Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২২ অক্টোবর ২০২০, ৬ কার্তিক ১৪২৭, ০৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

অন্ধ্র প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী নাইডুর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

ইনকিলাব ডেস্ক : | প্রকাশের সময় : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০৪ এএম

আট বছরের পুরনো একটি মামলায় ভারতের অন্ধ্র প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রবাবু নাইডুর বিরুদ্ধে জামিন-অযোগ্য গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন মহারাষ্ট্রের আদালত। একই মামলায় আরও ১৪ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হয়েছে। তাদের সবাইকে গ্রেফতার করে ২১ সেপ্টেম্বর পরবর্তী শুনানির দিন আদালতে হাজির করার জন্য পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। সে অনুযায়ী, যেকোনও সময়ই গ্রেফতার হতে পারেন নাইডু। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদন থেকে এসব কথা জানা গেছে। ২০১০ সালে গোদাবরী নদীর বাবলি বাঁধ প্রকল্পের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে উসকানি দেওয়ার অভিযোগে চন্দ্রবাবু নাইডুর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছিল। মহারাষ্ট্রের নানদেদ জেলার ধর্মাবাদ আদালতে মামলাটি দায়ের করা হয়। আট বছর আগের পুরনো সে মামলায় ধর্মাবাদ আদালতের জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট বৃহস্পতিবার চন্দ্রবাবু নাইডু, অন্ধ্র প্রদেশের সেচমন্ত্রী উমামেশ্বর রাও, সমাজকল্যাণমন্ত্রী জি. কমলাকার ও আরও ১২ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।
২০১০ সালে বিরোধীদের আসনে শীর্ষস্থানে ছিল টিডিপি। স্থানীয় প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বাবলি বাঁধ প্রকল্প এলাকায় গিয়েছিলেন নাইডু এবং টিডিপি সদস্যরা। ২০১০ সালে গোদাবরী নদীর ওপরে বাবলি বাঁধ প্রকল্পের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নেমেছিলেন তারা। নাইডুদের অভিযোগ ছিল, এ প্রকল্পের মাধ্যমে গোদাবরী নদীর পানিপ্রবাহ তৎকালীন অবিভক্ত অন্ধ্র প্রদেশের তেলেঙ্গানা অঞ্চল থেকে সরিয়ে নেওয়া হচ্ছে। আন্দোলনের কারণে গ্রেফতার করা হয় তাদের। তবে গ্রেফতার হওয়া সত্তে¡ও সে সময় জামিনের আবেদন জানাননি নাইডু-সহ অন্যান্য টিডিপি সদস্য। পুনের সেন্ট্রাল জেলে একমাস বন্দি ছিলেন তারা। পরে ছাড়া পান। কেন আগের গ্রেফতারি পরোয়ানাগুলো কার্যকর করা হয়নি তা জানতে চেয়ে স¤প্রতি আদালতে একজনের করা এক আবেদনের প্রেক্ষিতে নতুন করে নাইডুর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হলো। সূত্র : ওয়েবসাইট।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতারি


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ