Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

আইন পেশা থেকে ৯ মন্ত্রী

মালেক মল্লিক | প্রকাশের সময় : ৮ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:০২ এএম

চলতি সংসদে আইন পেশা থেকে এমপি নির্বাচিত হন ২৭ আইনজীবী। তাদের মধ্যে মন্ত্রী হয়েছেন ৯ জন। এর মধ্যে ৬ জন পূর্ণ মন্ত্রী, ২ জন প্রতিমন্ত্রী ও ১ উপমন্ত্রীর দায়িত্ব পান। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এসব বিষয় জানা গেছে। আইনজীবীরা জানায়, ৬ মন্ত্রীর মধ্যে ৩ জন সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সাবেক সম্পাদক ছিলেন। একজন দশম সংসদেও আইনমন্ত্রীর দায়িত্বে পালন করেন। এর আগে খুবই স্বল্প সংখ্যাক আইনজীবী মন্ত্রিপরিষদে ছিলেন।
এদিকে আগের তুলনায় এবার অধিক সংখ্যাক আইনজীবী মন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হওয়ায় স্বাগত জানিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবীরা। তারা বলেন, ব্রিটিশ পার্লামেন্ট থেকে সকল দেশের পার্লামেন্টারি ডেমোক্রেসিতে আইনজীবীদের ব্যাপক ভূমিকা রয়েছে। আমাদের দেশেও সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে আইনজীবীদের প্রাধান্য থাকা উচিত। এতে রাষ্ট্রে সুশাসন প্রতিষ্ঠায় সহায়ক ভূমিকা পালন করেত পারবেন আইনজীবীরা।
আইনজীবী থেকে মন্ত্রিসভায় স্থান পাওয়া ৯ জন হলেন: আ ক ম মোজাম্মেল হক (মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী), আনিসুল হক (আইন মন্ত্রী), ডা. দীপু মনি (শিক্ষা মন্ত্রী), শ ম রেজাউল করিম (গণপূর্ত মন্ত্রী), নুরুল ইসলাম সুজন (রেলমন্ত্রী) ও নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন (শিল্পমন্ত্রী)। এছাড়া প্রতিমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন জুনায়েদ আহমেদ পলক (তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রী) এবং মাহবুব আলী (বিমান মন্ত্রী)। এছাড়া উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল (শিক্ষা মন্ত্রী)।
আইনজীবী সমিতির সাবেক ৩ সম্পাদক মন্ত্রী:
সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সাবেক তিন সম্পাদক মন্ত্রিত্ব পেয়েছেন। তারা হলেন অ্যাডভোকেট মো. মাহবুব আলী, মো. নুরুল ইসলাম সুজন ও শ ম রেজাউল করিম। মো. মাহবুব আলী ২০০৩-২০০৪ সালের মেয়াদে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সম্পাদক ছিলেন। তার মেয়াদে সভাপতি ছিলেন সিনিয়র আইনজীবী ব্যারিস্টার রোকন উদ্দিন মাহমুদ। হবিগঞ্জ-৪ আসন থেকে তিনি টানা তিনবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন
মো. নুরুল ইসলাম সুজন ২০০৮-২০০৯ মেয়াদে সম্পাদক নির্বাচিত হন। তার মেয়াদে সভাপতি ছিলেন সিনিয়র আইনজীবী ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ। তিনিও আইনমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন। পঞ্চগড়-২ আসন থেকে তিনি টানা তিন বার এমপি নির্বাচিত হন। এবার নুরুল ইসলাম সুজন পেলেন রেলপথ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব।
আইনজীবীদের প্রিয় মুখ শ ম রেজাউল করিম ২০০৯-২০১০ সালের মেয়াদে সম্পাদক নির্বাচিত হন। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পিরোজপুর-১ আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হন। প্রথম এমপি হিসেবে নির্বাচিত হয়ে গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পান। তিনি আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির আইন সম্পাদক। এছাড়াও তিনি আইনজীবীদের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের নির্বাচিত সদস্য। বার কাউন্সিলে ফাইন্যান্স কমিটির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।
সুপ্রিম কোর্টের আরেক আইনজীবী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪ নং (কসবা) আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হন। গত জাতীয় সংসদেও তিনি আইনমন্ত্রী ছিলেন। ডা. দীপু মনি চাঁদপুর-৩ (চাঁদপুর-হাইমচর) আসন থেকে নির্বাচিত হন। তিনিও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী। তিনি নবম সংসদে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেছিলেন। শিল্প মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পেয়েছেন নরসিংদী-৪ আসনের এমপি অ্যাডভোকেট নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন।
এছাড়াও বর্তমান মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়া মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আ ক ম মোজাম্মেল হককে একই মন্ত্রণালয়ের আগের দায়িত্বেই দেয়া হয়েছে। এছাড়া জুনায়েদ আহমেদ পলক নাটোর-৩ আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হন। যদিও তিনি এখন সরাসরি আইন পেশায় জড়িত নন। সুপ্রিম কোর্টের তরুণ আইনজীবী ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল চট্টগ্রাম ৯ আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হন। এবারই প্রথম এমপি হয়ে শিক্ষা উপমন্ত্রীর দায়িত্ব পান। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ১০০ মতো আইনজীবী এমপি হওয়ার মনোনয়ন নেন বিএনপি ও আওয়ামী লীগ। উভয় দল বিপুল সংখ্যাক আইনজীবীদের মনোনয়ন দেন। এবারের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন এমপি নির্বাচিত হন ২৭ আইনজীবী। এমপি হিসেবে দশম জাতীয় সংসদে আইনজীবী ছিলেন ৫১ জন। তবে মন্ত্রী ছিলেন অল্প কয়েকজন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আইনজীবী

২৯ অক্টোবর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন