Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৮ সফর ১৪৪১ হিজরী

নির্বাচনের আগে রাজবন্দীদের মুক্তি দিন : বি চৌধুরী

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০৩ এএম

দেশের মানুষ নিয়ন্ত্রিত নির্বাচন রুখে দেবে বলে মন্তব্য করেছেন বিকল্পধারা বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট ও যুক্তফ্রন্ট চেয়ারম্যান অধ্যাপক এ.কিউ.এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী। তিনি বলেছেন, নির্বাচনের আগে সব রাজবন্দীকে মুক্তি দিতে হবে। ২০১৪ সালে দেশের মানুষ ভোটাধিকার বঞ্চিত হয়েছে। সংসদের অধিকাংশ আসনে বিনাভোটে সরকারি দলের সদস্যরা “নির্বাচিত” হয়েছে। এবার সেই অপচেষ্টা করলে রুখে দেয়া হবে। গতকাল দলের কুড়িল বিশ্বরোডের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব ও পেশাজীবীসহ বিভিন্ন দলের নেতা-কর্মীদের বিকল্পধারায় যোগদান উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এ আহ্বান জানান।
দেশবাসী ভোটের অধিকার চায় উল্লেখ করে বি. চৌধুরী বলেন, ভোটে অনির্বাচিত সংসদ সদস্যরা মন্ত্রী হয়েছেন, সংবিধান সংশোধন করেছেন এবং অনেকে ব্যাপক দুর্নীতির অংশিদার হয়েছেন। খুলনা, বরিশাল, রাজশাহী, গাজীপুরের সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ভোটের আগে বিরোধী দলের এজেন্ট, কর্মী ও নেতাদের গ্রেফতার করে সরকারি দল বিজয় ছিনিয়ে নিয়েছে। এই ধরনের নির্বাচন আবার যদি জাতীয় সংসদে হয় তা হলে গণতন্ত্র চিরনির্বাসিত হবে। দেশবাসী আর ছিনিয়ে নেওয়া নির্বাচন হতে দিবে না। নির্বাচন চায় না। তাই যুক্তফ্রন্ট দেশবাসীর কাছে আহ্বান রাখছে এই ধরনের নিয়ন্ত্রিত নির্বাচন রুখে দিতে হবে। আমরা গণতান্ত্রিক নির্বাচন চাই। সংসদ, ও মন্ত্রিসভা ভেঙ্গে দিতে হবে। নির্বাচনে সবার জন্য লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড নিশ্চিত করতে। নির্বাচনের আগে সব রাজবন্দীকে মুক্তি দিতে হবে। নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে। প্রয়োজনে সংবিধান সংশোধন করতে হবে।
এর আগে বাংলাদেশ গলফ ফেডারেশনের লেডী ক্যাপ্টেন মাহমুদা চৌধুরী, বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশনের নারী কমিটির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আম্বিয়া খাতুন শীলা, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী অধ্যাপ ড. মোঃ নূর উদ্দিন, চিকিৎিসক ডা. মোঃ শাহাদাত হোসেন, ইঞ্জিনিয়ার ইকবাল হোসেনসহ বিভিন্নদলের শতাধিক নেতাকর্মী বিকল্পধারায় যোগদান করেন। বিকল্পধারার মহাসচিব মেজর (অব.) আবদুল মান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন মাহী বি. চৌধুরী, আবদুর রউফ মান্নান, ব্যারিস্টার ওমর ফারুক, ইঞ্জিনিয়ার মুহম্মদ ইউসুফ, মাহবুব আলী, সাহিদুর রহমান, ওয়াসিমুল ইসলাম, মাহফুজুর রহমান, অধ্যাপক আনোয়ারা বেগম প্রমূখ। ##



 

Show all comments
  • সাজ্জাদ ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১:১২ এএম says : 0
    এখন সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • Pobon ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১:৪৪ এএম says : 0
    Mukti dile mukti pabar asa kora jae.tobe pil kanar hottakari jalim betito.oder atta potisud niee sarbe.koma nei.এখানে আপনি আপনার মন্তব্য করতে পারেন
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বি চৌধুরী

৯ নভেম্বর, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ