Inqilab Logo

শনিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৮ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

যারা নিরাপত্তা দেবে তারাই পাখির মতো গুলি করে মানুষ হত্যা করছে : হান্নান শাহ

প্রকাশের সময় : ৬ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব:) আ স ম হান্নান শাহ বলেছেন, দেশে নিরাপত্তা বাহিনী মানুষের নিরাপত্তা দেয়ার কথা কিন্তু তারাই পাখির মতো গুলি করে হত্যা করছে। এমনকি থানা হেফাজতে থাকা অবস্থায় নারীরা ধর্ষিত হচ্ছে। কিন্তু এর খুব কমই প্রকাশিত হচ্ছে। মানুষ এর সঠিক কোনো বিচারও পাচ্ছে না। গতকাল এক প্রতিবাদ সভায় তিনি এসব কথা বলেন।
জাতীয় প্রেস ক্লাবে বিএনপি চেয়ারপারসন সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। হান্নান শাহ বলেন, চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে পুলিশ পাখির মতো মানুষ হত্যা করেছে। আবার হত্যার সংখ্যা নিয়েও লুকোচুরি করা হচ্ছে। এভাবে তারা যাকে খুশি তাকে হত্যা করছে। তারা আবার বলে থাকে তারাই নাকি সরকারকে টিকিয়ে রেখেছে।
তিনি বলেন, আগে নির্বাচনকে কেন্দ্র করে লাইসেন্স করা অস্ত্র জমা নেয়া হতো, কিন্তু এবার তা করা হয়নি। এবারের ইউপি নির্বাচনে সরকারি দলের সন্ত্রাসীরা সে অস্ত্র ব্যবহার করে নির্বিচারে মানুষ হত্যা করছে।
তনু হত্যার প্রতিবাদ জানিয়ে হান্নান শাহ বলেন, তনুকে হত্যা করা হয়েছে একটি নিরাপদ এলাকায়। কিন্তু তারও কোনো কূলকিনারা হচ্ছে না। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বিএনপিকে দমন করতে ব্যস্ত, তারা হত্যাকারীদের কোনো খোঁজ পায়না।
ব্যাংক লুটপাট করা হচ্ছে মন্তব্য করে বিএনপির এ নেতা বলেন, কোষাগার একটি সেনসেটিভ জায়গা, অথচ সেখানে অন্য দেশের লোক নিয়োগ দেয়া হয়েছে। এ ঘটনায় শুধু গভর্নর নয়, সরকারের পদত্যাগ করা উচিত। সরকার কথায় কথায় বিভিন্ন প্রকল্পে ৩-৪ শ’ কোটি টাকা বাড়িয়ে দিচ্ছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, এর একটি অংশ লুটপাট হচ্ছে। এ টাকা কোথায় কিভাবে যাচ্ছে একদিন এর বিচার হবে।
ইউপি নির্বাচনে থাকবে মন্তব্য করে বিএনপির এ নীতিনির্ধারক বলেন, তাহলে দেশের সব এলাকার তৃণমূলের মানুষ বুঝতে পারবে আওয়ামী লীগ কত বড় ভোট ডাকাত। তিনি সরকারকে গণতন্ত্রের পথে আসার আহ্বান জানিয়ে বলেন, অবিলম্বে সর্বদলীয় সভা ডেকে জাতীয় গাইডলাইন তৈরি করুন।
সভায় বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদু বলেন, দেশে দ্রুত একটি জাতীয় নির্বাচন হতে হবে। প্রয়োজনে জাতিসংঘ এমনকি ভারতের তত্ত্বাবধানে হলেও।
সভায় সভাপতিত্ব করেন আবু নাসের রহমাতুল্লাহ। স্বাধীনতা ফোরাম আয়োজিত প্রতিবাদী যুব সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, বিএনপির সহ-স্বেচ্ছাবিষয়ক সম্পাদক এ বি এম মোশাররফ হোসেন, নির্বাহী কমিটির সদস্য খালেদা ইয়াসমিন, চৌধুরী রাজিব হাসান রিপন, মনিরুজ্জামান মনির, ইসতিয়াক আহমেদ বাবুল, এ কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন প্রমুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যারা নিরাপত্তা দেবে তারাই পাখির মতো গুলি করে মানুষ হত্যা করছে : হান্নান শাহ
আরও পড়ুন