Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ জুলাই ২০১৮, ২ শ্রাবণ ১৪২৫, ৩ যিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মঙ্গল শোভাযাত্রার নির্দেশ কোনো ভালো লক্ষণ নয় -মাওলানা হুছামুদ্দীন চৌধুরী ফুলতলী

| প্রকাশের সময় : ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার ঃ দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহে ১লা বৈশাখে মঙ্গল শোভাযাত্রা উদযাপনের নির্দেশনার প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ আনজুমানে আল ইসলাহর মুহতারাম সভাপতি মাওলানা হুছামুদ্দীন চৌধুরী ফুলতলী। এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, বাংলাদেশ শতকরা পঁচানব্বই ভাগ মুসলমানের দেশ। এ দেশে স্কুল মাদরাসা নির্বিশেষে সকল প্রতিষ্ঠানে মঙ্গল শোভাযাত্রা উদযাপনের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এটা কিসের আলামত? নিঃসন্দেহে এটা কোনো ভালো লক্ষণ নয়। এ নির্দেশনা দেশের সংখ্যাগরিষ্ট মানুষের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হেনেছে। এ নির্দেশনা বাতিল করা উচিত। খতিয়ে দেখা উচিত কারা এমন নির্দেশনা দিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে মানুষকে উস্কে দেয়ার চক্রান্তে লিপ্ত। তিনি বলেন, মঙ্গল শোভাযাত্রা ইসলাম ধর্ম বিরোধী। এ ধরণের কোনো আয়োজন ইসলামের প্রকৃত আদর্শে বিশ্বাসী কোনো মুসলমান করতে পারে না। তিনি ১লা বৈশাখে সব ধরণের অপসংস্কৃতি ও বেহায়াপনা থেকে বেঁচে থাকতে সকলের প্রতি উদাত্ত আহবানও জানিয়েছেন।



 

Show all comments
  • জাফর ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ৩:৩৬ এএম says : 2
    আলেম সমাজকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আন্দোলন করতে হবে
    Total Reply(1) Reply
    • Nur ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ৮:০৩ এএম says : 0
      Sob muslim ak ho bidormira agat korte prostut roese.
  • ফয়জুর রহমান ফয়েজ ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ১১:১৪ এএম says : 0
    যথার্থ বলা হয়েছে।
    Total Reply(0) Reply
  • গনতন্ত্র ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ১:৩৬ এএম says : 0
    জনগন বলছেন, “শেষ ভ্রমনের তৈয়ারী” বানায় পাসপোর্ট,লয় ভিসা,কাটে টিকেট গুচায় লাগেজ পৃথিবীতে যারা ভ্রমন করে, আমরা কি সবাই তৈয়ারী হয়ে আছি যে-কোন মূহুর্তে নিশ্চিত শেষ ভ্রমনের তরে। যাহা সাথে নিয়ে যাওয়া কাষ্টম কতৃক অবৈধ সে সম্পদ সঞ্চয়ে আমরা জীবন করি ক্ষয়, যত খুশী নেওয়া যায়,বিনামূল্যে পাওয়া যায় শয়তানের ছলনায়,তা হতে মন দূরে রয়। মেয়েকে বিয়ে দিয়ে,পুত্রবধু আসিলে ঘরে আল্লাহর ঘরে যাবো, বাড়ীর মটগেজ শেষ করে, একের পর এক ঝামেলা আসে কাধেঁর উপরে পোহাতে ঝামেলা যৌবন জিম্মি,বার্ধ্যকের ঘাড়ে। প্রতিদিন যে ব্যাকটেরিয়ারা খাচ্ছে ভিতর দেখতে পাই না বলে বুঝতে পারি না, কিসের কারনে চুল-দাড়িঁ সব সাদা হচ্ছে একটু ভাবলে কি তার জবাব মিলে না ? গীবত করা,ঝগড়া লাগানো,বদনাম রটিয়ে এসব অসামাজিক কাজে ব্যস্ত হয়ে সময় কাটিয়ে থাকি, কামিয়ে দাড়িঁ,বয়স লুকাতে রং দিয়ে চুল ঢাকি মানুষ ঠকিয়ে,নিজের ভাগ্যকে নিজেই দিচ্ছ ফাঁকি। ফিরে আসা বা যা এসে নেওয়া সম্ভব নয় সেই জিনিষ জেনে-শুনে কেন করি ক্রয়, চিহ্নিত লাগেজ,বৈধ জিনিষে পরিপূর্ন করিনা হেলায় শূন্য লাগেজ যায় ওপারে,নিষিদ্ধ মাল কাষ্টমে রয়। কেন হাবু-ডুবু খাই প্রতি মুহূর্ত মিথ্যের সাগরে আপন স্বার্থ উদ্দারে আর শয়তানের হয় জয়, জানি স্কন্ধের শিরার চেয়েও নিকটে সৃষ্টিকর্তা তবুও সারাজীবন আমরা করি নয়-ছয়। আসিবে না বুঝি আজরাঈল,প্রাণ নিবেনা কেড়ে তাই বুঝি হয়না, আমাদের মৃত্যুর ভয়, কবরে শুয়াইয়া আসিয়া অতীব প্রিয়জনকে সম্পদের লোভে পশুর চেয়েও হিংস্র হয়? দাও গো প্রভূ!সেই শক্তি তুমি আমাদেরে মানব সেবায় থমকে না যাই জাত-ধর্মের তরে, শেষ ভ্রমনের তৈয়ারীতে গাফলতি না করে তোমাকে দেখার আশা নিয়ে আসি যেন কবরে।
    Total Reply(1) Reply
    • N ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ৮:০৬ এএম says : 0
      Sotik bolesen.
  • Jamal Hossain ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ১১:১৪ এএম says : 0
    Right
    Total Reply(0) Reply
  • ফারুক আহমদ ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ৯:৩০ এএম says : 0
    দ্বীন প্রতিষ্টা সবাই আমরা নেক আর এক হয়ে যাই।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ