Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৩ জানুয়ারি ২০১৮, ১০ মাঘ ১৪২৪, ৫ জমাদিউস আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী

৩৫ কিলোমিটার বিজয় স্কেটিং র‌্যালী উদ্বোধনকালে বক্তারা

সা¤প্রদায়িক শক্তি দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

বিজয়ের ৪৬ বছরে এসেও ঘড়যন্ত্রকারী ও দেশবিরোধী সা¤প্রদায়িক অপশক্তি নানাভাবে ষড়যন্ত্র ও চক্রান্ত করে যাচ্ছে। এসব সা¤প্রদায়িক অপশক্তিকে যেকোন মূল্যে রুখে দিতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের যারা কুশীলব মুক্তিযোদ্ধারা এখন অনেকেই বয়েবৃদ্ধ। তারা যে চেতনা ও উদ্দেশ্যে দেশকে স্বাধীন করেছিলেন তা বাস্তবায়নের দায়িত্ব বর্তমান প্রজন্মের তরুন যোদ্ধাদের। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এখন সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। এই এগিয়ে চলার পথে যারাই বাধা হয়ে দাঁড়াবে তাদেরকেই প্রতিহত করে চলার পথকে কন্ঠকমুক্ত করতে হবে এই প্রজন্মের যোদ্ধাদের।
গতকাল শনিবার মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে জাতীয় শহীদ মিনার থেকে বিজয় স্কেটিং র‌্যালী উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বক্তারা এসব কথা বলেন। মুক্তিযুদ্ধের শহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে জাতীয় শহীদ মিনার থেকে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান ও শতাধিক স্কেটার সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধের উদ্দেশ্যে রওশনা হয়। দীর্ঘ ৩৫ কিলোমিটার স্কেটিং করে সাভার স্মৃতিসৌধে শহীদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে তারা।
আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিক ফোরাম এবং সার্চ স্কেটিং ক্লাবের যৌথ আয়োজনে ব্যতিক্রম এই র‌্যালিটি উদ্বোধন করেন জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি শফিকুর রহমান। বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য আব্দুর সবুর আসুদ, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা মনিরুজ্জামান মনির, আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাজ্জাদ হোসেন, মুক্তিযোদ্ধার সস্তান সাংবাদিক ফোরামের সহসভাপতি মিজান রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন কাদের এবং সার্চ স্কেটিং ক্লাবের চেয়ারম্যান আরশাদ আলম। অনুষ্ঠানটি সভাপতিত্ব করেন মুক্তিযোদ্ধা সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি জিহাদুর রহমান জিহাদ।
বিজয় র‌্যালির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তভ্যে জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি ও বীর মুক্তিযোদ্ধা শফিকুর রহমান বলেন, ১৯৭১ সালে রাষ্ট্রীয় শক্তি ছিল সা¤প্রদায়িক। কিন্তু জনগণ ছিল অসা¤প্রদায়িক। বিজয়ের ৪৬ বছর পর এখন রাষ্ট্রীয় শক্তি অসা¤প্রদায়িক হয়েছে। কিন্তু জনগণের একটি বড় অংশ সা¤প্রদায়িক ও পশ্চাৎপদ রয়ে গেছে। তারা বিভিন্নভাবে ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। এ ব্যাপারে সকলকে সচেতন থাকতে হবে।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে মর্যাদার আসনে অধিষ্টিত। কিন্তু স্বাধীনতাবিরোধী সা¤প্রদায়িক অপশক্তি নানাভাবে মুক্তিযুদ্ধের এই বাংলাদেশকে পেছনে নেয়ার চক্রান্ত করছে। এ ব্যাপারে দেশের জনগণকে সজাগ থাকতে হবে।
আয়োজকদের পক্ষ থেকে জানানো হয়, মুক্তিযুদ্ধের শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানতে এবার নবম বারের মতো বিজয় স্কেটিং অনুষ্ঠিত হয়েছে। স্কেটাররা শহীদ মিনার থেকে টিএসসি, শাহবাগ, ফার্মগেট, শ্যামলী, গাবতলী হয়ে সাভার ৩৫ কিলোমিটার স্কেটিং করে সাভার স্মৃতিসৌধে শহীদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। এ সময় পথে পথে হাত নাড়িয়ে সাধারণ মানুষ স্কেটারদের অভিনন্দন জানায়।

 

 

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।