Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ০১ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ সফর ১৪৪১ হিজরী

যশোরে ভাতিজার লাঠিতে চাচা, গণপিটুনিতে গরুচোর নিহত

যশোরে ভাতিজার লাঠিতে চাচা, গণপিটুনিতে গরুচোর নিহত

যশোর ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ৩:০৫ পিএম

যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলায় পৃথক দুই মারধরের ঘটনায় দুই ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। একটি ঘটনায় ভাইয়ের ছেলেদের লাঠির আঘাতে চাচা ও অপর ঘটনায় গণপিটুনিতে এক গরুচোর নিহত হয়েছেন।

শুক্রবার উপজেলার নারকেলবাড়িয়া ইউনিয়নের খানপুর গ্রামে ছোট ভাইয়ের ছেলেদের লাঠির আঘাতে আবদুর রহমান (৪৮) নামের এক ব্যক্তি আহত হন। আজ শনিবার সকালে যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

আরেক ঘটনায় আজ ভোরের দিকে গরু চুরি করে পালানোর সময় উপজেলার সাদীপুর গ্রামের রামপুর বটতলায় গ্রামবাসীর পিটুনিতে এক ব্যক্তি নিহত হন। পুলিশ তার পরিচয় জানাতে পারেনি।

নিহত আবদুর রহমানের ছোট ভাই ইকরামুল ইসলাম বলেন, গতকাল বিকেলে জমিজমা নিয়ে ইকবাল হোসেনের সঙ্গে বাগ্‌বিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে ইকবাল হোসেনের দুই ছেলে আবদুর রহমানের মাথায় লাঠি দিয়ে আঘাত করেন।

উপজেলার সাদীপুর গ্রামের কয়েকজন জানান, গতকাল দিবাগত রাতে একদল চোর উপজেলার নিমতা গ্রাম থেকে দুটি গরু চুরি করে। এরপর তারা গরু দুটি পাশের সাদীপুর গ্রামের রামপুর বটতলায় নিয়ে আসে। আজ ভোরে চোরেরা গরু দুটি একটি পিকআপে ওঠাতে চেষ্টা করে। এ সময় গ্রামবাসী এক হয়ে চোরদের ঘিরে ফেলে। গ্রামবাসী একজন চোরকে ধরে পিটুনি দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান।

বাঘারপাড়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শেখ ওহিদুজ্জামান বলেন, জমিজমা নিয়ে দ্বন্দ্বের কারণে ভাইয়ের ছেলেদের লাঠির আঘাতে আবদুর রহমান মারা গেছেন। আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে। আরেকজন গরু চুরি করে পালানোর সময় গণপিটুনিতে মারা গেছেন। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তার পরিচয় পাওয়া যায়নি।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যশোরে

২১ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ