Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২০ মে ২০১৯, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৪ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

মানবিজের ঘটনা সন্ত্রাসী হামলা : এরদোগান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

সিরিয়ার মানবিজ শহরে বোমা হামলায় যুক্তরাষ্ট্রের পাঁচ সেনা নিহত হওয়ার পরও মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সেনা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তে অনড় থাকবেন বলে আশা প্রকাশ করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোগান। তুরস্ক সফররত ক্রোয়েশিয়ার প্রেসিডেন্ট কোলিন্দা গ্র্যাবার কিটারোভিচের সঙ্গে রাজধানী আংকারায় যৌথ সংবাদ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট এরদোগান এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, বুধবারের বোমা হামলার অর্থ হতে পারে যে- এ তৎপরতার মাধ্যমে সেনা প্রত্যাহারের বিষয়ে ট্রাম্পের সিদ্ধান্ত প্রভাব ফেলার চেষ্টা চলছে। কিন্তু ট্রাম্পের ভেতরে আমি যে দৃঢ়তা দেখেছি তাতে মনে হয় না তিনি সন্ত্রাসী হামলার পর তার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করবেন। বুধবার সিরিয়ার কুর্দি নিয়ন্ত্রিত মানবিজ শহরে বোমা বিস্ফোরণে পাঁচ মার্কিন সেনাসহ অন্তত ২০ জন নিহত হয়েছে। হামলার দায় স্বীকার করেছে আইএস। হামলার পর মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স বলেছেন, সেনা প্রত্যাহারের কাজ অব্যাহত থাকবে। এদিকে, ইসলামিক স্টেট এ ঘটনায় দায় স্বীকার করলেও, তুর্কি মদদেই হামলা চালানো হয় বলে জানিয়েছে মানবিজ ওয়ার কাউন্সিল। একইসঙ্গে এ ঘটনায় জড়িতদের আটক করা হয়েছে বলেও উল্লেখ করা হয়। ব্রিটিশ ভিত্তিক সংগঠন সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস জানায়, বুধবারের এ হামলায় আরও অন্তত ১০ বেসামরিক সিরীয় নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও বেশকয়েকজন। নিহত অন্য পাঁচজন সিরিয়ায় মার্কিন সমর্থিত বাহিনীর সদস্য বলে জানায় সংগঠনটি। এদিকে ঘটনার পরপরই নিজেদের ওয়েবসাইটে হামলার দায় স্বীকার করে এক বিবৃতি দিয়েছে আইএস। তুরস্ক এ বিষয়ে কিছু না জানালেও, মানবিজের ঘটনাকে সন্ত্রাসী হামলা বলে উল্লেখ করেছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট। একইসঙ্গে ট্রাম্প তার সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসবেন না বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি। এরমধ্যেই মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্টও বললেন দ্রুত মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করে নেয়া হবে। সিরিয়ায় আইএসকে পুরোপুরি দমন করা হয়েছে বলেও দাবি তারা। তারা বলেন, সিরিয়ায় নিহত মার্কিনদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানাচ্ছি। ইতোমধ্যে আমরা সেখান থেকে আইএস নির্মূল করেছি। আর তাই আমাদের সেনাদের সিরিয়া থেকে সরিয়ে নেয়া হবে। তবে, দেশটিতে থাকা আমাদের মিত্রদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করবো আমরা। আবার যেন জঙ্গী গোষ্ঠী হামলা চালাতে না পারে সেটাও নিশ্চিত করা হবে। এদিকে নিয়োগ পাওয়ার পর প্রথমবারের মতো দামেস্ক সফর করছেন জাতিসংঘের সিরিয়া বিষয়ক বিশেষ দূত গায়ার পেডারসেন। সফরের প্রথমদিন সিরীয় কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। রয়টার্স, আনাদোলু।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: এরদোগান


আরও
আরও পড়ুন