Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার ১৮ জুন ২০১৯, ৪ আষাঢ় ১৪২৬, ১৪ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে যানজট ভোগান্তি

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৮, ৯:১৫ পিএম

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের নারায়ণগঞ্জ অংশে শুক্রবার দিনভর ১২ কিলোমিটার রাস্তা জুড়ে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। এতে আটকে পড়ে দূরপাল্লার শত শত যাত্রীবাহী বাস, কাভার্ডভ্যান, পণ্যবাহী ট্রাকসহ নানা ধরনের যানবাহন। চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের জেলাগুলোর যাত্রীরা এ যানজটে আটকে পড়ে চরম দুর্ভোগে পড়েন।
ট্রাফিক পুলিশ বলছে, একটানা তিন দিনের ছুটি থাকায় যাত্রীর সংখ্যা বেড়ে যায় এবং দ্বিতীয় কাঁচপুর ও মেঘনা সেতু নির্মাণের কারণে এক লেন দিয়ে যানবাহন চলাচল করায় মেঘনাঘাট থেকে যানজট শুরু হয়। এ যানজট শুক্রবার ভোর ৫টা থেকে শুরু হয়। সন্ধ্যা পর্যন্ত সোনারগাঁয়ের অংশে যানজট অব্যাহত ছিল বলে সোনারগাঁ থানার ওসি মোরশেদ আলম জানান।
ট্রাফিক পুলিশ ও ভুক্তভোগী যাত্রীরা জানান, শুক্রবার ভোর থেকে মেঘনা সেতু এলাকায় শুরু হয় যানজট। তা ধীরে ধীরে মোগড়াপাড়া চৌরাস্তা, মদনপুর, কাঁচপুর, শিমরাইল মোড়, মৌচাক, সানারপাড় ও সাইনবোর্ড পর্যন্ত ছড়িয়ে পড়ে। কখনও কখনও ১০ মিনিটের রাস্তা পার হতে হয় ৩-৪ ঘণ্টায়। নারায়ণগঞ্জে অংশে যানজটের খবর পেয়ে হাইওয়ে পুলিশ ও ট্রাফিক বিভাগের অতিরিক্ত পুলিশ এসে যানজট নিরসনে কাজ করে। যানজটের কারণে দূরপাল্লার নির্ধারিত যাত্রীবাহী বাস সময়মতো আসতে না পারায় শিমরাইল মোড়ের টিকেট কাউন্টারগুলোতে অপেক্ষমান যাত্রীদের ভিড় বেড়ে যায়।
চট্টগ্রামগামী একটি বাসের চালক জাকির হোসেন বলেন, যানজটের কারণে ঢাকা থেকে মেঘনাঘাট পৌঁছতে ৬ ঘণ্টা সময় লেগেছে। চট্টগ্রামে যেতে কত সময় লাগবে আল্লাহ জানেন। চট্টগ্রামের যাত্রী ইকবাল জানান, সকাল ৭টায় চট্টগ্রাম যাওয়ার জন্য শিমরাইল মোড়ে এসেছি। কিন্তু ৭টার গাড়ি যানজটের কারণে আসতে পারেনি।



 

Show all comments
  • রিপন ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৮, ১০:৫২ পিএম says : 0
    বেহাল সড়ক... মন্ত্রী আজ ব্যস্ত ছিলেন বধ্যভূমিতে ব্যর্থ বধযজ্ঞে। নইলে সড়কে অত বড় নরক আজ ঘটতে পারতো না। আফটার অল তিনি যে মহামান্য সড়কমন্ত্রী, নরকমন্ত্রি তো আর নন? আর, সড়কে নরক ঘটলেই বা তাঁর কী? তাঁর টনকখানি আবার উধাও, নড়ে টড়ে না। বলেন, সড়কের দায়িত্ব সড়কমন্ত্রীর নয়।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যানজট


আরও
আরও পড়ুন