Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১৩ কার্তিক ১৪২৭, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

ঐতিহাসিক জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানী ঘোষণা করতে হবে -আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী

হেফাজতের মার্কিন দূতাবাস ঘেরাও ও স্মারকলিপি পেশ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

মার্কিন পণ্য বর্জন করতে হবে : ক‚টনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করতে হবে
যুদ্ধবাজ ট্রাম্প কর্তৃক জেরুজালেমকে ইসরাঈলের রাজধানী স্বীকৃতির ঘোষণার প্রতিবাদে হেফাজতে ইসলাম ঢাকা মহানগর গতকাল মার্কিণ দূতাবাস ঘেরাও এবং স্মারকলিপি পেশের কর্মসূচী পালন করেছে। ঘেরাও এর উদ্দেশ্যে বায়তুল মোকাররম উত্তর গেই থেকে গণ-মিছিল পূর্ব সমাবেশে সভাপতির বক্তৃতায় হেফাজতের ঢাকা মহানগর সভাপতি আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী বলেছেন, জেরুজালেম ঐতিহাসিকভাবে ফিলিস্তিনের অংশ। জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানী ঘোষণা করতে হবে। জেরুজালেম ও তৎসংলগ্ন এলাকায় ইহুদীদের থাকতে দেয়া হবে না। তাদেরকে সরে যেতে হবে।
সমাবেশ শেষে মার্কিণ দূতাবাস ঘেরাও এর লক্ষ্যে বায়তুল মোকারুম উত্তর গেই থেকে একটি বিশাল গণ-মিছিল আল্লামা কাসেমীর নেতৃত্বে বের হয়ে শ্লোগানে শ্লোগানে রাজপথ মুখরিত করে পল্টন ও কাকরাইল হয়ে শান্তিনগর মোড়ে পৌছলে পুলিশ মিছিলে গতিরোধ করলে মিছিল কারীরা সেখানে অবস্থান নেন। এপর্যায়ে হেফাজতের ছয় সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল ঢাকাস্থ মার্কিণ দূতাবাসে গিয়ে স্মারকলিপি হস্তান্তর করে। উত্তর গেই চত্তরে মিছিল পূর্ব বিপুল জনতার সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন মাওলানা আবুল কালাম, মাওলানা জুনাইদ আল হাবীব, মাওলানা মাহফুজুল হক, ড. আহমদ আব্দুল কাদের, মাওলানা আব্দুর রব ইউসূফী, মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী, মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, মাওলানা মুজিবুর রহমান পেশওয়ারী, মাওলানা সাখাওয়াত হুসাইন, মাওলানা আব্দুল করিম, মাওলানা মহি উদ্দীন রব্বানী, মাওলানা আতাউল্লাহ আমীন, মাওলানা শফিক উদ্দীন, মাওলানা আবু তাহের জিহাদী, মাওলানা লোকমান মাজহারী, মুফতী ফখরুল ইসলাম, মাওলানা আহমদ আলী কাসেমী, মাওলানা এনামুল হক মূসা প্রমূখ। সমাবেশ পরিচালনা করেন মাওলানা ফজলুল করিম কাসেমী , মুফতি সুলতান মহিউদ্দীন ও মাওলানা ফয়সল আহমদ।
মাওলানা আবুল কালাম বলেন, সারা বিশ্বের মুসলমানদের ঈমানি পরিক্ষা চলছে। ট্রাম্প যুদ্ধের যে পরিস্থিতি তৈরি করেছে তা মোকাবেলা করতে বিশ্ব মুসলিম প্রস্তুত। মাওলানা মাহফুজুল হক বলেছেন, মুসলমানদের প্রথক কেবলা জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা করে ট্রাম্প ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ করেছেন। টাম্পকে আর্ন্তজাতিক আদালতের কাটগড়ায় দাঁড় করিয়ে বিচার করতে হবে। বিশ্ব মুসলিমকে ট্রাম্পের ঘোষণার ঐক্যবদ্ধভাবে মোকাবেলা করতে হবে।
ড. আহমদ আব্দুল কাদের বলেন, জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী স্বীকৃতি ঘোষণা দিয়ে ট্রাম্প মুসলমানদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে। জিহাদের মাধ্যমে এ ঘোষণা প্রতিহত করতে হবে। মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী বলেন, যুদ্ধবাজ ট্রাম্প জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা দিয়ে ক্রুসেটের পরিস্থিতি সৃষ্টি করেছে। মুসলিম বিশ্ব ও মানবাধিকারবাদীদের ট্রাম্পের এ ক্রুসেট ঘোষনার জবাব দিতে হবে। মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী বলেছেন, ট্রাম্পের ঘোষণা বিশ্বে মুসলমানের হৃদয়ে রক্তক্ষরণ করেছে,। কুটনৈতিকভাবে ট্রাম্পকে মুসলিম রাষ্ট্রগুলো বয়কট করতে হবে।
দেশব্যাপী বিক্ষোভ দিবস আগামীকাল বাদ জুমআ
যুদ্ধবাজ ট্রাম্পের জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী স্বীকৃতির ঘোষণার প্রতিবাদে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ও বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস আগামীকাল শুক্রবার বাদ জুমআ রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচী ঘোষণা করেছে। ইসলামী আন্দোলনের আমীর সৈয়দ মুফতী রেজাউল করিম পীর সাহেব চরমোনাই ও মহাসচিব অধ্যক্ষ মাওলানা ইউনুছ আহমদ এবং বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের আমীর প্রিন্সিপাল আল্লামা হাবীবুর রহমান ও মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক পৃথক পৃথক বিবৃতিতে বিক্ষোভ কর্মসূচী পালন করার জন্য দলীয় নেতা কর্মী ও ঈমানদার তাওহীদি জনতার প্রতি আবান জানিয়েছেন। উভয় দলের অংগ সংগঠনসমূহের নেতৃবৃন্দ দেশব্যাপী দলীয় বিক্ষোভ কর্মসূচী সফল করার জন্য স্ব স্ব দলের নেতা কর্মীদের প্রতি আহবান জানিয়েছেন।
মার্কিণ দূতাবাস ঘেরাও কর্মসূিচ : জাতীয় ইমাম সমাজ আগামীকাল বাদ জুমআ আজিমপুর গোরা শহীদ মাজার প্রঙ্গণে জমায়েত হয়ে ঘেরাও কর্মসূচী পালনের ঘোষণা দিয়েছে। সংগঠনের সহ-সভাপতি মাওলানা বেলায়েত হোসাইন আল ফিরোজী ঘেরাও কর্মসূচী সফলের আহবান জানিয়েছেন।
আজকের কর্মসূচি : জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী স্বীকৃতির প্রতিবাদে বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টি ও বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামালীগ আজ জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করবে।



 

Show all comments
  • AH Hussain Rahat ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৭, ৪:৪৩ এএম says : 0
    বাংলাদেশ সরকার কি পারে আর কি পারে না তা আমরা এদেশের জনগণ হিসেবে খুব ভালো করেই যানি।তাই বলব আর কিছু পারূক আর না পারূক অন্তত এদেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ মুসলিমের কথা মাথায় রেখে মুসলিমের এই বিপদে পাশে থাকুন।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী


আরও
আরও পড়ুন