Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর ২০১৮, ০৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

ভুটানের বিদায়

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০২ এএম

টানা দুই ম্যাচ হেরে সাফ সুজুকি কাপ থেকে বিদায় নিশ্চিত হলো ভুটানের। অন্যদিকে প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে হারলেও দ্বিতীয় ম্যাচে বড় ব্যবধানে ভুটানকে হারিয়ে সেমিফাইনালের আশা জিইয়ে রাখলো নেপাল। গতকাল বিকালে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে ‘এ’ গ্রæপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে নেপাল ৪-০ গোলে হারায় ভুটানকে। বিজয়ী দলের হয়ে অনন্ত তামাং, সুনিল বাল, ভরত খাওয়াজ ও নিরঞ্জন খাদকা একটি করে গোল করেন।
প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের কাছে হারের পর কাল নেপালের বিপক্ষে নিজেদের খুঁজে পেতে চেয়েছিল ভুটান। কিন্তু তাদেরকে সেই সুযোগ দেয়নি নেপাল। ম্যাচের শুরু থেকেই ভুটানকে চেপে ধরে নেপালীরা। ফলে একের পর এক গোল আদায় করে নেয় তারা। তবে ম্যাচের ৯ মিনিটে প্রথম সুযোগ পায় ভুটানই। এসময় প্রায় ফাকা পোস্ট পেয়েও সুযোগ হাতছাড়া করেন ভুটানী ফরোয়ার্ড চেনচো। পরে খেলা নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে পাল্টা আক্রমণে যায় নেপাল। ২১ মিনিটে এগিয়েও যায় তারা। সুনিল বালের কর্ণারে মাথা ছুইয়ে ভুটানের জাল কাপান ডিফেন্ডার অনন্ত তামাং (১-০)। ৬৯ মিনিটে নিমা ওয়াংডি দ্বিতীয় হলুদ কার্ড (লাল কার্ড) দেখে মাঠ ছাড়লে দশ জনের দলে পরিণত হয় ভুটান। নিজেদের বক্সে নিরঞ্জনকে ফাউল করেন নিমা। রেফারি রোয়ান অরুমুঘান দ্বিতীয়বারের মতো হলুদ কার্ড দেখালে মাঠ থেকে বেরিয়ে যেতে বাধ্য হন এই ভুটানী। পেনাল্টি পায় নেপাল। কিন্তু পেনাল্টি থেকে প্রথমে বিমল গাত্রির শট ফিস্ট করে ফিরিয়ে দেন ভুটানী গোলরক্ষক কিরণ কুমার। কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি। ফিরতি বলে পোস্টের খুব কাছ থেকে ডান পায়ের বাকানো শটে গোল করেন সুনিল বাল (২-০)। ম্যাচের ৭৯ মিনিটে নিরঞ্জন খাদকার ফ্রি কিক থেকে বল পেয়ে বক্সে ঢুকে বাঁ পায়ের প্লেসিং শটে গোল করেন নেপালের বদলী ফরোয়ার্ড ভারত খাওয়াজ (৩-০)। ৮৮ মিনিটে সুনিল বালের কর্ণার থেকে বক্সে জটলায় বল পেয়ে দারুণ হেডে নেপালকে বড় জয় এনে দেন বদলী মিডফিল্ডার নিরঞ্জন খাদকা (৪-০)। শেষ পর্যন্ত এই ব্যবধানের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে হিমালয় কণ্যার দেশটি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ