Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮, ০৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

রিয়াদ পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী

১১ ব্যবসায়ী সফরসঙ্গী

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ অক্টোবর, ২০১৮, ১২:০২ এএম | আপডেট : ১২:১০ এএম, ১৭ অক্টোবর, ২০১৮

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সউদী বাদশাহ এবং দু’টি পবিত্র মসজিদের খাদেম সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সউদের আমন্ত্রণে দ্বিপক্ষীয় সফরের অংশ হিসেবে চারদিনের সফরে গতকাল সন্ধ্যায় রিয়াদ পৌঁছেছেন। প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর সফর সঙ্গীদের নিয়ে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ভিভিআইপি ফ্লাইট গতকাল সন্ধ্যা ৬টা ৫০ মিনিটে বাদশাহ খালেদ আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে অবতরণ করে। সউদী আরবে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত গোলাম মসিহ, রিয়াদের গভর্নর এবং দূতাবাস কর্মকর্তারা বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান। এই সফরে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে রয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী, পররাষ্ট্র সচিব মো. শহীদুল হক, আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর বেসরকারি খাত বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, তার স্ত্রী সৈয়দা রুবাবা রহমান এবং প্রধানমন্ত্রীর পরিবারের কয়েকজন সদস্য।
প্রধানমন্ত্রী আজ তাঁর স্যুটে কাউন্সিল অব সউদী চেম্বার (সিএসসি) এবং রিয়াদ চেম্বার অব কমার্সের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে বৈঠক করবেন। আজ বিকেলে শেখ হাসিনা সউদী রাজপ্রাসাদে বাদশাহ সালমানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন এবং পরে মধ্যাহ্ন ভোজে যোগ দিবেন।
প্রধানমন্ত্রী সউদী যুবরাজ ও উপ-প্রধানমন্ত্রী এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী মোহাম্মদ বিন সালমান বিন আবদুল আজিজের সঙ্গে বৈঠক করবেন। পরে তিনি সউদী রাজধানী রিয়াদের কূটনৈতিক এলাকায় বাংলাদেশ চ্যান্সেরি ভবন উদ্বোধন করবেন।
প্রধানমন্ত্রী আজ সন্ধ্যায় বিমানযোগে পবিত্র নগরী মদিনার উদ্দেশে রিয়াদ ত্যাগ করবেন এবং মসজিদে নববীতে মহানবী হযরত মোহম্মদ (স.) এর রওজা জিয়ারত করবেন।
আগামীকাল বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী জেদ্দা পৌঁছাবেন এবং সেখানে বাংলাদেশ কনস্যুলেট জেনারেলের চ্যান্সেরি ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন। শেখ হাসিনা এশার নামাজের পর মক্কায় পবিত্র ওমরাহ পালন করবেন। প্রধানমন্ত্রী শুক্রবার সকালে দেশের উদ্দেশে রওয়ানা হবেন এবং বাংলাদেশ সময় দুপুর পৌনে ১২টায় ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছাবেন।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী সোমবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, প্রধানমন্ত্রীর সউদী আরব সফরকালে ২টি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হবে। এগুলো হলো, প্রতিরক্ষা সহযোগিতা সংক্রান্ত সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) এবং আইসিটি খাতে সহযোগিতা সংক্রান্ত সমঝোতা স্মারক (এমওইউ)।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী ও সউদী বাদশাহর মধ্যে বৈঠকে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যূত রোহিঙ্গা নাগরিকদের নিজ দেশে নিরাপদ প্রত্যাবাসনের বিষয়টি আলোচনা করা হবে।
প্রতিরক্ষা সহযোগিতা ও রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী বিষয়গুলো ছাড়াও শ্রমিক কল্যাণ, দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য বৃদ্ধি, উন্নয়ন সহযোগিতা এবং মুসলিম উম্মাহর বৃহত্তর ঐক্য ও সমৃদ্ধি প্রভৃতি বিষয়েও আলোচনা হবে।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী আশা প্রকাশ করেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এ সফরের মাধ্যমে বাংলাদেশ ও সউদী আরবের মধ্যে আগামী দিনগুলোতে সম্পর্ক আরো দৃঢ় হবে।
এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গতকাল বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে বাংলাদেশ বিমানের একটি ভিভিআইপি ফ্লাইট যোগে সফরসঙ্গীদের নিয়ে রিয়াদের উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করেন। ঢাকায় বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে বিদায় জানিয়েছিলেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমদ, সড়ক পরিবেহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, বেসরকারি বিমান চলাচল ও পর্যটনমন্ত্রী এ কে এম শাহজাহান কামালসহ ঊর্ধ্বতন সরকারি কর্মকর্তারা।
সউদী সফরে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে গেলেন ১১ ব্যবসায়ী
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সফরসঙ্গী হিসেবে ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার্স অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি’র (এফবিসিসিআই) ১১ সদস্যবিশিষ্ট একটি ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল সউদী আরব গেছেন। গতকাল মঙ্গলবার এফবিসিসিআই সিনিয়র সহ-সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম-এর নেতৃত্বে প্রতিনিধিদল সউদীর উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করেন।
সউদী আরবে অবস্থানকালে বাংলাদেশি ব্যবসায়ীরা কাউন্সিল অব সউদী চেম্বারের নেতাদের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করবেন। যেখানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উপস্থিত থাকবেন। একইসঙ্গে এফবিসিসিআই নেতারা রিয়াদ চেম্বার অব কমার্সের নেতাদের সঙ্গেও আলোচনায় করবেন। আলোচনায় দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য সম্প্রসারণ ও সউদী আরবের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় বিভিন্ন খাতে বিনিয়োগের আহ্বান জানাবেন।
প্রতিনিধিদলে রয়েছেন- সংগঠনটির পরিচালক মাহবুবুল আলম, সালাউদ্দিন আলমগীর, ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি’র সভাপতি আবুল কাশেম খান, মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি নিহাদ কবির, বাংলাদেশ গার্মেন্ট ম্যানফ্যাকচারার্স অ্যান্ড এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিজিএমইএ) সভাপতি মো. সিদ্দিকুর রহমান, বাংলাদেশ উইমেন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি’র সভাপতি সেলিমা আহমাদ, বিজিএমইএ’র সহ-সভাপতি (ফাইন্যান্স) মোহাম্মদ নাসির এবং আব্দুল মোনেম লিমিটেডের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক এ এস এম মাইনুদ্দিন মোনেম। সফর শেষে এফবিসিসিআই প্রতিনিধিদল ১৯ অক্টোবর ঢাকায় ফিরবেন।



 

Show all comments
  • এরশাদ ১৭ অক্টোবর, ২০১৮, ২:৫১ এএম says : 0
    দোয়া করি তার এই সফর যেন সুন্দর এবং স্বাচ্ছন্দময় হয়
    Total Reply(0) Reply
  • ওবাইদুল ইসলাম ১৭ অক্টোবর, ২০১৮, ২:৫২ এএম says : 0
    আল্লাহ যেন আমাকে একবার হলেও ওই পুন্যভুমিতে যাওয়ার তৌফিক দান করেন।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ