Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৪ আষাঢ় ১৪২৮, ০৬ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

নেত্রকোনায় আদালত প্রাঙ্গণ থেকে হত্যা মামলারআসামীর পলায়ন, ৮ পুলিশ ক্লোজড

নেত্রকোনা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৯ জুলাই, ২০১৮, ৬:১১ পিএম

নেত্রকোনার আদালত প্রাঙ্গণে পুলিশের হেফাজত থেকে হত্যা মামলার আসামী মিলন মিয়া (২৭) পালিয়ে যাওয়ার ঘটনায় জেলা শহরে তোলপাড় শুরু হয়েছে। এ ঘটনায় দায়িত্ব অবহেলার অভিযোগে এ টি এস আই খায়রুল ইসলামসহ ৮ পুলিশকে ক্লোজড করা হয়েছে।
নেত্রকোনা জেলা কারাগারের জেলার ফারহানা আক্তার বলেন, সকাল ১০টার দিকে কোর্ট পুলিশের মাধ্যমে বিভিন্ন মামলার ৪৫ জন আসামীর সাথে মিলন মিয়াকে আদালতে প্রেরণ করা হয়।
আদালত সূত্রে জানা যায়, স্ত্রীকে হত্যায় দায়ে অভিযুক্ত মিলন মিয়াকে (২৭) জেলখানা থেকে রবিবার সকালে অন্য আসামীদের সাথে আদালতে হাজির করার জন্য আনা হয়। তাদেরকে প্রিজন ভ্যান থেকে লক-আপে নেয়ার সময় পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে সে পালিয়ে যায়। পালিয়ে যাওয়া মিলন মিয়া নেত্রকোনা জেলার বারহাট্টা উপজেলার বিকালিকা গ্রামের মোঃ লুৎফর রহমানের ছেলে।
নেত্রকোনার পুলিশ সুপার জয়দেব চৌধুরী জানান, গত বছরের ২০ আগষ্ট পৌর শহরের হোসেনপুর এলাকায় স্ত্রীকে হত্যা করে ধান ক্ষেতে ফেলে রাখার তিন দিন পর ঘাতক স্বামী মিলন মিয়াকে সাতপাই এলাকা থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সে ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে ১৬৪ ধারায় স্ত্রীকে হত্যার স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্ধী দেয়। রবিবার আদালতে হত্যা মামলার দিন ধার্য থাকায় তাকে জেলখানা থেকে আদালতে প্রেরণ করা হয়। এ ঘটনায় অসতর্কতা ও দায়িত্ব অবহেলার অভিযোগে এ টি এস আই খায়রুল ইসলামসহ ৮ পুলিশকে ক্লোজড করা হয়েছে।
পালিয়ে যাওয়া মিলনকে গ্রেফতারের জোর চেষ্টা চলছে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নেত্রকোনা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ