Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৫ আশ্বিন ১৪২৫, ৯ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

ডায়াবেটিস রোগীদের ডিজিটাল নিবন্ধন চালু

স্টাফ রিপোর্টার : | প্রকাশের সময় : ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০১ এএম

দেশে প্রথমবারের মত ডিজিটাল পদ্বতিতে ডায়াবেটিস রোগীর তথ্য ও উপাত্ত নিবন্ধনের সূচনা করেছেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন। নিবন্ধিত তথ্য উপাত্ত ব্যাখ্যা ও বিশ্লেষণের মাধ্যেমে ডায়াবেটিসের সঙ্গে দিনযাপন করা রোগীর জন্য খুব সহজেই গুনগত স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করা যাবে। শুধু তাই নয়, মানুষ সচেতন হবে ডায়াবেটিস রোগ সম্পর্কেও।
গতকাল থেকে এই কার্যক্রম শুরু হলো। নভো নরডিস্কের সহযোগীতায় প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করবে বাংলাদেশ ডায়াবেটিক সমিতি (বাডাস) ও দেশ জুড়ে থাকা তাদের সহযোগী প্রতিষ্ঠানগুলো। এটি সম্পাদন করতে ২০১৭ সালের ডিসেম্বর মাসে বাডাসের সাধারন সম্পাদক মুহাম্মদ সাইফ উদ্দিন ও নভো নরডিস্কের এর সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট ফ্রেডেরিক কিয়ার এক সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষর করেন ।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাশেদ খান মেনন বলেন, বাংলাদেশে ডায়াবেটিস চিকিৎসার ক্ষেত্রে একটি যুগান্তকারী পদক্ষেপের সূচনা হল। তিনি বলেন, বাংলাদেশে ডিজিটাল নিবন্ধনের ফলে রোগীদের স্বাস্থ্য সম্পর্কে সঠিক চিত্র তুলে ধরা সম্ভব হবে। এতে করে, সমস্যাগুলির পেছনে পূর্ণ মনোযোগ দেওয়া যাবে। যা টেকসই উন্নয়ণ লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) অর্জনে অবদান রাখবে ও যে কোনো ধরণের ঝুঁকি মোকাবেলায় সহযোগিতা করবে।
বাডাসের সভাপতি ও স্বাধীনতা পদক প্রাপ্ত প্রফেসর আজাদ খান বলেন, এই নিবন্ধন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে রোগীর সংখ্যার পাশাপাশি একটা সঠিক চিত্র পাওয়া যাবে। যা সুচিকিৎসা নিশ্চিতে সাহায্য করবে।
নভো নরডিস্কের ব্যবস্থাপনা পরিচালক অনান্দ শেঠি বলেন, ডায়াবেটিস প্রতিরোধের জন্য এর গতি-প্রকৃতি সম্পর্কে ধারণা থাকা খুব জরুরি।
উল্লেখ্য, ইতোমধ্যে এসডিজি অর্জনের বড় চ্যালেঞ্জ হিসেবে জাতিসংঘ অন্যান্য অসংক্রামক রোগের তালিকায় ডায়াবেটিসকে স্বীকৃতি দিয়েছে এবং ২০৩০ সালের মধ্যে অসংক্রামক রোগের কারণে অকাল মৃত্যুর হার এক-তৃতীয়াংশ কমিয়ে আনার লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে।
আন্তর্জাতিক ডায়াবেটিস ফেডারেশনের তথ্যমতে, বাংলাদেশে এখন প্রায় ৬.৯ মিলিয়ন ডায়াবেটিস রোগীর বসবাস। ২০৪৫ সাল নাগাদ এটি ১৩.৭ মিলিয়ন হবে যা বিশ্বব্যাপী নবম অবস্থান। তাই সচেনতন হওয়ার এখনই সময়। বাংলাদেশে শুধুমাত্র ২০১৭ সালেই ৯৭ হাজার ৬৪১ জনের মৃত্যুর কারণ ডায়াবেটিস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ