Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৫ আশ্বিন ১৪২৫, ৯ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

প্রতিশোধের ভাবনায় নেই তামিম

ফ্যাক্টর হাথুরুসিংহে : শ্রীলঙ্কার শক্তি, বাংলাদেশের দুর্বলতা

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০৪ এএম

বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ মানেই বাড়তি উত্তাপ। শ্রীলঙ্কা দলকে যতটা না প্রতিপক্ষ হিসাবে ভাবা হয়, তার থেকে ঢের বেশি ‘প্রতিশোধ’ এর ম্যাচ ধরা হয় দলটির কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহের জন্য। এই নামটা বেশ অস্বস্তিতে ভোগায় বাংলাদেশের ক্রিকেটপ্রেমীদের। কোচ হিসেবে তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে যেমন সাফল্য এনে দিয়েছেন, তেমনি বিতর্কও ছড়িয়েছেন। ২০১৭ সালে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের মধ্যে পদত্যাগ করে বেশ ক্ষোভের জন্ম দিয়েছিলেন এই লঙ্কান কোচ। জাতীয় দলের সিনিয়র খেলোয়াড়দের সঙ্গেও হাথুরুসিংহের বিরোধ ছিল। বাংলাদেশ ছেড়ে দায়িত্ব নিয়েছেন নিজ দেশ শ্রীলঙ্কার। আর এতেই দুই-দলের মুখোমুখিতে পাওয়া যায় বাড়তি রসদ। শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হয়ে এশিয়া কাপ অভিযান শুরু করবে বাংলাদেশ। ১৫ সেপ্টেম্বরের এই ম্যাচে সাবেক এই কোচের মুখোমুখি হবেন মাশরাফি বিন মুর্তজারা। দেশের অনেক ক্রিকেটপ্রেমীর কাছেই বাংলাদেশ দলের হাথুরুসিংহের মুখোমুখি হওয়া মানেই একধরনের ‘প্রতিশোধে’র উপলক্ষ।
ভিসা জটিলতা কাটিয়ে এশিয়া কাপ খেলতে তামিম ইকবাল এখন আরব আমিরাতে। টুর্নামেন্টের ছয় দলের একটি শ্রীলঙ্কা। হাথুরুসিংহে তামিমদের ছেড়ে শ্রীলঙ্কার দায়িত্ব নিয়েছেন। দেশের কোচের ভূমিকায় তিনি যতবারই বাংলাদেশের মুখোমুখি হয়েছেন, ততবারই প্রতিশোধের প্রসঙ্গটা মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে। নিদাহাস ট্রফি তার সর্বশেষ উদাহরণ। এশিয়া কাপেও একই প্রসঙ্গ মাথাচাড়া দিয়ে ওঠায় তা মাটিচাপা দিতে তামিম খেললেন সোজা ব্যাটে। বাংলাদেশ দলের এই ওপেনার জানিয়ে দিলেন, হাথুরুসিংহের (শ্রীলঙ্কা) বিপক্ষে প্রতিশোধ নয়, জয়ের জন্য খেলবে বাংলাদেশ। গতকাল দুবাইয়ে সংবাদ সম্মেলনে তামিম বলেন, ‘আমরা (দল) তার সঙ্গে অসাধারণ কিছু মুহূর্ত কাটিয়েছি। চার-পাঁচ বছর কেউ কোচ হিসেবে থাকলে সম্পর্কের উত্থান-পতন থাকবেই। কিন্তু কোচ হিসেবে তিনি আমাদের জন্য অসাধারণ কাজ করেছেন। কেউ তার কাছ থেকে এই কৃতিত্ব ছিনিয়ে নিতে পারবে না।’ এশিয়া কাপের শুরুতেই সাবেক কোচের মুখোমুখি হতে হতে তামিম-সাকিবদের। তামিম সাফ জানিয়ে দিলেন, প্রতিশোধ নেওয়ার কোনো ভাবনাই তাঁদের নেই। ‘হ্যাঁ, অবশ্যই আমরা আমাদের সাবেক কোচকে হারাতে চাই। তবে খুব ভালো মানসিকতা নিয়ে- প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য নয়।’
সেই মানসিকতাটা কেমন? তামিমের যুক্তি, শুধু হারানোর ভাবনা নিয়ে মাঠে নামলে চলবে না। তাতে কাজ হবে না। খেলতে হবে ভালো ও প্রতিদ্ব›িদ্বতামূলক ক্রিকেট। শ্রীলঙ্কা যেহেতু ভালো দল আর হাথুরুসিংহের মতো কোচ থাকায় ভালো ক্রিকেট খেলার বিকল্প নেই বলেই মনে করেন তামিম, ‘শুধু তাকে হারানোর কথা ভাবলে কাজ হবে না। খুব ভালো ক্রিকেট খেলার ব্যাপারে অবশ্যই মনঃসংযোগ করতে হবে।’
বাংলাদেশ শিবিরে যেমন হাথুরুসিংহকে নিয়ে চলছে গভীর বিশ্লেষণ, ঠিক একই ভাবে শ্রীলঙ্কা দলও এই কোচকে ঘিরেই আঁকছে বাংলাদেশ বধের ছক। ৩ বছর সাকিব-তামিমদের গুরুর ভুমিকায় থাকা হাথুরুর বেশ ভালোই জান দলের নাড়ি-নক্ষত্র। প্রতিটি খেলোয়াড়ের শক্তি ও দুর্বলতা নিয়েও আছে তার বিষদ জ্ঞান। আর এটিকেই শক্তি হিসেবে নিতে চাইছে শ্রীলঙ্কা। এই ম্যাচের আগে তেমনটাই জানালেন ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। বাংলাদেশকে হারাতে হাথুরুসিংহে যে শ্রীলঙ্কার শক্তি- সংবাদ সম্মেলনে সে কথাই বললেন লঙ্কান এই অলরাইন্ডার, ‘এটি (হাথুরু বাংলাদেশের সাবেক কোচ) আমাদের জন্য শক্তিশালী জায়গা।’ শ্রীলঙ্কার সাবেক এই ক্রিকেটার তিন বছর বাংলাদেশ দলের দায়িত্বে ছিলেন। তাঁর অধীনেই আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বেশ কিছু সাফল্য পেয়েছে বাংলাদেশ।
তামিম-সাকিবদের ভেতরকার খবর হাথুরুসিংহে তাই ভালোই জানে। কোচের কাছ থেকে এই খবরগুলো নিয়ে তা কাজে লাগাতে চায় শ্রীলঙ্কা। ধনঞ্জয়ার ভাষায়, ‘সে (হাথুরুসিংহে) তাদের (বাংলাদেশ) ব্যাটিং-বোলিংয়ের শক্তি ও দুর্বলতার জায়গাগুলো জানে। এখান থেকে ইতিবাচক বিষয়গুলো তুলে নেওয়ার ভালো সুযোগ রয়েছে আমাদের।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ