Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ ২০১৯, ০৫ চৈত্র ১৪২৫, ১১ রজব ১৪৪০ হিজরী।

বীরপ্রতীক কাকন বিবির ইন্তেকাল

সিলেট অফিস | প্রকাশের সময় : ২২ মার্চ, ২০১৮, ১০:৪৪ এএম

বীরপ্রতীক কাকন বিবি আর নেই। সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা গেছেন (ইন্নালিল্লাহি…রাজিউন)।
হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. দেবব্রত রায় এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো প্রায় ১০৩ বছর। হাসপাতালে তিনি মেডিসিন বিশেষজ্ঞ ডা. নাজমুল ইসলামের অধীনে ভর্তি হন এবং আইসিইউতে ডা. সব্যসাচী রায়ের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসাধীন ছিলেন।
তিনি বলেন, কাকন বিবির লাশ রাতে হাসপাতালেই রাখা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার (২২ মার্চ) আনুষ্ঠানিকতার মাধ্যমে তার লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে।
গত সোমবার (১৯ মার্চ) সন্ধ্যায় নিউমোনিয়া ও শ্বাসকষ্ট, ফুসফুস সমস্যাসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের একটি কেবিনে ভর্তি হন কাকন বিবি। এরপর তাৎক্ষণিক তাকে হাসপাতালের আইসিইউতে স্থানান্তর করা হয় বলেন ডা. দেবব্রত।

বুধবার তার চিকিৎসার্থে মেডিকেল বোর্ড বসে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানোর সিদ্ধান্ত হয়। আইসিইউযুক্ত অ্যাম্বুলেন্স পেতে বিলম্ব হওয়ায় তাকে পাঠানো হয়নি। এরই মধ্যে রাত ১২টার পর তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
এর আগে ২০১৭ সালের ২১ জুলাই মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ হয়ে ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি। কয়েকদিন চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়িতে ফিরে যান।

শ্বাসকষ্ট নিয়ে গত সোমবার (১৯ মার্চ) তিনি এ হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। এর আগে গত বছর জুলাইয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার পর কয়েকদিন হাসপাতালে ছিলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে পুরস্কার নেওয়ার ফ্রেমবন্দি ছবিকাকন বিবির গ্রামের বাড়ি সুনামগঞ্জ জেলার দোয়ারবাজার থানার জিরারগাঁও গ্রামে। তার স্বামী সাঈদ আলীও প্রয়াত।
১৯৭১ সালে তিনদিন বয়সী মেয়ে সখিনাকে রেখে যুদ্ধে চলে যান কাকন বিবি। জুনে পাকিস্তানি বাহিনীর কাছে ধরা পড়েন তিনি। বাঙ্কারে আটকে দিনের পর দিন তাকে নির্যাতন করে পাকিস্তানি সেনারা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ