Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২০ মে ২০১৯, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৪ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

ঢাবিতে ভর্তির সুযোগ পেয়েও উচ্চশিক্ষা নিয়ে শঙ্কিত আঁখি

লালমনিরহাট জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৮ অক্টোবর, ২০১৮, ১২:০৪ এএম

চলতি বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পেয়েও উচ্চশিক্ষা নিয়ে অনিশ্চিত দিন কাটাচ্ছেন অদম্য মেধাবী আখি মনি ও তার পরিবার। এক বেলা খেয়ে না খেয়ে অন্যের বাসায় টিউশনি করে নিজের লেখাপড়ার খরচ চালালেও ভর্তির টাকা নিয়ে বিপাকে রয়েছেন আখি মনি। তার মনে হচ্ছে এখান থেকেই তার লেখা-পড়ার ইতি টানতে হচ্ছে। তারপরেও তার চেষ্টার ত্রু টি নেই। সে তার কাঙ্খিত লক্ষে পৌছুতে শেষ পর্যন্ত লড়াই করে যাবেন।

আখি মনি লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার ভাদাই ইউনিয়নের আদিতমারী গ্রামের মৃত জয়নাল আবেদীনের মেয়ে।
আখি মনি জানান, এবছর ঢাবিতে ‘খ’ ইউনিটে ২৫২৫তম স্থান পেয়েছে। সে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করে ভবিষ্যতে একজন বিসিএস ক্যাডার হতে চায়। কিন্তু উচ্চ শিক্ষা গ্রহণের শুরুতেই অর্থ তার বড় বাঁধা হয়ে দাড়িয়েছে। তার ভর্তি ও আনুসাঙ্গিক খরচ বাবদ প্রায় ৪০ হাজার টাকার প্রয়োজন।

মেয়ের ভর্তির অর্থ যোগানের জন্য মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরতে শুরু করেছেন আখি মনির মা। সেই সাথে সমাজের বিত্তশালীদের সহায়তা কামনা করছেন আখি মনি। অর্থ সহায়তা পেলেই তার স্বপ্ন পূরনের পথে হাটতে শুরু করবেন বলে এমনটাই প্রত্যাশা আখি মনির।
গত শুক্রবার বিকেলে আদিতমারী উপজেলা পরিষদের পাশে অবস্থিত বাড়িতে গিয়ে জানা গেছে, গত ১০ বছর পূর্বে তার বাবা জয়নাল আবেদীন না ফেরার দেশে চলে গেছেন। ৪ বোন ও ১ ভাইয়ের সংসার চালাতে আখি মনির মা মনোয়ারা বেগম অন্যের বাসায় ঝিয়ের কাজ করে অতি কষ্টে দিনযাপন করছেন। বাড়িভিটা বলতে মাত্র ৬ শতক জমির উপর টিনের চালা দিয়ে ঘর তৈরি করে সেখানেই বসবাস করে আসছেন। বড় ২ বোনের বিয়ে হয়েছে আর ছোট ভাই মামুনুর রহমান ১০ম শ্রেনীর ছাত্র। লেখাপড়ার ফাকে ছোট ভাই সংসার চালাতে অন্যত্র দিনমজুরের কাজও করছেন। নিজের লেখাপড়া চালাতে আখি মনি নিজেও টিউশনি করছেন। এত কিছুর পরেও অদম্য মেধাবী আখিকে দারিদ্রতা দমাতে পারেনি।
আখি মনি ২০১৬ সালে কিসামত চরিতাবাড়ি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসিতে মানবিক বিভাগে জিপিএ-৪.৬১ ও ২০১৮ সালে আদিতমারী ডিগ্রী কলেজ থেকে এইচএসসিতে জিপিএ-৫ পেয়েছে।

আখির মা মনোয়ারা বেগম কান্নাবিজড়িত কন্ঠে বলেন, অন্যের বাড়িতে ঝিয়ের কাজ করে আমার মেয়েকে অনেক কষ্টে লেখাপড়ার খরচ চালাচ্ছি। কিন্তু বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য অনেক টাকার প্রয়োজন।টাকার অভাবে যাতে আমার মেয়ের লেখাপড়া বন্ধ না হয় এজন্য তিনি সমাজের সকলের নিকট সহযোগিতা কামনা করছেন। আখি মনিকে সহযোগীতা করতে সাথে যোগাযোগের মোবাইল নম্বর-০১৭৬৪-৭৬৫২৫৪



 

Show all comments
  • sats1971 ৮ অক্টোবর, ২০১৮, ৯:৫০ এএম says : 0
    Those who are unable to admit under graduate course due to economic problems he/she must know procedure how to free admission and full free studentship during course. 1. Apply to the head of the department of college/university. 2.Apply to the Local govt means Union Parishad Chairman .It is the main responsible to the UP Chairman to coordinate with the govt channel for free studentship
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঢাবি


আরও
আরও পড়ুন