Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩ আশ্বিন ১৪২৬, ১৮ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

আইসিবির মুনাফা ৯ শতাংশ হ্রাস

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৯ এপ্রিল, ২০১৮, ১২:০০ এএম

রাষ্ট্রায়াত্ত প্রতিষ্ঠান ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশের (আইসিবি) চলতি হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে পরিচালন মুনাফায় উল্লেখযোগ্য প্রবৃদ্ধি দেখা গেছে। তবে শেয়ারে বিনিয়োগ ও প্রদত্ত ঋণের বিপরীতে সঞ্চিতি প্রায় তিন গুণে উন্নীত হওয়ায় কর-পরবর্তী মুনাফা আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় নয় শতাংশ কমে গেছে।
কোম্পানির সর্বশেষ অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনায় দেখা যায়, জুলাই-মার্চ সময়ে আইসিবির সুদ বাবদ আয় আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় ৫৬.৪৪ শতাংশ বেড়ে ২৩৮ কোটি ৫৮ লাখ টাকায় দাঁড়িয়েছে। লভ্যাংশ, মূলধনি মুনাফা, ফি, কমিশন ও সার্ভিস চার্জ এবং অন্যান্য পরিচালন উৎস মিলিয়ে প্রথম তিন প্রান্তিকে ৭৯৯ কোটি ৮০ লাখ টাকা পরিচালন আয় হয়েছে আইসিবির। যেখানে আগের বছরের একই সময়ে এ খাতে আয় ছিল ৬৬৬ কোটি ৫৮ লাখ টাকা। এক বছরের ব্যবধানে পরিচালন আয় বেড়েছে প্রায় ২০ শতাংশ।
আইসিবির পরিচালন আয় বাড়লেও চলতি বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে পরিচালন ব্যয় কিছুটা কমেছে। আলোচ্য সময়ে ১৬২ কোটি টাকা পরিচালন খাতে ব্যয় করেছে আইসিবি, যেখানে এর আগের বছর এ খাতে ব্যয় হয়েছিল ১৬৩ কোটি টাকা। যোগ-বিয়োগ করে চলতি হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে আইসিবির পরিচালন মুনাফা আগের বছরের একই সময়ে তুলনায় ২৬.৪৪ শতাংশ বেড়ে ৬৩৭ কোটি ১৭ লাখ টাকায় দাঁড়িয়েছে। তবে প্রথম তিন প্রান্তিকে আইসিবির সঞ্চিতি আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় ১৯৬ শতাংশ বেড়েছে, যার প্রভাব দেখা গেছে শেয়ারপ্রতি মুনাফায় (ইপিএস)।
আর্থিক প্রতিবেদনে দেখা যায়, ঋণ, সম্পদ, শেয়ারে বিনিয়োগ ও মূসক বাবদ চলতি হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে ২১৪ কোটি ১৭ লাখ টাকার সঞ্চিতি সংরক্ষণ করেছে আইসিবি। আগের বছরের একই সময়ে সঞ্চিতির পরিমাণ ছিল ৭২ কোটি ৩০ লাখ টাকা। এক বছরের ব্যবধানে সঞ্চিতি বেড়েছে ১৯৬ শতাংশ। এর মধ্যে ঋণের বিপরীতে সঞ্চিতি ১৭৪ দশমিক ৫১ শতাংশ বেড়েছে। আগের বছর শেয়ারে বিনিয়োগের বিপরীতে কোনো সঞ্চিতি না রাখলেও চলতি হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে এ খাতে ১২১ কোটি ৬৬ লাখ টাকার সঞ্চিতি সংরক্ষণ করেছে আইসিবি।
প্রথম তিন প্রান্তিকে আয়কর বাবদ ৯৭ কোটি ৩৭ লাখ পরিশোধের জন্য রাখার পর চলতি হিসাব বছরের আইসিবির ৩২৫ কোটি ৬৭ লাখ টাকা নিট মুনাফা হয়েছে। আগের বছরের একই সময়ে ৭২ কোটি টাকা কর পরিশোধের পর ৩৫৮ কোটি ৮২ লাখ টাকা নিট মুনাফা হয়েছিল। চলতি হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে আইসিবির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪ টাকা ৯০ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ৫ টাকা ৪০ পয়সা। এ বছরের ৩১ মার্চ প্রতিষ্ঠানটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৫৭ টাকা ৯৯ পয়সায়, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ৭৪ টাকা ১৫ পয়সা। ডিএসইতে আইসিবি শেয়ারের সর্বশেষ দর ছিল ১৩২ টাকা ৩০ পয়সা। গত এক বছরে এর দর ১২০ থেকে ২০৯ টাকার মধ্যে ওঠানামা করে।
পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠানটি ১৯৭৭ সালে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত হয়। বর্তমানে এর অনুমোদিত মূলধন এক হাজার কোটি ও পরিশোধিত মূলধন ৬৬৪ কোটি ৪৫ লাখ ৩০ হাজার টাকা। রিজার্ভ ৩ হাজার ৪১৮ কোটি ৬৬ লাখ টাকা। মোট শেয়ারের ৬৯.৮১ শতাংশ কোম্পানির উদ্যোক্তা-পরিচালকদের কাছে, সরকারের কাছে ২৭ শতাংশ, প্রতিষ্ঠান ১.৪৩ ও বাকি ১ দশমিক ৭৬ শতাংশ শেয়ার রয়েছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের হাতে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আইসিবি

১৩ জুন, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন