Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৮, ১১ বৈশাখ ১৪২৫, ০৭ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
শিরোনাম

জাতিসংঘের জরুরি বৈঠকের আহ্বান পুতিনের

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ এপ্রিল, ২০১৮, ৮:৩৬ পিএম

সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও ফ্রান্সের ক্ষেপণাস্ত্র হামলার পর জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের জরুরি বৈঠকের আহ্বান জানিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

শনিবার ক্রেমলিন থেকে এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়। ক্রেমলিনের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ওই বিবৃতিতে আরো বলা হয়, হামলার পর সিরিয়ায় এস-৩০০ ক্ষেপণাস্ত্র সিস্টেম পাঠানোর চিন্তা করছে রাশিয়া।

রয়টার্স জানিয়েছে, সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের হামলার বিষয়ে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে জরুরি ভিত্তিতে আলোচনা করতে চায় রাশিয়া। সিরিয়ায় এই হামলা আন্তর্জাতিক সম্পর্ককে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে বলে উল্লেখ করেন পুতিন।

তিনি আরো বলেন, সিরিয়ায় হামলা চালিয়ে সেখানকার বিপর্যয়কর মানবিক পরিস্থিতির আরো অবনতি ডেকে এনেছে যুক্তরাষ্ট্র। সেই সঙ্গে বেসামরিক নাগরিকদের আরো কষ্টের মধ্যে ফেলেছে।

 

সিরিয়ার সরকারকে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে রুশ সামরিক বাহিনী সহায়তা করছে উল্লেখ করে পুতিন বলেন, আসাদ সরকারের বিরুদ্ধে এ হামলার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছেন তিনি। এই হামলা সিরিয়ায় শান্তি আলোচনায় নেতিবাচক প্রভাব ফেলবেও বলে জানিয়েছে রুশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

এর আগে শনিবার ভোরে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও ফ্রান্স সিরিয়ায় শতাধিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায়। যুদ্ধজাহাজ ও জঙ্গিবিমান থেকে সিরিয়ার তিনটি প্রধান রাসায়নিক অস্ত্র ক্ষেত্রে শতাধিক ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে।

গত সপ্তাহে সিরিয়ার পূর্ব গৌতায় বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত সর্বশেষ শহর দোমায় কেমিক্যাল গ্যাস হামলায় অনেক হতাহতের ঘটনা ঘটে।ওই কেমিক্যাল গ্যাস হামলার জবাব দিতে এ হামলা চালায় তিন দেশ। সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশাল আল আসাদের বিরুদ্ধে পশ্চিমা শক্তিগুলোর এটি ছিল সবচেয়ে বড় অভিযান।

তবে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় দাবি করেছে তারা যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের ছোড়া ১০৩টি ক্ষেপণাস্ত্রের মধ্যে ৭১টি আটকে দিতে সক্ষম হয়েছে।

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর