Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮, ০৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

মাহদিকে নিয়ে অনেক আশা বুলবুলের

স্পোর্টস রিপোর্টর | প্রকাশের সময় : ১৯ জুলাই, ২০১৮, ১২:০১ এএম

আমিনুল ইসলাম বুলবুল। বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে এক উজ্জ্বল নাম। জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক দেশের প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরিয়ানও। বর্তমানে তিনি কর্মরত আছেন আইসিসির ম্যানেজার হিসেবে মেলবোর্নে। চাকরি সূত্রে বুলবুলের পরিবারও বাস করে অস্ট্রেলিয়াতেই। সেখানেই তার ছেলে মাহদি ইসলাম অস্ট্রেলিয়ার বয়সভিত্তিক দলে খেলার সুযোগ পেয়েছেন।
মাহদির এই খবর নিয়ে বেশ কদিন ধরে সরব দেশের গণমাধ্যম। অস্ট্রেলিয়ার মত দেশ, যেখানে যে কোন পর্যায়ের ক্রিকেট দলে সুযোগ পেতে তুমুল প্রতিদ্ব›িদ্বতার মধ্য দিয়ে যেতে হয়। সেখানকার কোনো বয়সভিত্তিক মূল দলে সুযোগ পাওয়া চাট্টিখানি কথা নয়। সেটাই করে দেখিয়েছেন মাহদি। এরপর থেকে টাইগার ক্রিকেট ভক্তদের মনে শুরু হয় আক্ষেপ। মাহদি কি বাংলাদেশের হয়ে খেলতে পারত না। বুলবুলের কথায় সেই সব ভক্তরা আস্বস্থ হতে পারেন। তিনি জানিয়েছেন, সুযোগ পেলে মাহদি তার প্রতিভা কাজে লাগাবেন বাংলাদেশ দলের জার্সি গায়েও।
মাহদি ইসলাম ডাক পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার অনূর্ধ্ব-১৫ ইনডোর ক্রিকেট দলে। আগামী ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে ৭ অক্টোবর পর্যন্ত নিউজিল্যান্ডে অনুষ্ঠিত হবে বিশ্ব কিশোর অনূর্ধ্ব-১৫ ইনডোর ক্রিকেট চ্যাম্পিয়নশিপের আসর, যেখানে খেলবেন বাংলাদেশের মাহদি। এই বয়সেই দেশটির ভিক্টোরিয়ার রাজ্যদল ভিক্টোরিয়া একাদশের হয়ে নিয়মিতভাবে পেশাদার ক্রিকেট খেলে যাওয়া মাহাদিই বয়সভিত্তিকের বিশ্বকাপ সমতুল্য আসরের পুরো অস্ট্রেলিয়া স্কোয়াডের একমাত্র এশীয় বংশোদ্ভূত ক্রিকেটার। উল্লেখ্য, মাহদি ছাড়াও স্কোয়াডে ভিক্টোরিয়া একাকদশের সাতজন ডাক পেয়েছেন।
ছেলের সাফল্যে বাবার উচ্ছ¡াস যেন ঠিকরে পড়ছে। জনপ্রিয় ক্রিকেট ব্যক্তিত্ব বুলবুল বলেন, ‘মাহদি অস্ট্রেলিয়ার হয়ে খেলছে, এটা ভীষণ আনন্দের। সুযোগ পেলে সে একদিন বাংলাদেশের হয়েও খেলবে।’ তিনি আরো জানান, ‘ক্রিকেটের প্রতি মাহদির ভালোবাসা আমার চেয়েও বেশি। ওর খেলা দেখে আমার কৈশোরের কথা মনে পড়ে যায়। ওর সাফল্যই আমার একমাত্র চাওয়া।’
ক্রিকেটের একজন উজ্জ্বল প্রতিভা হয়েও বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড কখনোই বুলবুলের প্রতিভাকে কাজে লাড়ানোর চেষ্টা করেনি। দেশের ক্রিকেট উন্নয়নে উপেক্ষিত হলেও ঠিকই তিনি জড়িয়ে আছেন ক্রিকেটের সঙ্গেই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ