Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৩ জানুয়ারি ২০১৮, ১০ মাঘ ১৪২৪, ৫ জমাদিউস আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী

রেকর্ড গোলে জয়ে ফিরল সিটি

| প্রকাশের সময় : ৪ জানুয়ারি, ২০১৮, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস ডেস্ক : রেকর্ড টানা ১৮ ম্যাচ জয়ের পর পয়েন্ট তালিকার তলানীর দলের কাছে হঠাৎ ছন্দপতন। গোলশূন্য ড্রয়ের সেই ম্যাচের পর আবার জয়ে ফিরতে যেন তর সইছিলো না ম্যানচেস্টার সিটির। ওয়াটফোর্ডের বিপক্ষে তাই এদিন গোল করতে পেপ গার্দিওলার দল সময় নিলো মাত্র ৩৮ সেকেন্ড। চলতি প্রিমিয়ার লিগ মৌসুমে যা দ্রæততম গোলের রেকর্ড।
রাইম র্স্টার্লিংয়ের সেই গোলের পর স্কোরবোর্ডে নাম লেখান আর্জেন্টাইন স্ট্রাইকার সার্জিও আগুয়েরোও। নিজেদের মাঠে ম্যাচটিও তারা জেতে ৩-১ গোলে। সিটির অন্য গোলটি ছিল প্রতিপক্ষের কাছ থেকে পাওয়া উপহার। পরাজয় যখন নিশ্চিত সেসময় অর্থাৎ ম্যাচের শেষ সময়ে একটি গোল করে ব্যবধান কমায় সফরকারী ওয়াটফোর্ড।
লিগে এখন পর্যন্ত অপরাজিত সিটি এই জয়ে দ্বিতীয় স্থানে থাকা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের থেকে ১৫ পয়েন্টের সুস্পষ্ট ব্যবধানে এগিয়ে গেল। পরশু রাতের আরেক ম্যাচে ফার্নন্দো লোরেনটের গোলে সোয়ানসি সিটিকে ২-০ গোলে হারায় টটেনহ্যাম হটস্পার।
প্যালেসের বিপক্ষে স্ট্রাইকার গ্যাব্রিয়েল জেসুস হাঁটুর লিগামেন্ট ইনজুরিতে আক্রান্ত হলে গার্দিওলা অভিযোগ করে বলেছিলেন বড়দিন ও নতুন বছরের উৎসবের আমেজকে ছাপিয়ে প্রিমিয়ার লিগের ব্যস্ত সূচিতে খেলোয়াড়রা পরিশ্রান্ত হয়ে উঠেছে। ব্রাজিলিয়ান জেসুসেস স্থানে কাল প্রথম থেকেই দলে ছিলেন আজেন্টাইন তারকা আগুয়েরো। এছাড়া দুই ম্যাচের অনুপস্থিতির পরে দলে ফিরেছিলেন ডেভিড সিলভা। গত ১১ দিনে এটি ছিল সিটির চতুর্থ ম্যাচ।
ইতিহাদে দর্শকরা হয়ত ঠিকমত তখনো আসন গেড়ে বসেননি। তার আগেই সিটির গোল। লেরয় সানের ক্রস খুঁজে নেয় স্টার্লিংকে। মাত্র ৬ গজ দূর থেকে বলটি জালে ঠেলে দিতে ভুল করেননি ইংলিশ তরুণ স্ট্রাইকার। চলতি এটি তার ১৮তম গোল। ১৩ মিনিটে কেভিন ডি ব্রæয়েনের ক্রস কাবাসেলে ক্লিায়ার করতে গিয়ে নিজেদের জালেই বল জড়ালে সেপ্টেম্বরে ওয়াটফোর্ডের বিপক্ষে ৬-০ গোলের বড় ব্যবধানে জয়ের স্মৃতি আবারো ফিরে এসেছিল। কিন্তু পরের গোলটি পেতে সিটিজেনদের ৫০ মিনিট পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়েছে। ৬৩ মিনিটে গোলপোস্টের খুব কাছে থেকে মৌসুমের ১৬তম গোল করেন আগুয়েরো। ৮২ মিনিটে আন্দ্রে গ্রে’র সান্তনাসূচক গোল ওয়াটফোর্ডের পরাজয়ের ব্যবধানই শুধু কমিয়েছে। গত সাত লিগ ম্যাচে এটি ওয়াটফোর্ডের ষষ্ঠ পরাজয়।
সোয়ানসির ঘরের মাঠ লিবার্টি স্টেডিয়ামে এদিন অসুস্থতার কারনে মূল একাদশে ছিলেন না স্পার্স তারকা হ্যারি কেন। সেই সুযোগে সোয়ানসির সাবেক স্ট্রাইকার লোরেনটে এই প্রথম লিগে মূল একাদশের হয়ে মাঠে নামেন। কোচ মরিসিও পোচেত্তিনোকে তিনি হতাশ করেননি। ১২ মিনিটে ক্রিস্টিয়ান এরিকসেনের ফ্রি-কিক থেকে শক্তিশালী হেডে এই স্প্যানিয়ার্ড স্পারসদের এগিয়ে দেন। যদিও সোয়ানসি গোলটির বিরুদ্ধে অফ-সাইডের আবেদন করেছিল। ৬৮ মিনিটে লোরেনটের পরিবর্তে মাঠে নামেন ২০১৭ সালে টানা দুই হ্যাটট্রিক করে বছর শেষ করা হ্যারি কেন। ৮৯ মিনিটে কেনের সুনির্দিষ্ট পাসে ডেলে আলি ব্যবধান দ্বিগুন করার পাশাপাশি টটেনহ্যামের জয় নিশ্চিত করেন। এই জয়ে আর্সেনালকে দুই পয়েন্ট পিছনে ফেলে টটেনহ্যাম পঞ্চম স্থানে উঠে এসেছে। চতুর্থ স্থানে থাকা লিভারপুল টটেনহ্যামের চেয়ে চার পয়েন্টে এগিয়ে। যদিও এক ম্যাচ বেশি খেলেছে লিভারপুল।

 

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।