Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২৭ মে ২০১৯, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২১ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

জঙ্গিরা সরে গেলে অভিযানের প্রয়োজন নেই : এরদোগান

২০১৯ সালে লক্ষ্যমাত্রার ভিত্তিতে মুদ্রাস্ফীতি কমিয়ে আনা হবে

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩০ ডিসেম্বর, ২০১৮, ১২:০৩ এএম

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েপ এরদোগান বলেছেন, কুর্দি জঙ্গি গোষ্ঠীগুলো যদি সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলীয় মানবিজ শহর ও ফোরাত নদীর পূর্ব উপকূল থেকে সরে যায় তাহলে সিরিয়ায় তার দেশ কোনও অভিযান পরিচালনা করবে না। শুক্রবার আঙ্কারায় এক বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, সিরিয়ার সার্বভৌমত্বের প্রতি তুরস্কের পূর্ণ সম্মান রয়েছে এবং মানবিজ শহর সিরিয়ার অবিচ্ছেদ্য অংশ। সিরিয়ার সেনাবাহিনী সে দেশের উত্তরাঞ্চলীয় আলেপ্পো প্রদেশের মানবিজ শহর পুনরুদ্ধার করার পর তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোগান এ বক্তব্য দিলেন। শুক্রবারই সিরিয়ার সেনাবাহিনী মানবিজ শহরে সিরিয়ার জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেছে। তবে কয়েকদিন আগে তুর্কি প্রেসিডেন্ট সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে সামরিক অভিযানের হুমকি দিয়েছিলেন। তিনি বলেছিলেন, কুর্দি বিচ্ছিন্নতাবাদী গোষ্ঠী পিকেকে’র সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ওয়াইপিজি জঙ্গি গোষ্ঠীর বিরুদ্ধে অভিযান চালাতে শিগগিরই সিরিয়ায় প্রবেশ করবে তুরস্কের সেনাবাহিনী। তিনি মানবিজ শহর ও ফোরাত নদীর পূর্ব উপকূলে ওই অভিযান চালানোর আভাস দিয়েছিলেন। অপর এক খবরে বলা হয়, তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেপ এরদোগান বলেছেন, ২০১৯ সালে লক্ষ্যমাত্রার ভিত্তিতে মুদ্রাস্ফীতি কমিয়ে আনবে তুরস্ক সরকার। আমাদের নেয়া প্রতিটি পদক্ষেপের লক্ষ্য হচ্ছে প্রবৃদ্ধি, উন্নয়ন ও শক্তিমত্তা বজায় রাখা। এতে করে ক্রয়ক্ষমতা সমতার (পিপিপি) ভিত্তিতে আগামী বছর আমরাই হবো বিশ্বের দ্বাদশ বৃহৎ অর্থনীতির দেশ। শুক্রবার ক্ষমতাসীন জাস্টিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টির (একে) এক বৈঠকে তিনি এসব কথা বলেন। এরদোগান বলেন, পশ্চিমা শক্তি আমাদের অর্থনীতির ধ্বংসের নানা কৌশল অবলম্বন করলেও তা ব্যর্থ হয়েছে। তাদের অপকৌশল মোকাবেলায় আমরা বিজয়ী হয়েছি। এদিকে, সিরিয়ার সেনাপ্রধানের দপ্তর বলেছে, দেশের প্রতি ইঞ্চি ভূমির ওপর প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ সরকারের নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করা হবে। ওই দপ্তর আরও বলেছে, মানবিজ শহরের অধিবাসীদের আহ্বানে সাড়া দিয়ে সেখানে প্রবেশ করেছে সিরিয়ার সেনাবাহিনী। দুই সপ্তাহ আগে তুরস্ক সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে কুর্দি ওয়াইপিজি গোষ্ঠীর বিরুদ্ধে অভিযান চালানোর হুমকি দেয়ার পর ওই গোষ্ঠী এক বিবৃতিতে সিরিয়ার কুর্দি জনগোষ্ঠীকে দামেস্ক সরকারের অনুগত বলে দাবি করে। আনাদোলু,পার্সটুডে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: তুরস্ক


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ