Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২২ অক্টোবর ২০১৮, ৭ কার্তিক ১৪২৫, ১১ সফর ১৪৪০ হিজরী

ঐক্যের কোন বিকল্প নেই -মির্জা ফখরুল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ৯:৩৭ পিএম | আপডেট : ৯:৩৯ পিএম, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮

দেশের মানুষ পরিবর্তন চায় মন্তব্য করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, বেগম খালেদা জিয়া কারাগারে যাওয়ার আগে বলেছিলেন, দেশকে বাঁচাতে হলে, মানুষকে বাঁচাতে হলে, এদেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব ও গণতন্ত্রকে রক্ষা করতে হলে জাতীয় ঐক্য ছাড়া কোনো বিকল্প নাই বলে। তখনই তিনি বলেছিলেন সকল দলমত ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সব রাজনৈতিক দল, সংগঠন ও ব্যক্তি সবাই আজকে এক হয়ে এই যে স্বৈরাচার ভয়াবহ দুঃশাসন আমাদের বুকে ওপরে পাথর চাপা দিয়ে বসে আছে তাকে সরাতে হলে জাতীয় ঐক্য ও জনগণের ঐক্যের কোন বিকল্প নেই। শনিবার বিকেলে রাজধানীর মহানগর নাট্যমঞ্চে জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, আজকে যে দাবিগুলো এসেছে প্রায় সমস্ত দাবি একই। প্রধান দাবি হচ্ছে এই সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে, সংসদ ভেঙে দিতে হবে এবং নির্বাচনকালীন একটা নিরপেক্ষ সরকার গঠন করতে হবে। নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন করতে হবে, নির্বাচনের সময়ে সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে হবে এবং ইভিএম কোনো মতেই এই নির্বাচনে প্রয়োগ করা যাবে না। তিনি বলেন, এই সভার মধ্য দিয়ে আমরা ইতিমধ্যে একধাপ এগিয়ে গেছি ঐক্যের পথে। আমরা আশা করবো তাদের ( প্রফেসর ডা. একিএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও ড. কামাল হোসেন) নেতৃত্বে অতিদ্রুত আমরা সেই ঐক্যকে অর্জন করে আমরা সামনের দিকে এগিয়ে যেতে পারবো।

বিএনপির এই নেতা বলেন, জাতীয় নেতৃবৃন্দের কাছে াহবান জানাবো যে, আসুন আমরা ন্যূনতম কর্মসূচির ভিত্তিতে আমরা জনগণকে সঙ্গে নিয়ে এই দাবিগুলো আদায় করার জন্য আমরা একটা আন্দোলন শুরু করি। যে আন্দোলনের মধ্য দিয়ে আমরা এই সরকারকে বাধ্য করবো দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াসহ সকল রাজবন্দিকে মুক্তি দিতে এবং এদেশে একটি নিরপেক্ষ সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য নির্বাচন দিতে তাদেরকে বাধ্য করতে হবে। সকলকে জনগণের অধিকার ফিরে পাওয়ার আন্দোলনে শরিক হওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

গুলিস্তানে মহানগর নাট্যমঞ্চে ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার উদ্যোগে এই নাগরিক সমাবেশ হয়। এতে প্রফেসর ডা. বি চৌধুরীর নেতৃত্বাধীন যুক্তফ্রন্টের তিন দল বিকল্পধারা, জেএসডি, নাগরিক ঐক্য, বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের জাতীয় পার্টি (কাজী জাফর), বিজেপি, কল্যাণ পার্টি, খেলাফত মজলিশ, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম, জাগপা, এনপিপি, লেবার পার্টি, সাম্যবাদী দল, বাম দলীয় জোটের গণ সংহতি আন্দোলনসহ ৩০টি রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ অংশ নেন।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর