Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৯ আশ্বিন ১৪২৫, ১৩ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

প্রথম নাটক লিখে টিভিতে প্রচারের সুযোগ পেলেন তিন বিজয়ী

বিনোদন রিপোর্ট: | প্রকাশের সময় : ১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০২ এএম

টেলিভিশন নাট্যকার সংঘের উদ্যোগে প্রথমবারের মতো চলতি বছরের মার্চ থেকে মে পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয়েছে তিন মাস মেয়াদী নাটক রচনা বিষয়ক প্রশিক্ষণ কোর্স ‘নাটক রচনা শৈলী’। প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে সনদপত্র বিতরণ করা হলো ৭ সেপ্টেম্বর শুক্রবার। এসময় প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে সেরা তিনটি নাটকের জন্য তিনজনের নাম ঘোষণা করা হয়। তাদের লেখা নাটক তিনটি চ্যানেল আইয়ের প্রযোজনায় তিনজন নির্মাতা নির্মাণ করবেন ও সেগুলো একই চ্যানেলে প্রচারিত হবে। এছাড়া প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশগ্রহণকারীরা রেডিও ভূমিতে নাটক লেখার সুযোগ পাবেন বলে এসময় জানানো হয়। বিজয়ী তিন তরুণ নাট্যকার হলেন- মাসুদ রানা সবুজ, সাহনিমা তাসনিম ও ফকির মিনারুল ইসলাম। তাদের নাটকগুলো নির্মাণ করবেন সুমন আনোয়ার, গোলাম সোহরাব দোদুল ও মাবরুর রশীদ বান্নাহ। এর আগে এদিন বিকেলে রাজধানীর নিকেতনে টেলিভিশন নাট্যকার সংঘের নিজস্ব কার্যালয়ে এক অনাড়ম্বরপূর্ণ অনুষ্ঠানে প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশগ্রহণকারীদের হাতে সনদপত্র তুলে দেন অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি প্রডিউসার এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের সভাপতি নাট্যজন মামুনুর রশীদ। নাট্যকার ও অভিনেত্রী এলিনা শাম্মীর উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অভিনয়শিল্পী সংঘের সাধারণ সম্পাদক আহসান হাবিব নাসিম ও রেডিও ভূমির স্টেশন ইনচার্জ শামস সুমন। টেলিভিশন নাট্যকার সংঘের সভাপতি নাট্যকার মাসুম রেজার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সাধারণ সম্পাদক ও কোর্স পরিচালক নাট্যকার-নির্মাতা এজাজ মুন্না এবং সহ-সভাপতি নাট্যকার বৃন্দাবন দাস। অতিথিরা টেলিভিশন নাট্যকার সংঘের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান ও আগামীতে এই প্রশিক্ষণ কার্যক্রম অব্যাহত রাখার প্রতি গুরুত্বারোপ করেন। উল্লেখ্য, প্রশিক্ষণ কোর্সে ২৩ জন অংশগ্রহণকারীকে ২৬ জন প্রশিক্ষক নাট্য রচনার বিভিন্ন কলাকৌশল সম্পর্কে প্রশিক্ষণ প্রদান করেন। প্রশিক্ষকদের মধ্যে ছিলেন বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক, নাট্য রচয়িতা, নির্মাতা, অভিনয়শিল্পী ও মিডিয়া ব্যক্তিত্বগণ। প্রশিক্ষণ কর্মশালার প্রথম আবর্তনের ধারাবাহিকতায় আগামী বছরের ৪ জানুয়ারি থেকে প্রশিক্ষণ কর্মশালার দ্বিতীয় আবর্তন শুরু হবে বলে জানিয়েছেন এজাজ মুন্না।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর