Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ০৬ কার্তিক ১৪২৬, ২২ সফর ১৪৪১ হিজরী

উদ্যোক্তাদের আশা জাগাচ্ছে এসএমই ঋণ

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:৩৫ এএম

গল্পটি সেই সত্তরের দশকের। শুরুটা ক্ষুদ্র উদ্যোগের মাধ্যমে। শরীয়তপুর থেকে ঢাকায় এসে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন। কিন্তু হৃদয়জুড়ে ছিল ব্যবসার স্বপ্ন। ১৯৯৩ সালে নিজের অর্থায়নে ব্যবসা শুরু করেন। শুরুটা বেশ ধীর গতিতে। ২০০৩ সালে প্রিমিয়ার ব্যাংক থেকে ৩০ লাখ টাকা এসএমই ঋণ নেন। এরপর থেকে পাল্টে যেতে থাকে চিত্র। তাজ প্লাস্টিক ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড নামের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান দ্রুত প্রসার পায়। নিজে সাবলম্বি হওয়ার পাশাপাশি অন্যদের কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করেছেন আবু তাহের।
কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাবেক গভর্নর আতিউর রহমান বলেন, ছোট ঋণে রীতিমতো অর্থনৈতিক বিপ্লব ঘটিয়েছেন দেশের ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারা। ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারা এখন সরাসরি পণ্য রফতানি করছেন বিদেশে। এক সময়ের ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা একদিন বড়মাপের উদ্যোক্তায় পরিণত হন।
এসএমই খাতের গুরুত্ব বিবেচনায় এবং দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জের সৈয়দা আক্তার জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পাস করে ২০০৩ সালে কাঁচপুরে সিএনজি কনভার্সন স্টেশন দেন। আর্থিক সংকট কাটাতে ২০১৬ সালে তিনিও প্রিমিয়ার ব্যাংক থেকে ছয় কোটি টাকা ঋণ নিয়ে ব্যবসার আকার বৃদ্ধি করেন। বর্তমানে তাঁর তিনটি কনভার্সন স্টেশন আছে। পাশাপাশি ব্যবসার সম্প্রাসরণে কাজ করছেন সৈয়দা আক্তার।
প্রিমিয়ার ব্যাংক সূত্রে জানা গেছে, তারা এসএমই গ্রাহকদের ব্যবসা স¤প্রসারণের লক্ষ্যে চলতি মূলধনের জন্য স্বল্প মেয়াদী চলমান ঋণ এবং স্থায়ী সম্পদ যেমন- পণ্য উৎপাদন ও প্রক্রিয়াজাত করার যন্ত্রপাতী, পণ্য পরিবহনের জন্য গাড়ী বা ফ্যাক্টরি শেড স্থাপনের জন্য মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদী কিস্তি ঋণ প্রদান সহ কয়েকটি নির্দিষ্ট খাতে বিশেষ ঋণ প্রদান করে থাকে।
প্রিমিয়ার ব্যাংকের আর্থিক প্রতিবেদন বিশ্লেষন করে দেখা যায় ব্যাংকটি গত কয়েক বছরে ধারাবাহিকভাবে এসএমই খাতে ঋণ বিতরণ বৃদ্ধি করেছে। ব্যাংকটির ২০১৩ সালে এসএমই খাতে ঋণ বিতরণের পরিমান ছিল ৭১১ কোটি টাকা যা ২০১৬ সালে বেড়ে দাঁড়ায় ১ লাখ ৮৯৫ কোটি টাকায় এবং ২০১৭ সালে মোট এসএমই ঋণ বিতরনের পরিমান ছিল ২ হাাজর ৩১৫ কোটি টাকা। ব্যাংক সূত্র জানায়, চলতি বছর অর্থাৎ ২০১৮ সালে ২ হাজার ৫০০ কোটি টাকা এসএমই খাতে ঋণ বিতরণের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে এবং যার মধ্যে গত জুলাই পর্যন্ত প্রায় ১ হাজার ৫৫৬ কোটি টাকা এসএমই খাতে ঋণ বিতরণ করা হয়েছে।
ব্যাংকের এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট ও এসএমই এবং কৃষি ঋণ বিভাগের প্রধান মোহাম্মদ ইমতিয়াজ উদ্দিন বলেন, আমাদের লক্ষ্য মোট ঋণের ৬০ শতাংশই হবে এসএমই ঋণ।
ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী এম রিয়াজুল করিম (এফসিএমএ) বলেন, প্রিমিয়ার ব্যাংকের বর্তমান লক্ষ্য এসএমই ও কৃষিতে। আমানত সংগ্রহ, ঋণ বিতরণ, অন্যান্য ব্যাংকিং সেবায় সব ক্ষেত্রেই ক্ষুদ্র ও মাঝারি গ্রাহকদের বেশি গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। #



 

Show all comments
  • Arup roy ৫ মে, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
    অনেক আশা নিয়ে আবেদনটা করছি
    Total Reply(0) Reply
  • Arup roy ৫ মে, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
    অনেক আশা নিয়ে আবেদনটা করছি
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: এসএমই


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ