Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ২৫ আগস্ট ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৬, ২৩ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

বঙ্গবন্ধু হাই-টেক সিটিতে সাত কোম্পানি পেলো ২০ দশমিক ৪১ একর জমি

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮, ৭:৪৪ পিএম | আপডেট : ৭:৫৮ পিএম, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে বঙ্গবন্ধু হাই-টেক সিটির ইন্ডাস্ট্রিয়াল জোনে আরো সাত কোম্পানিকে প্লট বরাদ্দ দিয়েছে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষ। ইতোমধ্যে ওই কোম্পানিগুলোর সঙ্গে চুক্তি করে তাদের প্লট বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে। সোমবার (১০ ডিসেম্বর) বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের সভাকক্ষে আনুষ্ঠানিকভাবে এই চুক্তি সম্পন্ন হলো। এর মাধ্যমে আগামী ৪০ বছরের জন্য বঙ্গবন্ধু হাই-টেক সিটিতে ডাটা সফট, আমরা হোল্ডিংস, ডেভ নেট লিমিটেড, স্পেকট্রাম ইঞ্জিনিয়ারিং কনসোর্টিয়াম লিমিটেড, মিডিয়া সফট ডাটা সিস্টেম লিমিটেড, ইউ ওয়াই সিস্টেম লিমিটেড নামীয় প্রতিষ্ঠানসমূহ বিনিয়োগের সুযোগ পেলো। এর আগে এসবি টেল এন্টারপ্রাইজ গত ২৮ নভেম্বর, বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের সাথে চুক্তিবদ্ধ হয়।
বঙ্গবন্ধু হাই-টেক সিটিতে ২ দশমিক ৭৫ একর জায়গা বরাদ্দ পেয়েছে ডাটা সফট। কোম্পানিটি এখানে আইটি/আইটিইএস, ডিভাইস মেনুফ্যাকচারিং ও এসেম্বল করবে। এ লক্ষ্যে কোম্পানিটি ৮০ দশমিক ৭৫ কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে। একই সঙ্গে ২৫০ জনের কর্মসংস্থানের সৃষ্টি করবে।
আমরা হোল্ডিংস এর অনুকূলে ৩ দশমিক ৫০ একর জমি বরাদ্দ প্রদান করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধু হাই- টেক সিটিতে তারা মোবাইল ফ্যাক্টরি স্থাপন করবে। তারা আগামী তিন বছরে ২৩১ কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে। এখানে প্রায় ৫০০ জনের কর্মসংস্থান হবে।
ডেভ নেট লিমিটেডকে দেওয়া হচ্ছে ২ একর জমি। এখানে তারা আইটি সার্ভিস, আইওটি প্রোডাক্ট, ডকুমেন্ট স্ক্যানিং, রেকর্ড ম্যানেজমেন্ট নিয়ে কাজ করবে। কোম্পানিটি সেখানে ২০ দশমিক ৭৫ কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে, এতে করে প্রায় ৪শ’ জনের কর্মসংস্থানের সুযোগ হবে।
স্পেকট্রাম ইঞ্জিনিয়ারিং কনসোর্টিয়াম লিমিটেড পাচ্ছে ২ একর জমি। বঙ্গবন্ধু হাই-টেক সিটিতে তারা ডাটা সেন্টার ও আইটি প্রোডাক্ট উৎপাদন করবে। কোম্পানিটি সেখানে বিনিয়োগ করছে ৭৫ কোটি টাকা।
মিডিয়া সফট ডাটা সিস্টেম লিমিটেডকে দেওয়া হচ্ছে ১ একর জমি। হার্ডওয়্যার পণ্য উৎপাদনের লক্ষ্যে এই কোম্পানিটি বিনিয়োগ করবে ১১ দশমিক ৩৮ কোটি টাকা, এখানে কর্মসংস্থানের সুযোগ হবে প্রায় ৬শ’ জনের। ইউ ওয়াই সিস্টেম লিমিটেড এর অনুকূলে যাচ্ছে ১ একর জমি। কোম্পানিটি সেখানে প্রিন্টিড সার্কিট বোর্ড উৎপাদন এবং স্মার্ট হোম ও ফ্লিট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম নিয়ে কাজ করবে। প্রায় ৫শ’ জনের কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে কোম্পানিটি এখানে বিনিয়োগ করছে ১৯ কোটি টাকা। এছাড়া এসবি টেল এন্টারপ্রাইজ গত ২৮ নভেম্বর বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের সাথে চুক্তিবদ্ধ হয়। তারা সেখানে মোবাইল ফোন সংযোজন ও উৎপাদন করবে। এই কোম্পানিটি বাংলাদেশে সিম্ফোনি মোবাইল ফোন সংযোজন ও বাজারজাতকরণ করে। এদেরকে বরাদ্দ দেওয়া হচ্ছে ৮ দশমিক ১৬ একর জমি। কোম্পানিটি সেখানে আগামী তিন বছরের মধ্যে প্রায় ১২০ কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে এবং প্রায় ৩ হাজার লোকের কর্মসংস্থান হবে।
বঙ্গবন্ধু হাই-টেক সিটি দেশের প্রথম হাই-টেক পার্ক। এখানে কাজ শুরু করার জন্য প্রথম পর্যায়ে প্রাপ্ত ২৩২ একর জমিকে ৫ টি ব্লকে ভাগ করে ডেভেলপার নিয়োগ করা হয়। পরবর্তীতে পার্ক সংলগ্ন ৯৭ দশমিক ৩৩ একর জমি বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের অনুকূলে বরাদ্দ পাওয়া যায়। বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের নির্বাহী কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক সরাসরি বিনিয়োগকারীদের অনুকূলে প্রথম পর্যায়ে গত ২৫ সেপ্টেম্বর ৯টি ও দ্বিতীয় পর্যায়ে গতকাল ৭টি কোম্পানিকে বরাদ্দ প্রদান করা হলো। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (সচিব) হোসনে আরা বেগম এনডিসি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বঙ্গবন্ধু


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ