Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬ আশ্বিন ১৪২৫, ১০ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

দৈনন্দিন জীবনে ইসলাম

| প্রকাশের সময় : ২৯ জুন, ২০১৮, ১২:০৪ এএম

প্রশ্ন: ঘুমন্ত বা নেশাগ্রস্থ ব্যক্তির মুখ থেকে আয়াতে সিজদাহ শুনলে কী করতে হবে?
উ: সিজদাহ দিতে হবে। অবগত হওয়ার পর ঘুমন্ত বা নেশাগ্রস্থ ব্যক্তির ওপরও সিজদাহ ওয়াজিব হবে। (আলমগীরী)
প্রশ্ন: সিজদায়ে তেলাওয়াত ওয়াজিব হওয়ার পর দেরীতে আদায় করা কী?
উ: নামাযের মধ্যে তৎক্ষণাত আদায় করা ওয়াজিব। বিলম্ব করা মাকরূহ তাহরীমী। আর নামাযের বাইরে প্রথম সুযোগে আদায় করা উত্তম। দেরী করা মাকরূহ তানযিহী। (গায়াতুল আওতার)
প্রশ্ন: জুমআর নামায ফরযে আইন নাকি ফরযে কিফায়াহ?
উ: ফরয আইন।
প্রশ্ন: জুমআর নামাযের শর্তগুলো কি?
উ: জুমআ ওয়াজিব হওয়ার জন্য চারটি শর্ত রয়েছে। এগুলো হলো: ১.পুরুষ হওয়া। ২. স্বাধীন হওয়া। ৩. সুস্থ থাকা। ৪. ইকামত থাকা- সফরের হালতে নয়। তাই মহিলা, গোলাম, অসুস্থ এবং মুসাফিরের ওপর জুমআ ওয়াজিব নয় তবে আদায় করলে আদায় হবে এবং যোহর আর পড়তে হবে না। তবে মহিলাদের জন্যে সর্বাবস্থায়ই জুমআ পড়ার চেয়ে যোহর পড়া উত্তম। (দুররে মুখতার)
প্রশ্ন: জুমআ সহীহ হওয়ার জন্যে কি কি শর্ত?
উ: ১. জুমআর নামায শহর বা উপশহরে হওয়া। ২. যোহর নামাযের ওয়াক্তে হওয়া। ৩. খোতবাহ দেওয়া। ৫. সর্বসাধারণের প্রবেশাধিকার থাকা।
প্রশ্ন: শহর বা উপশহর কাকে বলে?
উ: ফিকহের পরিভাষায় শহর বা উপশহর ওই জনপদকে বলা হয়, যার মধ্যে বসবাসকারী মুসলিম পুরুষেরা যদি ওই এলাকার সবচেয়ে বড় মসজিদে একত্রিত হয় তাহলে মসজিদে স্থান সংকুলান হবে না। (শরহে বিকায়াহ)
-মুফতী ওয়ালীয়ুর রহমান খান



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ