Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩ আশ্বিন ১৪২৬, ১৮ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

কেরানীগঞ্জে বুড়িগঙ্গা নদী থেকে নিখোঁজের ২দিন পর ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা)উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৪ আগস্ট, ২০১৮, ৪:১৩ পিএম

ঢাকার কেরানীগঞ্জে নিখোঁজের দুইদিন পর বুড়িগঙ্গা নদী থেকে রাজধানী চক-মৌলভীবাজারের এক ব্যাকসায়ীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ শনিবার দুপুর ১২টায় পোস্তগোলা সেনানিবাস বরাবর বুড়িগঙ্গা নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ ওই ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে। নিহত ব্যবসায়ীর নাম শাহনিয়াজ সানি(২৮)। তার বাবার নাম মৃত শাজাহান আলী। বাসা রাজধানীর লালবাগ থানার রহমত উল্লাহ স্কুলের গলি। নিহত শাহনিয়াজ সানি চক-মৌলভী বাজারে বেবী ফুডের ব্যবসা করতো। গত শুক্রবার নিহতের দুলাভাই মোঃ সোহেল চকবাজার থানায় একটি জিডি করেন।
নিহতের দুলাভাই মোঃ সোহেল জানান, গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তার শ্যালক শাহনিয়াজ সানি দোকান বন্ধ করে বাসায় ফেরার পথে নিখোঁজ হয়। ওই দিন রাতে সে আর বাসায় ফেরেনি। আত্মীয় স্বজনদের বাসাসহ বিভিন্ন জায়গায় অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে না পেয়ে এবং তার সাথে থাকা মোবাইল ফোনটি বন্ধ পাওয়ায় গত শুক্রবার এব্যাপারে চকবাজার থানায় একটি জিডি করা হয়। পুলিশ বুড়িগঙ্গা থেকে একটি লাশ উদ্ধার করে স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে এনেছে এই খবর পেয়ে সে দ্রুত মর্গে এসে তার শ্যালক শাহনিয়াজ সানির লাশ সনাক্ত করেন।
দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার এসআই মো: সাকরাতুল ইসলাম জানান,লোকমারফত খবর পেয়ে আমরা বুড়িগঙ্গা নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় নিহত শাহনিয়াজ সানির লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করি। খবর পেয়ে সেখানে এসে নিহত শাহনিয়াজ সানির দুলাভাই মোঃ সোহেল তার শ্যালকের লাশ সনাক্ত করেন। উদ্ধারকৃত লাশের শরীরে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি ।তবে ময়না তদন্তের রিপোর্ট না পাওয়া পর্যন্ত এই মুহুর্থে নিহতের সঠিক মৃত্যুর কারণ বলা যাচ্ছে না।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কেরানীগঞ্জে


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ