Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ২ রবিউস সানী ১৪৪০ হিজরী

প্রস্তুতি নিয়ে লড়াই করতে যাচ্ছি -সাংবাদিকদের ওবায়দুল কাদের

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২১ নভেম্বর, ২০১৮, ১২:০৮ এএম

জাতীয় পার্টি সম্পর্কে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সব রকমের প্রস্তুতি নিয়ে নির্বাচনে লড়াই করতে যাচ্ছি। কোনো ফাঁক রাখছি না। এরশাদ যদি অন্য কোথাও চলে যান, আমরা কি বাধা দিতে পারবো? পারবো না। তবে আমি মনে করি মহাজোটের যে প্রস্তুতি-সমীকরণ, তাতে কোনো বিদ্রোহ ঘটবে না।
গতকাল দুপুরে সচিবালয়ে ভারতের রাষ্ট্রদূত হর্ষবর্ধন শ্রিংলার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি একথা বলেন। তিনি বলেন, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে শরিকদের ৬৫-৭০টি আসন দেওয়া হবে। জাতীয় পার্টির কাছে ইলেক্টেবল, উইনেবল, গ্রহণযোগ্য প্রার্থী চেয়েছি। ইলেকশনটা সহজ নয়। সে কারণে আমাদের শক্তিশালী, জনপ্রিয়, গ্রহণযোগ্য প্রার্থী দিতে হবে। সেটা আওয়ামী লীগের হোক আর শরিক জোটের হোক। যারা উইনেবল নয়, তাদের বাদ দেওয়ার চেষ্টা করছি।
তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা দুটি আসনে নির্বাচন করবেন। একটি টুঙ্গিপাড়া, আরেকটি পীরগঞ্জ আসনে। দলের বাকি সবাই একটি আসনে নির্বাচন করবেন। আমি এবার নোয়াখালী-৫ আসনে নির্বাচন করবো। মাশরাফি নড়াইল-২ আসনেই নির্বাচন করবে। ওখানকার বর্তমান সংসদ সদস্য ওয়ার্কার্স পার্টির ছিল। তিনি এ আসনটি জোটের জন্য সেক্রিফাইস করেছেন।
এদিকে নানা কারণে বিতর্কিত হওয়ায় কক্সবাজারের আবদুর রহমান বদি ও টাঙ্গাইলের আমানুর রহমান রানাকে মনোনয়ন দেওয়া হচ্ছে না। তবে বদির পরিবর্তে তার স্ত্রী শাহিনা আক্তার চৌধুরী এবং রানার পরিবর্তে তার পিতা আওয়ামী লীগ নেতা আতাউর রহমান খানকে মনোনয়ন দেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।
কাদের বলেন, অমুক খারাপ, এটা তো আমাকে প্রমাণ করতে হবে। ঘরে থাকলে কী অপরাধী? আপনার বাবা, মা, ভাই-বোন শেয়ারার। পরিবারের সব খারাপ লোক। যার কথা বলা হচ্ছে, তিনি খারাপ লোক, এটা প্রমাণিত? বদি সম্পর্কে যে কন্ট্রোভার্সি আছে, এটা কি আপনারা প্রমাণ করতে পেরেছেন। তারপরও যেহেতু কন্ট্রোভার্সি আছে, আমরা কন্ট্রোভার্সিকে অ্যাভয়েড করতে চাই। কন্ট্রোভার্সির বাইরে যেতে চাই। সে জন্য আমরা সেখানে বিকল্প বেছে নিয়েছি।
আদাবরে সংঘর্ষের কারণে কেন্দ্রীয় নেতারা মনোনয়ন পাচ্ছেন না- এ বিষয়ে কাদের বলেন, বিষয়টি তদন্তাধীন। ওই কারণে কেউ মনোনয়ন পাচ্ছেন না, এটা সত্য নয়। সেখানে অন্য বিষয় আছে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর