Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৮ আশ্বিন ১৪২৫, ১২ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

আমি ছোট থাকতেই আমার বাবা মারা যান। বর্তমানে তার কবরের কোনো চিহ্ন নেই। কবর বাঁধিয়ে রাখলে আমি তা দেখতে পেতাম, জিয়ারত করতে পারতাম। কবর না জানার বিষয়টি আমাকে খুবই পীড়া দেয়। আমি এখন কী করব?

সিফাত-ই-রব
কুয়েত

প্রকাশের সময় : ১৯ জুলাই, ২০১৮, ১১:২৭ পিএম

আপনার মরহুম আব্বার জন্য আপনি দোয়া করবেন। আল্লাহর হুকুম এটিই। এছাড়া দান-খয়রাত, নফল ইবাদত ইত্যাদি করে তার রূহে সওয়াব পৌঁছানোর জন্য আল্লাহর নিকট দোয়া করবেন। যে কবরস্থানে তিনি আছেন সম্ভব হলে সেখানে গিয়ে জিয়ারত করবেন। নির্দিষ্ট করে কবর না চিনলেও সওয়াব হবে। কবর চিহ্নিত করে রাখার জন্য মাথার দিকে কোনো পাথর বা চিহ্ন রেখে দেয়া হয়। অনেকে গাছও লাগিয়ে রাখেন। এর বেশি কিছু করা শরীয়ত উৎসাহিত করে না। কারণ যদি সবাই কবর বাঁধাই করে রাখে তাহলে পরবর্তীতে নতুন কবর দেয়ার সুযোগ সীমিত হয়ে পড়বে। অথচ কবরস্থান প্রজন্মের পর প্রজন্ম চালু রাখার জন্য সকল কবর বাঁধাইবিহীন থাকাই অধিক সমীচীন। আপনার মনের কষ্ট সওয়াব আকারে আপনি পাবেন, ধৈর্য ও দোয়ার মাধ্যমে। আল্লাহর ফায়সালায় সন্তুষ্ট থাকার মাধ্যমে। আপনি আব্বার জন্য আল্লাহর কাছে ক্ষমা ও দয়া লাভের দোয়া করে যান। এতেই আপনার আব্বা উপকৃত হবেন। আপনারও অনেক সওয়াব হবে। কবর না থাকার কষ্ট মনে পুষে রাখবেন না। 

সূত্র : জামেউল ফাতাওয়া, ইসলামী ফিক্হ ও ফতওয়া বিশ্বকোষ।
উত্তর দিয়েছেন : আল্লামা মুফতি উবায়দুর রহমান খান নদভী

ইসলামিক প্রশ্নোত্তর বিভাগে প্রশ্ন পাঠানোর ঠিকানা
inqilabqna@gmail.com



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ