Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৮, ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ৬ রবিউস সানী ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

আমরা নির্বাচন কমিশনের কর্মকান্ডে হতাশ সাংবাদিকদের মির্জা ফখরুল ইসলাম

নির্বাচন পেছানোর দাবি নিয়ে আজ ইসিতে যাচ্ছে ঐক্যফ্রন্ট

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ১২:০২ এএম

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ নির্বাচন করার জন্য যে ব্যবস্থা গ্রহণ করা প্রয়োজন, তা করতে ব্যর্থ হয়েছে নির্বাচন কমিশন। রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে আলোচনা করে তফসিল ঘোষণার দাবি করা হয়েছিল তা তারা করেননি। নির্বাচনের তারিখ ১মাস পিছিয়ে নতুন তফসিল ঘোষনার দাবিও ইসি মানেনি। সরকারের ইচ্ছা অনুযায়ী নির্বাচন কমিশন কাজ করছে এতে আমরা হতাশ। তিনি বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তারিখ পেছানোর দাবি নিয়ে আমরা আগামীকাল (বুধবার) নির্বাচন কমিশনে যাবো। এতে নেতৃত্ব দেবেন ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেন। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর মতিঝিলে ঐক্যফ্রন্টের স্টিয়ারিং কমিটির বৈঠক শেষে ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র মির্জা ফখরুল সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।
উল্লেখ্য নির্বাচন কমিশনে সাথে বৈঠকের জন্য দুপুর ১২টায় সময় চেয়ে চিঠি দিয়েছিল জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। তাদের চিঠি পেয়ে নির্বাচন কমিশন বৈঠকের সময় নির্ধারণ করেছে বেলা ৩টায়। বিএনপি মহাসচিব বলেন, নির্বাচন কমিশন সুষ্ঠু নির্বাচন পরিচালনা করতে আগ্রহী নয়। তফসিল এক মাস পেছানোর দাবি অত্যন্ত জরুরি। ভোট গ্রহণের যে তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে, সে সময় বড়দিনের ছুটি থাকবে। বিদেশি পর্যবেক্ষকদের এখানে আসার সুযোগ থাকবে না। এরপর রয়েছে নববর্ষ। এগুলোসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলতে আগামীকাল (বুধবার) ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে একটি দল নির্বাচন কমিশনে যাবে।
মির্জা ফখরুল বলেন, বৈঠকে আরও যে সব সিদ্ধান্ত হয়েছে তার মধ্যে রয়েছে, ১৬ নভেম্বর প্রিন্ট মিডিয়ার সম্পাদকদের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন ঐক্যফ্রন্টের নেতারা। ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সঙ্গে বসার সময় পরে জানিয়ে দেওয়া হবে।
ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে মির্জা ফখরুলসহ যারা ইসিতে যাবেন তারা হলেন, জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুর রব, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশারফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী, গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মহসীন মন্টু, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, ডাকসুর সাবেক ভিপি ও ঐক্যফ্রন্টের নেতা সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ, গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি এম. সুব্রত চৌধুরী, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, গণফোরামের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোকাব্বির খান, এস এম আকরাম ও জেএসডির সাধারণ সম্পাদক আবুদল মালেক রতন প্রমুখ। #



 

Show all comments
  • গনি শেখ ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ২:০৭ এএম says : 0
    অথর্ব, লজ্জাহীন, নির্বাচন কমিশন এছাড়া আর কি উপহার দেবে?
    Total Reply(0) Reply
  • Ameen Munshi ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ২:০৮ এএম says : 0
    হতাশা ছাড়া কোনো আশার বাণী আদৌ মিলবে কিনা সন্দেহ আছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Moha Sha Alam ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ২:০৯ এএম says : 0
    They only serve Ruling Awamilig
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammad Shah Alam ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ২:১৯ এএম says : 0
    গভীর হতাশা প্রকাশ করছি।
    Total Reply(0) Reply
  • মাসুম ১৪ নভেম্বর, ২০১৮, ৫:২৯ এএম says : 0
    মির্জা ফখরুল,,,,,,আপনি একজন মহান নেতা, আল্লাহ আপনাকে সফল করবেন,,,আমরা আপনার সাথে আছি।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ