Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ৩০ কার্তিক ১৪২৫, ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

প্রশ্ন: আমি ফ্ল্যাট বাসায় ভাড়া থাকি, ঘরের একটি অংশে নামাজ ও ইবাদতের জন্য জায়গা রাখতে হয় শুনেছি। কিন্তু আমার বাসায় তেমন ব্যবস্থা নেই। যাদের বাসায় জায়গা আছে, তারা কি বেশি সওয়াব পাবেন?

সায়েম খান
উত্তরা, ঢাকা।

প্রকাশের সময় : ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:২৫ এএম

উত্তর : কুরআন ও হাদিসে নামাজের গুরুত্ব এত বেশি যে, মনে হবে মানব জনমের উদ্দেশ্যই নামাজ পড়া। পুরুষের জন্য জামাতে নামাজ পড়া উত্তম। মসজিদে গিয়ে জামাত পড়া সাধারণ নিয়মে ওয়াজিব। তবে ফরজ ছাড়া বাকি সব নামাজ বাড়িতে পড়া উত্তম। মহিলাদের তো ঘরের কোণে আড়াল জায়গায় নামাজ পড়ার হুকুমই আছে। নারী-পুরুষ সবার জন্যই আল্লাহর রাসূল সা. এ নির্দেশ দিয়েছেন যে, তোমরা ঘরবাড়িকে কবরস্থানের মতো বানিয়ে রেখো না। ঘরেও নামাজ পড়ো। নামাজ দিয়ে ঘরবাড়ি আবাদ রাখো। যার বাড়ি বা ফ্ল্যাট ছোট, নামাজের জন্য আলাদা জায়গা রাখার সুযোগ নেই তার কোনো সমস্যা নেই। কারণ, বাড়িতে নামাজের জন্য আলাদা কোনো জায়গা রাখার বিধান ইসলামে নেই। সব পবিত্র জায়গায়ই নামাজ পড়া যায়। যারা আলাদা জায়গা রাখেন তাদের বাড়তি কোনো সওয়াব হবে না। যারা জায়গা রাখতে পারেন না, তাদের সওয়াব কমও হবে না। কারণ, ঘরে নামাজ পড়ার হুকুম আছে, কিন্তু আলাদা জায়গা নির্ধারণের হুকুম নেই। সম্ভব হলে ভালো, না হলেও ভালো।

সূত্র : জামেউল ফাতাওয়া, ইসলামী ফিক্হ ও ফাতাওয়া বিশ্বকোষ।
উত্তর দিয়েছেন : আল্লামা মুফতি উবায়দুর রহমান খান নদভী

ইসলামিক প্রশ্নোত্তর বিভাগে প্রশ্ন পাঠানোর ঠিকানা
inqilabqna@gmail.com



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ