Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৩ পৌষ ১৪২৫, ৯ রবিউস সানী ১৪৪০ হিজরী

ময়মনসিংহ-২ বগুড়া-৩ ফেনীর ৩টি ও মাগুরার ২টি আসনে ১৩৫ জন মনোনয়ন প্রত্যাশী

অভ্যন্তরীণ ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ১২:০৩ এএম

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে আ.লীগ, বিএনপি, জাপাসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের আগ্রহী প্রার্থীরা দলীয় মনোনয়নপত্র ক্রয় করছেন। ময়মনসিংহ-২ আসনে ১৭ জন ও বগুড়া-৩ আসনে ২৭ জন, ফেনীর ৩টি আসনে ৫৫ জন, মাগুরার ২টি আসনে ৩৬ জন দলীয় মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এ বিষয়ে আমাদের সংবাদদাতাদের পাঠানো প্রতিবেদন-
ফুলপুর (ময়মনসিংহ) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে ময়মনসিংহ-২ (ফুলপুর-তারাকান্দা) আসনে আ.লীগের ১৭ জন দলীয় মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

এদের মধ্যে বর্তমান এমপি মো. শরীফ আহমেদ, সাবেক এমপি মো. হায়াতোর রহমান খান বেলাল, বঙ্গবন্ধু আইনজীবি পরিষদের সদস্য ও জেলা আ.লীগের সদস্য ব্যারিস্টার আবুল কালাম আজাদ লিটন, পিএসসির সাবেক সদস্য ডা. সোহরাব আলী, তারাকান্দা উপজেলা চেয়ারম্যান এড. ফজলুল হক, কেন্দ্রীয় শ্রমিক লীগের সাবেক নেতা আশরাফ আলী খান, ময়মনসিংহ শহর আ.লীগের সহ-সভাপতি অধ্যাপক গোলাম ফেরদৌস জিলু, উপজেলা আ.লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহ্ কুতুব চৌধুরী, ফুলপুর উপজেলা পরিষদের সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আতাউল করিম রাসেল, তারাকান্দার গালাগাঁও ইউপি চেয়ারম্যান জিয়াউল হক জিয়া, ময়মনসিংহ ছাত্রলীগের সাবেক নেতা সাজ্জাদ জাহান চৌধুরী শাহিন, ময়মনসিংহ শ্রমিক লীগ সভাপতি আফতাব উদ্দিন, ময়মনসিংহ মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আ. রব, তারাকান্দা যুবলীগ নেতা মো. শামছুল আলম রাজু, ফুলপুর উপজেলা আ.লীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক এমএ হাকিম সরকার, শিক্ষাবিদ ও সাংবাদিক অধ্যক্ষ জামাল উদ্দিন ও তারাকান্দা আ.লীগ নেতা রুবেল চৌধুরী। স্বাধীনতার ৪৭ বছরে এবারই প্রথম এ আসন থেকে এত অধিক আ.লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী।

আদমদীঘি ও দুপচাঁচিয়া থেকে ২৭ জন
আদমদীঘি (বগুড়া) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, বগুড়ার আদমদীঘি ও দুপচাঁচিয়া উপজেলা নিয়ে গঠিত বগুড়া-৩ আসন। বিএনপি, আ.লীগ, জাপা মনোয়ন প্রত্যাশীরা দৌড় ঝাপ শুরু করেছেন। এ আসনে ১৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন। তারা হলেন, আদমদীঘি উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম খান রাজু, জার্মান আ.লীগের উপদেষ্টা আসাদুর রহমান খন্দকার লাইজু, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা অজয় কুমার সরকার, মরহুম আনছার আলী মৃধার ছেলে মারুফ রাব্বী মৃধা, বগুড়া জেলা আ.লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট তবিবর রহমান তবি, বগুড়া জজকোর্টের পিপি অ্যাড. আব্দুল মতিন, দুপচাঁচিয়া উপজেলা আ.লীগের সভাপতি মিজানুর রহমান খাঁন সেলিম, প্রবাসী ড. জামিল তালুকদার, সান্তাহার পৌর আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম জাহিদুর বারী, শ্রমিক নেতা রাসেদুল ইসলাম রাজা, ক্যাপ্টেন মুনছুর আলী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ খাদিজা খাতুন শেফালী, আদমদীঘি আ.লীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক আলহাজ সোলাইমান আলী, মুক্তিযোদ্ধ মোঃ হাফিজার রহমান।

এ আসনে বিএনপির ১০ মনোনয়ন প্রত্যাশী মাঠে। এরা হলেন, কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ২ বার নির্বাচিত সাবেক এমপি আলহাজ আব্দুল মোমিন তালুকদার খোকা, তার স্ত্রী মাসু বেগম, তার ছোট ভাই উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ আব্দুল মহিত তালুকদার, জেলা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি মো. ফজলুল বারী তালুকদার বেলাল, জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম বগুড়া ইউনিটের সভাপতি অ্যাড. শেখ মকলেছুর রহমান, জেলা বিএনপির সাবেক সহ-সভাপতি ও সান্তাহার পৌর বিএনপির সভাপতি ফিরোজ মো. কামরুল হাসান, জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক হামিদুল হক চৌধুরী হিরু, বগুড়া জেলা বিএনপির সিনিয়র সদস্য অ্যাড. আতাউর রহমান খান মুক্তা, জেলা শ্রমিকদলের প্রধান উপদেষ্টা ও দুপচাঁচিয়া উপজেলা বিএনপির কার্যনির্বাহী সদস্য আলহাজ সুলতান মাহমুদ চৌধুরী (আমির চৌধুরী), শ্রমিক নেতা লায়ন ফরিদ আহমেদ।

এদিকে জাতীয় পাটির বর্তমান সংসদ সদস্য জাপার কেন্দ্রীয় নেতা অ্যাড. নুরুল ইসলাম তালুকদার আবারো প্রার্থী হবেন বলে জানা যায়। এ ছাড়া দুপচাচিয়া উপজেলা জাপা নেতা অ্যাড. সামছুর রহমান, দুপচাঁচিয়া উপজেলা জাপার সাবেক সভাপতি তৌহিদুর রহমান তৌহিদও মনোনয়ন প্রত্যাশী।

ফেনীর ৩টি আসনে ৫৫ জনের মনোনয়নপত্র সংগ্রহ
ফেনী জেলা সংবাদদাতা জানান, এবারও ফেনী জেলার তিনটি আসনেই দলের মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন ফেনী-২ আসনের সাবেক এমপি ও জেলা আ.লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক জয়নাল হাজারী।
ফেনী-১ আসন থেকে আলোচিত প্রার্থী হিসেবে দলের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন প্রধানমন্ত্রীর সাবেক প্রটোকল অফিসার আলাউদ্দীন আহমেদ চৌধুরী নাসিম। এছাড়া কেন্দ্রীয় আ.লীগের উপ-কমিটির আইন বিষয়ক সদস্য আবদুল্লাহ আল হারুন, আবদুল কাদের ভূঁঞা, আবদুল মতিন, ও সাইফুল্লাহ বাহার এ আসনে দলের ফরম কিনেছেন।

ফেনী-২ সদর আসনে আলাউদ্দীন আহমেদ চৌধুরী নাসিম, বর্তমান এমপি নিজাম উদ্দীন হাজারী, সাংবাদিক নেতা ইকবাল সোবহান চৌধুরী, এডভোকেট কাজী ফয়সাল, ফারুক আলমগীর চৌধুরী, আ.লীগের কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির চট্টগ্রাম বিভাগীয় সহ-সম্পাদক সাইফুদ্দিন নাসির ও ফেনী জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি আজহারুল হক আরজু দলের মনোনয়নপত্র কিনেছেন।

ফেনী-৩ থেকে দলীয় মনোনয়নপত্র কিনেছেন ১৩ জন। এরা হলেন-বর্তমান এমপি হাজী রহিম উল্যাহ, কেন্দ্রীয় যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য আবুল বাশার, কেন্দ্রীয় আ.লীগের উপ-কমিটির সহ-সম্পাদক জহির উদ্দিন মাহমুদ লিপটন, জেলা আ.লীগের সভাপতি ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুর রহমান বি.কম, ফেনী জেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আকরাম হোসেন হুমায়ুন, লে. জেনারেল অব. মাসুদ উদ্দিন চৌধুরী, সোনাগাজী উপজেলা চেয়ারম্যান জেড এম কামরুল আনাম, সোনাগাজী আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ও মেয়র এড. রফিকুল ইসলাম খোকন, দাগনভূঁঞা চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের সভাপতি দিদারুল কবির রতন, কেন্দ্রীয় মহিলা আ.লীগের সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক ও অভিনেত্রী রোকেয়া প্রাচী, জাপান আ.লীগের সভাপতি শামসুল আলম ভুট্টু, অভিনেত্রী শমী কায়সার, এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের চেয়ারম্যান নিজাম চৌধুরী, রাজউকের সাবেক চেয়ারম্যান প্রকৌশলী নুরুল হুদা ও এড. শাহজাহান সাজু।

ফেনীর তিনটি আসনে বিএনপি থেকে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করছেন ফেনী-১ (ফুলগাজী, পরশুরাম, ছাগলনাইয়া) আসনে বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার পক্ষে মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন। এছাড়া ওয়াহিদুল্লাহ মজুমদার, হেফাজত উদ্দিনসহ মোট ৭জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন।

ফেনী-২ (সদর) আসনে সাবেক এমপি অধ্যাপক জয়নাল আবেদীন (ভিপি), সংরক্ষিত আসনের সাবেক মহিলা এমপি রেহানা আক্তার রানু, জেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাড. আবু তাহের, সাধারণ সম্পাদক জিয়া উদ্দিন আহমেদ মিস্টার, যুগ্ম সম্পাদক মনোয়ার হোসেন দুলাল, জেলা যুবদলের সাবেক সভাপতি ও জেলা বিএনপির প্রচার সম্পাদক গাজী হাবিবুল্লাহ মানিক, জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক মনোয়ার হোসেন দুলাল ও সদর সাধারণ সম্পাদক ফজলুর রহমান বকুল। ফেনী-৩ (দাগনভ‚ঞা ও সোনাগাজী) আসনে ব্যবসায়ী নেতা আবদুল আউয়াল মিন্টু, মহিলা দলনেত্রী অ্যাড. সাহানা আক্তার শানু, বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা আবদুল লতিফ জনি, সেচ্ছাসেবকদলের সাধারণ সম্পাদক সাদরাজ জামান, দাগনভ‚ঞা বিএনপির সভাপতি আকবর হোসেন, দাগনভ‚ঞা সদর ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি রফিকুল ইসলাম রফিক, সোনাগাজী উপজেলা বিএনপির সভাপতি যুক্তরাজ্য প্রবাসী সোলায়মান ভ‚ঁইয়া, বিগ্রেডিয়ার (অব.) নাসির উদ্দিন, সোনাগাজী উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জামাল উদ্দিন সেন্টু, শ্রমিকদল নেতা সাইফুল ইসলাম দুলাল, এড. তাজুল ইসলাম মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন।
মাগুরায় তিন ডজন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা

মাগুরা থেকে স্টাফ রিপোর্টার জানান, মাগুরার দুটি আসনে আ.লীগের অন্তত তিন ডজন প্রার্র্থী কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে দলীয় মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করে সোমবার শেষদিন পর্যন্ত জমা দিয়েছেন বলে জানা যায়। মাগুরার ২টি আসনের বর্তমান এমপি মেজর জেনারেল (অব.) এটিএম আবদুল ওয়াহহাব ও এড. বিরেন শিকদার দলীয় মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ ও দাখিল করেছেন। এছাড়া মাগুরা-১ আসনে আ.লীগের মনোনয়ন পেতে প্রধানমন্ত্রীর সহকারী একান্ত সচিব এড. সাইফুজ্জামান শিখর।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত এ আসনের জন্যে অন্য যারা মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন তারা হলেন, জেলা আ.লীগের সভাপতি আলহাজ তানজেল হোসেন খান, সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পঙ্কজ কুন্ডু, সাবেক জেলা পরিষদ প্রশাসক এড. সৈয়দ শরিফুল ইসলাম, জেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি আবু নাসির বাবলু, আশির দশকে মাগুরা জেলা ছাত্রলীগের তুখোড় নেতা রাশিয়া আ.লীগের সভাপতি এসএম শফিকুল ইসলাম, গত নির্বাচনে আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্র্থী শ্রীপুর উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি কুতুবুল্লাহ হোসেন মিয়া কুটি, মাগুরা জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা সংহতি পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম-মহাসচিব কাজী রফিকুল ইসলাম, সুপ্রিম কোর্টের সহকারী এটর্নি জেনারেল বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. সিরাজুল ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক ও জেলা আ.লীগের বর্তমান প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক এড. শাখারুল ইসলাম শাকিল, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমানে জেলা আ.লীগের ত্রাণ ও পুনর্বাসন বিষয়ক সম্পাদক রানা আমির ওসমান, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রোস্তম আলী, সদর উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক রাঘবদাইড় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান বাবুল ফকির, জেলা আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নাকোল ইউপি চেয়ারম্যান হুমায়নুর রশিদ মুহিত, আ.লীগের কেন্দ্রিয় উপ-কমিটির সহ-সম্পাদক সাবেক ছাত্রনেতা পঙ্কজ সাহা ও কেন্দ্রিয় মহিলা আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ইসমত আরা হ্যাপি।

অন্যদিকে মাগুরা-২ আসনে মাগুরা জেলা আ.লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এড. শফিকুজ্জামান বাচ্চু, মহম্মদপুর উপজেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. আবদুল মান্নান, শালিখা উপজেলা আ.লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সভাপতি পিপি এড. কামাল হোসেন, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ডক্টর অহিদুর রহমান টিপু, গোলাম খোরশেদ শুভ্র, অবসর প্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তা আলতাফ হোসেন, ছাত্রলীগ নেতা নবীনুজ্জামান সুজন অন্যতম।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর