Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ২ রবিউস সানী ১৪৪০ হিজরী

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে হিজাব পরিধানে বাধা দেয়া চরম ধর্ম অবমাননা ও সংবিধান পরিপন্থি -গওহরডাঙ্গার মুফতি রুহুল আমীন

| প্রকাশের সময় : ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার: হিজাব পরিধানের কারণে কুমিল্লা বিশ^ বিদ্যালয়ের তাসনিয়া আনিকাকে ক্লাস রুম থেকে বের করে দেওয়ার তীর্ব নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন খাদেমুল ইসলাম বাংলাদেশের আমীর ও গওহরডাঙ্গা মাদরাসার মহাপরিচালক আল্লামা মুফতি রুহুল আমীন। গতকাল এক বিবৃতিতে তিনি এর প্রতিবাদ জানান।
বিবৃতিতে মুফতি রুহুল আমীন বলেন, পর্দা ইসলামের অলঙ্ঘনীয় বিধান যা পালন করা প্রতেক মুসলমানের জন্য ফরজ। অস্বীকার করা কুফুরী। বাংলাদেশ বিশে^র দ্বিতীয় মুসলিম অধ্যুষিত দেশ, রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম। এ দেশের মানুষ ধর্মপ্রাণ; ধর্মী অনুশাসন মেনে চলা তাদের পারিবারিক, সামাজিক ও রাষ্ট্রিয় ঐতিহ্য এবং গণতান্ত্রিক অধিকার। এ অধিকার খর্ব করা বা হিজাব পরিধানে বাধা দেয়া চরম ধর্ম অবমাননা এবং গণতান্ত্রিক অধিকারে হস্তক্ষেপ এবং সংবিধান পরিপন্থি। কুমিল্লা বিশ^বিদ্যালয়ের গেস্ট টিচার সহকারী অধ্যাপক সাইদুল আলামিন হিজাব পরিধানের কারণে তাসনিয়া আনিকাকে ক্লাস রুম থেকে বের করে এবং হিজাব নিয়ে কটুক্তি করে যে ধৃষ্টতা দেখিয়েছে তা ধর্মীয় অনুভূতিতে চরম আঘাত। তার এহেন কর্মের জন্য তাকে অনতিবিলম্বে বিশ^বিদ্যালয় থেকে অব্যহতি দিয়ে আইনের আওতায় আনতে হবে। অন্যথায় দেশবাসী প্রতিবাদ আন্দোলন গড়ে তুলবে এবং এ জন্য যে কোন অবস্থার দায়ভার সরকারকে বহন করতে হবে।

 



 

Show all comments
  • ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ৭:৪০ এএম says : 0
    এদের বিচার হওয়া চাই
    Total Reply(0) Reply
  • Md Ashraful Haque ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ২:০৮ পিএম says : 0
    To be punished the mentioned teacher for harassing the female student for Hizab
    Total Reply(0) Reply
  • মোঃ জয়নুল আবেদীন ১৬ এপ্রিল, ২০১৮, ১০:০১ এএম says : 0
    সেকুলারিজাম ধর্মকে সহ্য করেনা, করবেও না। আমরা হতভাগা গুলি শুধু চেয়ে চেয়ে দেখব। কিছু করার নেই।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।