Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৭ ফাল্গুন ১৪২৫, ১৩ জামাদিউস সানি ১৪৪০ হিজরী।
শিরোনাম

মালয়েশিয়ার বিভিন্ন কারাগারে বন্দী প্রবাসী কর্মীরা দেশে ফেরার অপেক্ষায়

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৮ ডিসেম্বর, ২০১৮, ১২:০২ এএম

মালয়েশিয়ার বিভিন্ন কারাগার ও ডিটেনশন ক্যাম্পে আটককৃত শত শত বাংলাদেশী কর্মী দেশে ফেরার জন্য প্রহর গুনছে। বৈধ কাগজপত্র না থাকায় কারাগারগুলোতে অবৈধ বাংলাদেশী কর্মীরা দীর্ঘ দিন যাবত অবস্থান করছে। নির্ধারিত সাজা ভোগ শেষ হলেই আটককৃত প্রবাসী কর্মীদের দেশে ফেরত পাঠানো হবে। মালয়েশিয়া থেকে নির্ভরযোগ্য সূত্র এতথ্য জানিয়েছে। দেশটির সিমুনিয়া ক্যাম্প থেকে চলতি মাসেই ৮০ জন প্রবাসী কর্মী দেশে ফিরতে পারবে। সস্প্রতি মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরস্থ বাংলাদেশ হাই কমিশনের কর্মকর্তারা সিমুনিয়া ক্যাম্পে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সাথে দ্বি-পাক্ষিক বৈঠক শেষে এ বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।

মালয়েশিয়ার বিভিন্ন ক্যাম্পে ছুটে যাচ্ছে হাই কমিশনের টিম । ক্যাম্পে বাংলাদেশি কর্মীদের শনাক্ত করে দ্রæত দেশে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে বলে হাই কমিশনার মোঃ শহিদুল ইসলাম জানিয়েছেন। জেলে বন্দিদের ব্যাপারে জানতে চাইলে শহিদুল ইসলাম বলেন, প্রতিদিন কোনো না কোনো অভিযানে আটক হচ্ছেন প্রবাসীরা। তবে সংখ্যা বলাটা কঠিন। তিনি বলেন, শ্রম সচিবের নেতৃত্বে গঠিত আলাদা কমিটি কারাগারে বন্দি বাংলাদেশীদের নিয়ে কাজ করছে।

মালয়েশিয়ায় অবৈধ অভিবাসীদের বৈধ হওয়ার জন্য পরিচালিত রি-হিয়ারিং প্রোগ্রাম শেষ হয়েছিল গত ৩০ জুন। এরপর আরও একমাস সময় বাড়িয়ে ৩০ আগস্টের মধ্যে স্বেচ্ছায় দেশে যাওয়ার সময় বেঁধে দিয়েছিল দেশটির সরকার। ইতোমধ্যে সে সময়ও শেষ হয়ে গেছে। এরপরই অবৈধদের ধরতে সারাদেশে বড় ধরনের অভিযান শুরু করেছে মালয়েশিয়ার অভিবাসন বিভাগ। এ কারণে অবৈধ অভিবাসীদের অনেকেই গা ঢাকা দেয়ায় শ্রমিক সঙ্কটে পড়েছে প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান ও ব্যবসায়ীরা।

 

প্রবাস জীবন বিভাগে সংবাদ পাঠানোর ঠিকানা
probashjibon.inqilab@gmail.com



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: প্রবাসী

৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
২৮ নভেম্বর, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ