Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০, ২৯ আষাঢ় ১৪২৭, ২১ যিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী

তিন মাসের মধ্যে ঢাকার নদীর সীমানা নিশ্চিত হবে

জাতীয় নদী কমিশন চেয়ারম্যান

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০৩ এএম

জাতীয় নদী কমিশনের চেয়ারম্যান ড. মজিবুর রহমান হাওলাদার বলেছেন, ঢাকার চারিদিকে দখলকৃত নদীগুলোকে উদ্ধারে আগামী তিন মাসের মধ্যে নদীর সীমানা নিশ্চিত করে দখলদারদের বিরুদ্ধে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হবে।
আজ বিশ্ব নদী দিবস উপলক্ষে গতকাল শনিবার রাজধানীর বাহাদুরশাহ পার্ক থেকে বুড়িগঙ্গা নদীর পাড় পর্যন্ত নদীর জন্য পদযাত্রা শীর্ষক কর্মসূচি অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। নদী কমিশনের চেয়ারম্যান বলেন,দেশের সকল নদী আন্দোলন কার দের সমন্বয়ে দেশের নদী রক্ষা করা সম্ভব। আমরা আপনাদের সঙ্গে আছি এর বিরুদ্ধে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। আইনের অভাব নেই, বর্তমানে যে আইন আছে তাতেই নদী রক্ষা সম্ভব। আমরা আগামী ৫ বছরকে টার্গেট করে সম্মিলিত ভাবে নদী দখল -দুষণের বিরুদ্ধে আন্দোলন চালিয়ে যাব। পৃথিবীর যত সব সভ্যতা গড়ে উছেছে সব গুলোই নদী কেন্দ্রীক।
নদী থেকে নির্বিচারে বালু উত্তোলন বন্ধ করো এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর পালন করা হবে বিশ্ব নদী দিবস। দিবসটি উপলক্ষে গতকাল শনিবার রাজধানীর বাহাদুরশাহ পার্ক থেকে বুড়িগঙ্গা নদীর পাড় পযন্ত নদীর জন্য পদযাত্রা শীর্ষক কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে। পদযাত্রা কর্মসূচি আয়োজন করেছে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)-সহ দেশের নদী ইস্যুতে সক্রিয় সামাজিক সংগঠনগুলো।
এর আগে বাংলাদেশ শিশুকল্যাণ পরিষদের কনফারেন্স রুমে বিশ্ব নদী নদী দিবস ২০১৮-এর জাতীয় প্রতিপাদ্য নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কর্মসূচি ঘোষণা দেওয়া হয়। নদী দিবস উদযাপন পরিষদ বাংলাদেশের আহবায়ক বাপার সাধারণ সম্পাদক ডা. মো. আব্দুল মতিনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, জাতীয় নদী কমিশনের চেয়ারম্যান ড, মজিবুর রহমান হাওলাদার, নদী কমিশনের সদস মো: আলাউদ্দিন, লেখক বুদ্ধিজীবি কবি ও সাংবাদিক সৈয়দ আবুল মকসুদ, ব্রতীর নির্বাহী পরিচালক শারমীন মুরশিদ, এবং সদস্য সচিব শেখ রোকন, বুড়িগঙ্গা বাঁচাও আন্দোলনের সদস্য সচিব ও বাপার যুগ্ম সম্পাদক মিহির বিশ্বাস, স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আহম্মেদ কামরুজ্জামান, সুন্দর জীবন-এর নির্বাহী পরিচালক ও বাপার যুগ্ম সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম মোল্লা, নোঙ্গর এর সুমস শামস প্রমুখ।
আব্দুল মতিন বলেন, পরিবেশবাদী সংগঠনগুলো দীর্ঘদিন ধরে নদীকে বাঁচানোর আন্দোলন করে আসছে।এরই ধারাবাহিকতায় বিশ্ব নদী দিবসে একটি র‌্যালির আয়োজন করা হয়েছে। কারণ, আমাদের নদীগুলো দ্রুত মারা যাচ্ছে। আমরা নদীগুলোকে বাঁচাতে চাই। এটি সুবিদিত যে, নদীমাতৃক বাংলাদেশের নদীগুলো আজ নানামুখী অত্যাচারে চরম বির্পযয়ের শিকার।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: জাতীয় নদী কমিশন
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ