৭, ১২ সফর ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

সরকারি কর্মচারী আইনের খসড়ার কিছু ধারা নিরপেক্ষতার জন্য ঝুঁকিপূর্ণ : টিআইবি

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

খসড়া সরকারি কর্মচারী আইন, ২০১৭ এর বেশ কিছু ধারা জনপ্রশাসনের পেশাদারিত্ব ও নিরপেক্ষতার জন্য ঝুঁকিপূর্ণ বলে মনে করেন ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। একই সঙ্গে সংশ্লিষ্ট অংশীজনের মতামতের ওপর ভিত্তি করে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণের আহ্বান টিআইবি।
দক্ষ, জনবান্ধব, স¦চ্ছ ও জবাবদিহিমূলক জনপ্রশাসন নিশ্চিতে স¤প্রতি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় কর্তৃক দীর্ঘকাল প্রতীক্ষিত সরকারি কর্মচারী আইন, ২০১৭ এর খসড়া প্রণীত হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছে সংস্থাটি। তবে প্রজাতন্ত্রের কর্মচারীদের পেশাগত উৎকর্ষ ও দলীয় প্রভাবমুক্ত নিরপেক্ষতা ও নির্বিঘœ কর্ম-পরিবেশ নিশ্চিতের উদ্দেশ্যে খসড়া আইনটির বেশ কিছু বিধান পুনর্বিবেচনার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে টিআইবি। একইসাথে, টিআইবি খসড়াটি সম্পর্কে সংশ্লিষ্ট অংশীজনের মতামত সংগ্রহের জন্য ওয়েবসাইটের মাধ্যমে সুযোগ সৃষ্টি ও অংশগ্রহণমূলক মতবিনিময় সম্পন্ন করে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য আহ্বান জানিয়েছে।
গতকাল বুধবার এক বিবৃতিতে টিআইবি’র নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় কর্তৃক সরকারি কর্মচারী আইন এর খসড়া প্রণয়ন সময়োপযোগী উদ্যোগ। তবে প্রজাতন্ত্রের কর্মচারীদের উন্নততর পেশাদারিত্ব, মেধা, দক্ষতা ও অভিজ্ঞতা ভিত্তিক মূল্যায়ন এবং বিশেষ করে জনপ্রশাসন যেন দলীয় রাজনৈতিক প্রভাবমুক্ত হয়ে কোনো ধরনের ভয়-ভীতি ও চাপের ঊর্ধ্বে থেকে সততা ও স্বচ্ছতার সাথে দায়িত্ব পালন করতে পারে, তার উপযুক্ত পরিবেশ নিশ্চিতে খসড়া আইনটির বেশ কিছু বিধান পুনর্বিবেচনা করা জরুরি। প্রেসিডেন্ট বিশেষ এখতিয়ারে চারটি সর্বোচ্চ স্তরে দশ শতাংশ কর্মচারী প্রেষণে নিয়োগের যে বিধান রাখা হয়েছে, তা জনপ্রশাসনে দলীয়করণ ও পেশাদারিত্ব খর্ব করার ঝুঁকি বৃদ্ধি করবে উল্লেখ করে ড. জামান।
খসড়া আইনটির শিরোনামে প্রজাতন্ত্রের পরিবর্তে সরকারি শব্দটির ব্যবহার সাংবিধানিক চেতনার পরিপন্থি উল্লেখ করে ড. জামান বলেন ধারা (৮) অনুসারে সরকারের কর্মচারীগণের উপর সরকারের নিয়ন্ত্রণের আকাক্সক্ষা জনপ্রশাসনে রাজনৈতিক বিভক্তির সুযোগ সৃষ্টি করে বস্তুনিষ্ঠভাবে দায়িত্ব পালনের সম্ভাবনাকে সংকুচিত করবে। এছাড়া, খসড়া আইনের ৪৭(৩) ধারায় প্রেসিডেন্ট শাস্তি মওকুফ করলে চাকরিতে পুনর্বহালের যে বিধান রাখা হয়েছে, তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা ও চিন্তা ভাবনার প্রয়োজন রয়েছে বলে তিনি মনে করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: টিআইবি


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ