Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার , ২১ জানুয়ারী ২০২০, ০৭ মাঘ ১৪২৬, ২৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

শিখের পাগড়ি অপবিত্র করার অভিযোগে পাকিস্তানে আটক ৫

প্রকাশের সময় : ৫ মে, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : এক শিখ তার পাগড়ি অপবিত্র করার অভিযোগ আনায় পাকিস্তানে পুলিশ পাঁচজনকে আটক করেছে। এদের সবাই মুসলমান। গত মঙ্গলবার তাদেরকে ব্লাসফেমি আইনে আদালতে তোলা হয়। গত রোববার ফয়সালাবাদ থেকে মুলতান যাওয়ার পথে বাসের দেরী করা নিয়ে বাকবিত-ার সময়ে এ পাঁচজন মহিন্দর পাল সিংয়ের (২৯) পাগড়ি খুলে ফেলে। পরে সে পুলিশের কাছে গিয়ে ব্লাসফেমি আইনে মামলা করে। চিচাওয়াতনি’র তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তা আবদুল সাত্তার জানান, এ মামলায় পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গত মঙ্গলবার আদালতে তাদের শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। সিং বলে, বাস চলতে চলতে থেমে যাওয়ার পর আমি ও অন্যান্য যাত্রী অভিযোগ করি। কিন্তু বাসের স্টাফরা দুর্ব্যবহার করে, আমাকে ধাক্কা দেয় এবং মাথার পাগড়ি ছুড়ে ফেলে। অথচ এ পাগড়ি আমাদের কাছে খুবই পবিত্র। সে আরো বলে, তারা আমার ধর্মীয় প্রতীককে অপবিত্র করেছে। তাই আমি ব্লাসফেমি আইনে মামলা করেছি। উল্লেখ্য, মানবাধিকার কর্মীরা মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ পাকিস্তানের ব্লাসফেমি আইনের তীব্র সমালোচনা করে থাকে। তাদের অভিযোগ, এটি প্রায়ই সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের লোকদের বিরুদ্ধে ব্যক্তিগত প্রতিহিংসাবশত ব্যবহৃত হয়। ওয়েবসাইট।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন