Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০১৯, ৭ বৈশাখ ১৪২৬, ১৩ শাবান ১৪৪০ হিজরী।

শরিয়তের দৃষ্টিতে কোনো কোনো ক্ষেত্রে মিথ্যা বলার অনুমতি রয়েছে?

ইসমাইল হোসেন
ইমেইল থেকে।

প্রকাশের সময় : ৩ জানুয়ারি, ২০১৯, ১১:৫৮ পিএম

উত্তর : মিথ্যা বলা কোনো ক্ষেত্রেই অনুমোদিত নয়। শরিয়তে সত্যকে সর্বত্রই উৎসাহিত করা হয়েছে। বলা হয়েছে, সত্য মুক্তি দেয়, মিথ্যা ধ্বংস আনে। সামাজিক আচরণবিধি সম্পর্কিত মাসয়ালা পাওয়া যায় যে, বিবদমান দু’পক্ষের মধ্যে সমঝোতা ও শান্তি প্রতিষ্ঠা এবং নির্দোষ ব্যক্তির প্রাণ রক্ষার লক্ষ্যে কখনো অপ্রিয় সত্যটি গোপন করা বা অসত্যকে তুলে ধরার অনুমতি রয়েছে। কোনো বৈধ বিষয়কে প্রতিষ্ঠিত করতে বা অধিকার সুরক্ষার জন্য দ্ব্যর্থবোধক বা অস্পষ্ট কথা বলার অনুমতি শরিয়তে রয়েছে। তবে যে কোনো পরিস্থিতিতে সত্য বলাই শরিয়তের মৌল দর্শনের দাবি।

সূত্র : জামেউল ফাতাওয়া, ইসলামী ফিক্হ ও ফাতাওয়া বিশ্বকোষ।
উত্তর দিয়েছেন : আল্লামা মুফতি উবায়দুর রহমান খান নদভী

ইসলামিক প্রশ্নোত্তর বিভাগে প্রশ্ন পাঠানোর ঠিকানা
inqilabqna@gmail.com



 

Show all comments
  • সাইকুল ইসলাম ৫ জানুয়ারি, ২০১৯, ১০:১২ পিএম says : 2
    আমি নিজের কানে শুনেছি নিজের ওয়াইফের সাথে মিথ্যা কথা বলা জায়েজ আছে।মৌলানা ড:নজরুল ইসলাম বাইশ হাজারী এক মাহফিলে বলেছেন নিজের স্ত্রীর সাথে যতখুশি মিথ্যা বলা যায়।দাদার সাথে মিথ্যা বলা যায়।যুদ্ধ ক্ষেত্রে মিথ্যা বলা যায়।
    Total Reply(1) Reply
    • Abul Kashem ৮ জানুয়ারি, ২০১৯, ৩:৪৬ এএম says : 0
      What about Hasina Gong? Hasina always lies, Is that Jaez? I think it is Jaez for HIM(!) What is your opinion.

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: প্রশ্ন

১৯ এপ্রিল, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ