Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯ ফাল্গুন ১৪২৫, ১৫ জামাদিউস সানি ১৪৪০ হিজরী।

ফিলিস্তিনে শান্তি আনতে নতুন ফর্মূলা ট্রাম্পের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ জানুয়ারি, ২০১৯, ৯:০৭ পিএম

ফিলিস্তিন ও ইসরাইলে শান্তি প্রতিষ্ঠায় ‘শতবর্ষী বা শতাব্দীর সেরা সমঝোতা’ শিরোনামে নতুন ফর্মূলা প্রয়োগ করতে যাচ্ছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ইসরাইলের একটি সংবাদ মাধ্যমে এ পরিকল্পনার কথা উল্লেখ করা হয়। খবর আলজাজিরা।
হোয়াইট হাউসের কর্মকর্তারা বলেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এখনো ফিলিস্তিন ও ইসরাইলের মাঝে সমঝোতা চান। হোয়াইট হাউসের সিনিয়র কর্মকর্তারা দৃঢ়ভাবে আশাবাদী যে, ইসরাইলের নির্বাচনের পর মধ্যপ্রাচ্যে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প তার পরিকল্পনার কথা ঘোষণা করতে পারেন। হোয়াইট হাউসের সিনিয়র কর্মকর্তারা আরও জানান, ফিলিস্তিন দখল আমেরিকার কেন্দ্রীয় পরিকল্পনা নয়। তারা বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভূমিকা উভয় রাষ্ট্রের মাঝে এক ঐতিহাসিক ঐক্য প্রতিষ্ঠায় সহায়তা করবে।
ফিলিস্তিনি নেতারা স্বীকার করতে চান না যে, ট্রাম্প এমন কোনো পরিকল্পনার কথা বলবে যা জেরুজালেম, শরণার্থী এবং অন্য সব প্রধান সমস্যাগুলো সমাধান করবে। তারা ট্রাম্পের এ শান্তি প্রতিষ্ঠার উদ্যোগকে অনুপ্রেরণা হিসেবে নিয়েছেন। মার্কিন কর্মকর্তরা জোর দিয়ে বলেন যে, মার্কিন প্রশাসন ফিলিস্তিনিদের উচ্চাকাঙ্ক্ষা থেকে মুখ ফিরিয়ে তাদেরকে কিনতে চায় না; বরং তাদের নতুন প্রজন্মর জন্য একটি ভালো ভবিষ্যত গড়ে তুলতে চান। যদি ফিলিস্তিন ইসরাইলের সাথে সমঝোতায় আসে। বিবৃতিতে কর্মকর্তারা জানান, এই পরিকল্পনায় অর্থনৈতিক পদ্ধতি রাজনৈতিক দৃষ্টিভঙ্গির পরিপূরক হবে।
এদিকে ফিলিস্তিনি স্বশাসন কর্তৃপক্ষ বা পিএ বলেছে, ফিলিস্তিন-ইসরাইল সংকট নিরসনের লক্ষ্যে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসন যে প্রস্তাব দিয়েছে তা বাস্তবায়িত হবে না। পিএ’র মুখপাত্র নাবিল আবু রুদেইনেহ বলেন, ১৯৬৭ সালের আগের সীমানা ভিত্তিতে পূর্ব জেরুজালেম বা আল কুদসকে রাজধানী করে একটি স্বাধীন ও সার্বভৌম রাষ্ট্র গঠনের প্রক্রিয়াকে সামান্যতম খর্ব করে এমন পদক্ষেপ নিশ্চিতভাবে ব্যর্থ হবে। শতাব্দীর সেরা চু্ক্তি বিষয়ে যে সব তথ্য এবং গুজব বের হয়েছে এবং তার প্রতি আঞ্চলিক এবং আন্তর্জাতিক পক্ষগুলোর সমর্থন আদায়ের লক্ষ্যে যে প্রচেষ্টা চালানো হচ্ছে তা সফল হবে না।



 

Show all comments
  • Hasan ১৮ জানুয়ারি, ২০১৯, ১০:১৪ পিএম says : 0
    গাছের গোঁড়া কেটে আগায় পানি দেয়ার প্রকল্প।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফিলিস্তিন

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ