Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ০৩ কার্তিক ১৪২৬, ১৯ সফর ১৪৪১ হিজরী

প্রচলিত শিক্ষাব্যবস্থা না বদলালে কর্মসংস্থানে সঙ্কট বাড়বে -মোস্তফা জব্বার

| প্রকাশের সময় : ১১ জানুয়ারি, ২০১৮, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : প্রচলিত শিক্ষা ব্যবস্থা বদলাতে না পারলে ভবিষ্যৎ কর্মসংস্থান বড় ধরনের সঙ্কটে পড়বে হবে বলে মনে করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। তিনি বলেন, আমরা কিন্তু শিক্ষা ব্যবস্থাকে বদলাতে পারিনি। বদলাতে পারিনি বলে শিক্ষা ব্যবস্থার সঙ্কটটা রয়েছে। যাদেরকে আমরা তৈরি করছি, তাদেরকে ডিজিটাল যুগের কর্মক্ষম শ্রমে দেওয়া ডিফিকাল্ট হবে। তাদেরকে যদি কর্মক্ষম করতে না পারি, প্রতিষ্ঠিত করতে না পারি তাহলে বড় ধরনের সঙ্কটে পড়ব। এক সময় দেখা যাবে যে জনসংখ্যার ঘাড়ের উপর বসে আছে। গতকাল (বুধবার) রাজধানীর বেসিস মিলনায়তনে আইটি কনসাল্টিং এবং সফটওয়্যার কোম্পানি ইজেনারেশন লিমিটেড আয়োজিত, বৈশ্বিক অর্থায়ন ব্যবস্থায় বøকচেইন- বাংলাদেশের করণীয়’ শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনার তিনি এসব কথা বলেন। বøকচেইন হল ডাটা সংরক্ষণ করার একটি নিরাপদ এবং উন্মুক্ত পদ্ধতি, যে পদ্ধতি অনুযায়ী ডাটাগুলো বিভিন্ন বøকে একটির পর একটি চেইন আকারে সংরক্ষণ করা হয় এবং এতে ডাটার মালিকানা সংরক্ষিত থাকে।
মন্ত্রী বলেন, সরকারের যা যা করণীয় আছে তা করা যাবে। আমাদের এমন একজন প্রধানমন্ত্রী আছে, তার কাছে কোনো দাবি নিয়ে ফিরে আসতে হয় না, তার নতুন প্রযুক্তি গ্রহণে যে আগ্রহ, তা সচারাচর চোখে পরে না। বøকচেইন প্রযুক্তি নিয়ে ইজেনারেশন লিমিটেড কাজ করায় একে বাংলাদেশের জন্য গৌরবের বিষয় বলেও মনে করেন তিনি।
ইজেনারেশন গ্রæপের চেয়ারম্যান শামীম আহসান বলেন, গণমাধ্যমে ইন্টারনেট যেমন ভূমিকা রেখেছে, ব্যাংকিং খাতে বøকচেইনও তেমনি ভূমিকা রাখবে। স্বাস্থ্যসেবা, ব্যাংকিং, রিয়েল স্টেট এবং বিনিয়োগের ক্ষেত্রে যথেষ্ট পরিবর্তন নিয়ে এসেছে এই প্রযুক্তি। েেযহেতু ক্রিপ্টোকারেন্সির সচেতনতা ছড়িয়ে যাচ্ছে এবং ছোট পরিসরে বিনিয়োগ বৃদ্ধি পাচ্ছে, এটা মনে করা হয় যে, বøকচেইন প্রযুক্তি বিনিয়োগ শিল্পকে হাতের মুঠোয় নিয়ে এসেছে। বর্তমানে গতানুগতিক ও বিকেন্দ্রীভূত প্রতিষ্ঠানগুলো ইনিশিয়াল কয়েন অফারিং (আইসিও) দ্বারা ব্যবসায় বিনিয়োগের তহবিল সংগ্রহ করছে।
বাংলাদেশে বøকচেইনের সম্ভাবনা নিয়ে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ইজেনারেশন গ্রæপের এক্সিকিউটিভ ভাইস চেয়ারম্যান এসএম আশরাফুল ইসলাম এবং সিলিকন ভ্যালির প্রযুক্তিবিদ, উদ্যোক্তা, বিনিয়োগকারী এবং ইউপ্লাস ইনকর্পোরেশনের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী শওকত শামিম। বৈঠকে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব শ্যাম সুন্দর শিকদার, এফবিসিসিআই সভাপতি শাফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন, বাংলাদেশের ব্যাংকের পরিচালক একেএম আফতাব উল ইসলাম ও ড. জামাল উদ্দিনসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ