Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৭ আশ্বিন ১৪২৫, ১১ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

সুষ্ঠু ভোট হলে গাজীপুরে ধানের শীষের বিজয় সুনিশ্চিত -রিজভী

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৫ জুন, ২০১৮, ১:১১ পিএম

গাজীপুরে সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে সুষ্ঠু ভোট হলে ধানের শীষের বিজয় সুনিশ্চিত বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

সোমবার রাজধানীর নয়াপল্টনের দলীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ মন্তব্য করেন।

রিজভী বলেন, নির্বাচনে জনগণের মধ্যে ভোট নিয়ে উদ্বেগ ও আশঙ্কা আরও গভীরতর হচ্ছে। তবে সব বাধাবিপত্তি অতিক্রম করে ভোটাররা কেন্দ্রে ভোট দিতে আসবেন। ভোট যদি সুষ্ঠু ও অবাধ হয়, তা হলে ধানের শীষের বিজয় কেউ ঠেকাতে পারবে না।

বিএনপির এ নেতার অভিযোগ, গাজীপুরে সুষ্ঠু নির্বাচনের প্রধান অন্তরায় হয়ে দাঁড়িয়েছে পুলিশ ও অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এখানে বাছাই করে-করে দলবাজ পুলিশ কর্মকর্তাদের নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

পুলিশ ভোটারদের মধ্যে আতঙ্ক তৈরির কাজ করছে অভিযোগ করে তিনি আরও বলেন, পাইকারি হারে গ্রেফতার, বাসায় বাসায় তল্লাশি, বিভিন্ন কেন্দ্রে ধানের শীষের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির নেতৃবৃন্দকে আটক করছে পুলিশ।

‘দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে নিয়ে আসা ডিবি পুলিশের হানাদারি আগ্রাসন, সরকারি দলের মেয়র, মন্ত্রী ও নেতাদের নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গসহ সর্বোপরি নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর পুলিশের গাড়িতে করে প্রচারাভিযান ইত্যাদি ঘটনায় সরকারের মেসেজটা কী তা গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ভোটারদের বুঝতে বাকি নেই।’

আওয়ামী লীগ গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে ক্ষমতায় থাকতে পছন্দ করে না এবং গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে ক্ষমতা থেকে সরে যেতেও পছন্দ করে না বলে মন্তব্য করেন রিজভী।

তিনি বলেন, কয়েক দিন আগে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন নিয়ে প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেছিলেন- গাজীপুরে খুলনার ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটবে না। তার মানে খুলনায় নির্বাচন নিয়ে ব্যাপক কারচুপি ও ভোট-সন্ত্রাসের যে অভিযোগ করা হয়েছে, তার বক্তব্যে সেটিই প্রমাণিত হল।

রিজভীর অভিযোগ, শুধু খুলনা-মার্কা নয়, গাজীপুরে ভোট ডাকাতির সর্বোচ্চ রেকর্ড গড়তে প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে ইসি ও প্রশাসনের কর্মকর্তারা। আগামীকাল গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনে যে ভোট অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে সেখানে জনগণ অবাধে পছন্দানুযায়ী প্রার্থীকে ভোট দিতে পারবে এমন কোনো পরিবেশ এখনও দৃশ্যমান নয়।

বিএনপির এ নেতা জানান, গতরাতেও গাজীপুরে বিএনপির নির্বাচন পরিচালনার দায়িত্বে নিয়োজিতসহ ১৩ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এ ছাড়া শত শত বিএনপি নেতাকর্মী ও সমর্থককে বাড়ি বাড়ি গিয়ে হানা দিয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। গ্রেফতার করা হয়েছে এখন পর্যন্ত দেড় শতাধিক নেতাকর্মীকে।



 

Show all comments
  • k ২৫ জুন, ২০১৮, ১:৩৫ পিএম says : 0
    apne polton office boshay mathematics and geography koray bolay delan apnara pass. apnara boker shorgay bash kortay paran but jonogon noy.
    Total Reply(0) Reply
  • kazi Nurul Islam ২৫ জুন, ২০১৮, ১:৫৪ পিএম says : 0
    Absolutely correct quotation, strongly say after fail.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ