Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার ২৩ এপ্রিল ২০১৯, ১০ বৈশাখ ১৪২৬, ১৬ শাবান ১৪৪০ হিজরী।

নৌপথেও জট জামালগঞ্জে আটকা ৪ শতাধিক নৌযান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১২ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:০২ এএম

যানজট এখন সর্বত্র। সড়ক কিংবা নৌপথ, জটের ভোগান্তি থেকে রেহাই মেলেনা কোথাও। নাব্য সঙ্কটের কারণে ১৭ দিন ধরে এরকম নৌজটের সৃষ্টি হয়েছে সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জ উপজেলার বৌলাই ও আবুয়া নদীতে। এ কারণে প্রায় চার শতাধিক বালু ও পাথরবোঝাই নৌকা আটকা পড়ে আছে। ফলে লোকসানের মুখে পড়েছেন বালু ও পাথর ব্যবসায়ীরা। এ ছাড়া এসব নৌযানের প্রায় দুই হাজার শ্রমিকও দুর্ভোগের মধ্যে দিন কাটাচ্ছেন।

জামালগঞ্জ উপজেলার বেহেলী ইউনিয়নের বৌলাই ও আবুয়া নদীর হিজলা, মাহমুদপুর, পৈÐুপ, মদনাকান্দি, দুর্গাপুর, হাওরিয়া আলীপুর, বদরপুর ও বেহেলীসহ প্রায় তিন কিলোমিটার এলাকাজুড়ে বাল্কহেড, স্টিলবডি, বারকি, যাত্রীবাহী ও মালবাহী নৌযান আটকা পড়ে চরম দুভোর্গ পোহাচ্ছেন। ফলে বিশ্বম্ভরপুর, তাহিরপুর ও জামালগঞ্জ উপজেলার আংশিক এলাকায় সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

দীর্ঘ ৬-৭ বছর ধরে বৌলাই নদী ও আবুয়া নদীতে বছরের এ সময় নাব্য সঙ্কট দেখা দেয় বলে জানিয়েছে স্থানীয়রা। ফাজিলপুর বালুপাথর মহাল থেকে বালু, পাথর উত্তোলন করে দেশের বিভিন্ন স্থানে পরিবহন করা হয় গুরুত্বপূর্ণ এ নদী দিয়ে । বলগেট পরশী নৌরিন নামক নৌকার চান মিয়া বলেন, ১২ দিন ধরে বসে আছি, নৌকা চলে না। যদি সারিবদ্ধভাবে একটা একটা করে নৌকা চলত, তবে এ সমস্যা হতো না। চার শতাধিক নৌকার সব শ্রমিক বসে বসে অর্থ ব্যয় করছেন।

কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর নৌপরিবহন সমিতির সদস্য মো. আবদুল হান্নান জানান, বাজিতপুর থেকে এখানে শতাধিক বাল্কহেড নৌকা বালু কিনতে এসেছিল। সেগুলোর বেশিরভাগই ২০ দিন ধরে নদীতে আটকা পড়ে আছে। ফলে ঠিকাদারদের বালু সরবরাহ করা যাচ্ছে না। তাদের নির্মাণকাজও বন্ধ রয়েছে।

লালপুর নৌপুলিশ ফাঁড়ির সূত্রে জানা যায়, মূলত নাব্য সঙ্কট দেখা দেয়ার কারণে নদী সরু হয়ে যাওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। নৌজট নিরসনের জন্য নৌপুলিশ চেষ্টা করে যাচ্ছে। উপজেলা পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তা বলেন, বৌলাই নদী খননের প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে। এবার নাব্য সঙ্কটের কারণে ড্রেজার নদীতে আনা যাচ্ছে না। তাই আগামীতে নদী খনন করে সমস্যার সমাধান করা হবে।





 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নৌযান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ