Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৮ আগস্ট ২০১৯, ০৩ ভাদ্র ১৪২৬, ১৬ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

সেমিফাইনালে আবাহনী

প্রকাশের সময় : ২৪ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস রিপোর্টার : মৌসুম সূচক ফুটবল টুর্নামেন্ট স্বাধীনতা কাপের সেমিফাইনাল নিশ্চিত করলো ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। ‘বি’ গ্রুপের শেষ ম্যাচে তারা শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রকে হারিয়ে শেষ চারে জায়গা করে নেয়। গতকাল বিকালে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে আবাহনী ১-০ গোলে হারায় শেখ রাসেলকে। বিজয়ীদের পক্ষে জয়সূচক গোলটি করেন জুয়েল রানা। এই জয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ রানার্সআপ হিসেবে সেমিফাইনালে জায়গা পেলো আবাহনী। অবশ্য হারলেও পাঁচ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট পেয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিতে উঠেছে শেখ রাসেল। আগামী ৩ মে টুর্নামেন্টের প্রথম সেমিফাইনালে শেখ জামালের মুখোমুখি হবে ঢাকা আবাহনী। পরদিন চট্টগ্রাম আবাহনীর বিপক্ষে দ্বিতীয় সেমিফাইনাল খেলবে শেখ রাসেল।
সেমি আগেই নিশ্চিত হয়েছে শেখ রাসেলের। ফলে বাঁচা-মরার লড়াইটা ছিল ঢাকা আবাহনীরই। কেননা শেষ চারে উঠার লড়াইয়ে টিম বিজেএমসি ছিল তাদের পথে বাধা। ৭ পয়েন্ট নিয়ে ‘বি’ গ্রুপের দ্বিতীয় অবস্থানে বিজেএমসি। ৪ ম্যাচে ৬ পয়েন্ট নিয়ে রাসেলের বিপক্ষে কাল খেলতে নামে ঢাকা আবাহনী। হারলে নিশ্চিত বিদায়। তবে অন্তত এক পয়েন্ট হলেও সেমিফাইনাল নিশ্চিত হতো তাদের। কারণ, পয়েন্টে পিছিয়ে থাকলেও বিজেএমসির চেয়ে গোল পার্থক্যে এগিয়ে ছিলো ঢাকা আবাহনী।
কাল জয়ের লক্ষ্যেই মাঠে নামে ঢাকা আবাহনী। তিন পয়েন্ট আদায় করে নিতে চেষ্টার কমতিও ছিল না ওয়ালী-সানডে-জুয়েল রানাদের। ম্যাচের শুরু থেকে রাসেলকে চেপে ধরলেও গোলের দেখা পেতে তাদের একঘন্টারও বেশী সময় অপেক্ষায় থাকতে হয়। ম্যাচের প্রথমার্ধে বল দখলের লড়াইয়ে এগিয়ে ছিল আবাহনীই। একের পর এক আক্রমণ শানিয়ে রাসেলের রক্ষণভাগকে ব্যস্ত রাখে তারা। কিন্তু ভাগ্য সহায় ছিলো না বলে গোলের দেখা পায়না চারবারের লিগ চ্যাম্পিয়নরা। ৭০ মিনিটে বহুল কাঙ্খিত গোলের দেখা পায় আবাহনী। এসময় কামারা সার্বার ব্যাক হিল থেকে বল পেয়ে রাসেলের বক্সে ঢুকে জুয়েল রানার মাটি কামরানো শট জালে জড়ায় (১-০)। শেষ পর্যন্ত আর ম্যাচে ফেরা হয়নি শেখ রাসেলের। তাই হার নিয়েই মাঠ ছাড়ে তারা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন