Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫, ১৪ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

ভোলায় ১৪ টি গ্রামে আজ কোরবানির ঈদ উদযাপন

ভোলা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২১ আগস্ট, ২০১৮, ১০:১৯ পিএম

সারাদেশের ধর্মপ্রাণ মুসলমান আগামীকাল বুধবার ঈদুল আযহা উদযাপন করলেও ভোলার পাঁচ উপজেলার ১৪টি গ্রামের প্রায় তিন হাজার পরিবার একদিন আগে আজ মঙ্গলবার কোরবানির ঈদ উদযাপন করছেন।
শরিয়তপুর জেলার নুরিয়া উপজেলার দরবারে আউলিয়ার সুরেশ্বর দরবার পীরের মুরিদ ও ভোলা জেলার দায়িত্বে নিয়োজিত খলিফা মজনু মিয়া জানান, ভোলা জেলার পাঁচ উপজেলার ১৪টি গ্রামের প্রায় তিন হাজার পরিবার আজ মঙ্গলবার ঈদুল আযহা উদযাপন করছেন। সকাল সাড়ে ৮টায় বোরহানউদ্দিন উপজেলার টবগী গ্রামে তার বাড়ির আঙ্গিনায় ঈদের প্রথম জামাত অনুষ্ঠিত হবে। তিনি নিজেই ওই জামাতে ইমামতি করবেন। একইসঙ্গে ওই গ্রামের চৌকিদার বাড়ির জামে মসজিদে সকাল ৯টায় এবং পঞ্জায়েত বাড়ির জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৯টায় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। সকাল ৯টা থেকে ১০টার মধ্যে জেলার বিভিন্ন জায়গায় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে।
এ ছাড়া তজুমদ্দিন উপজেলার ছালাম মেম্বার বাড়ি, আব্দুল্লাহ মাঝি বাড়ি, লালমোহন উপজেলার লাঙ্গলখালীর পশ্চিম পাশে পাটোয়ারী বাড়ির জামে মসজিদ সংলগ্ন এলাকায় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। মজনু মিয়া বলেন, ভোলা সদর উপজেলার ইলিশা ও রতনপুর গ্রাম, বোরহানউদ্দিন উপজেলার টবগী ও মুলাইপত্তন গ্রাম, তজুমদ্দিন উপজেলার শিবপুর, খাসেরহাট, চাঁদপুর ও চাঁচড়া গ্রাম, লালমোহন উপজেলার পৌর শহর, ফরাজগঞ্জ গ্রাম এবং চরফ্যাশন উপজেলার পৌর শহর, দুলারহাট, ঢালচর ও চর পাতিলা গ্রামের প্রায় তিন হাজার পরিবার প্রতি বছর একদিন আগে রোজা রাখেন। একদিন আগে ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা পালন করে থাকেন। তিনি আরো বলেন, সুরেশ্বর পীরের মুরিদ ছাড়াও চট্টগ্রামের সাতকানিয়া এবং ভান্ডারি শরিফ পীরের মুরিদ এসব পরিবারের সদস্যরা শতাধিক বছর ধরে সৌদি আরবের সঙ্গে মিল রেখে একদিন আগে রোজা, ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা পালন করে আসছেন।
সুরেশ্বর পীরের অপর এক মুরিদ বোরহানউদ্দিন উপজেলার টবগী ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক মেম্বার হারুন অর রশিদ বলেন, আমাদের মতে পৃথিবীর যে কোন স্থানে চাঁদ দেখা গেলেই রোজা এবং ঈদ পালন করা যায়। সে অনুযায়ী আমরা প্রতি বছর একদিন আগে রোজা, ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা পালন করে আসছি।
একদিন আগে ভোলার প্রায় তিন হাজার পরিবার রোজা ও ঈদুল ফিতর পালনের ব্যাপারে ভোলার জেলা প্রশাসক মোঃ মাসুদ আলম ছিদ্দিক বিকেলে এ প্রতিবেদককে বলেন, দেশের অনেক জায়গায়ই বহু মানুষ একদিন আগে ঈদ পালন করে থাকেন। তবে, এটা নিয়ে আইন-শৃঙ্খলার কোন অবনতি করা যাবেনা।
পুলিশ সুপার মোঃ মোকতার হোসেন বলেন, শুধু ভোলা নয়, দেশের আরো অনেক জায়গাতেই অনেক মুসলমান একদিন আগে ঈদুল ফিতর এবং ঈদুল আযহা পালন করছেন। এক এক জন এক এক ভাবে ধর্মীও অনুষ্ঠান পালন করে থাকেন। তাই এক্ষেত্রে আমরা সেটা বন্ধ করতে পারিনা। আবার তাদেরকে বেশী উৎসাহিতও করতে পারিনা।



 

Show all comments
  • ইসমাঈল ২২ আগস্ট, ২০১৮, ৮:৫৩ এএম says : 0
    এৱা গোস্ত খাওয়ার মুসলমান
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ