Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ০২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

পল্লবীতে রিজার্ভ ট্যাংক বিস্ফোরণ চিকিৎসাধীন দগ্ধ নানা-নাতনীর মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৭ আগস্ট, ২০১৮, ১২:০২ এএম

রাজধানীর পল্লবীতে রিজার্ভ ট্যাংক বিস্ফোরণে দগ্ধ ৯ জনের মধ্যে চিকিৎসাধীন অবস্থায় নানা-নাতনির মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে গতকাল সকালে মারা গেছেন নানা সুরত আলী (৬০)। এর আগে গত শনিবার বিকেলে মারা গেছে নাতনি মিলি আক্তার (৪)। তারা দু’জনে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন ছিলেন। বার্ন ইউনিট সূত্র মৃত্যুর সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বিষ্ফোরণে সুরত আলীর ৭২ শতাংশ এবং মিলির শরীরের ৮৫ শতাংশ পুড়ে গেছে। মৃত মিলি দগ্ধ আলেয়ার মেয়ে।
ঢামেক হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের আবাসিক সার্জন ডা. পার্থ শংকর পাল বলেন, বিষ্ফোরণের ঘটনায় দগ্ধ ৯ জনের মধ্যে গত দুইদিনে দু’জন মারা গেছেন। চিকিৎসাধীন আরও পাঁচজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তারা বর্তমানে ঢামেক হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি রয়েছেন।
উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার রাতে মিরপুর-১২ নম্বরের পল্লবীর ই-বøকের লাইন-৪ এলাকার একটি বাড়ির নিচতলায় পানির রিজার্ভ ট্যাংক বিষ্ফোরিত হয় শিশুসহ ৯ জন দগ্ধ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে ঢামেকের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। মৃত সুরত আলী পরিবার নিয়ে ওই বাড়ির নিচতলার ভাড়া থাকতেন।
বিষ্ফোরণের ঘটনায় চিকিৎসাধীন অপর দগ্ধরা হলেনÑ সুরত আলীর স্ত্রী বেদানা বেগম (৫০), ছেলে রাব্বি (২১), পুত্রবধূ লাবনী (১৮), সুরত আলীর মেয়ে আলেয়া (৩০), বাড়ির মালিক মোশারফ হোসেন (৪৫), মালিকের ছেলে জিসান (১৮) এবং এক আত্মীয় আউয়াল হেসেন বাবু (৩২)।
পল্লবী থানার পরিদর্শক (অপারেশন) ইমরানুল ইসলাম জানান, বিষ্ফোরণের খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শনের জন্য পুলিশ পাঠালে তারা তিতাসের একটি পাইপ লাইনে লিকেজের বিষয়টি জানায়। প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে তিনি আরও জানান, পাইপ লাইন লিকেজের কারণে পানির পাইপ দিয়ে গ্যাস বের হয়ে রিজাব ট্যাংকিতে পৌঁছায়। ঘটনার দিন বাড়ির মালিকসহ অন্যান্যরা মোমবাতি জ্বালিয়ে ট্যাংকি চেক করার সময় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে।
নিহত সুরত আলীর ছেলে স্কুলছাত্র মো. শাকিল জানান, ঘটনার সময় ঈদের কেনাকাটার জন্য তিনি বাসার বাইরে ছিলেন। বাসায় ফিরে রিজার্ভ ট্যাংকে বিষ্ফোরণ হয়ে পরিবারের ৬ জনসহ মোট ৯ জনের দগ্ধ হওয়ার খবর পান বলে তিনি জানান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ