Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৫ ফাল্গুন ১৪২৫, ১১ জামাদিউস সানি ১৪৪০ হিজরী।

সরকারকে দ্রুত ক্ষমতা ছাড়তে হবে

ইডেন কমপ্লেক্সে ড. কামাল

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন বলেছেন, আওয়ামী লীগ মানুষের ভোটের অধিকার হাইজ্যাক করেছে। তাদের ক্ষমতায় থাকার কোন বৈধতা নেই। বর্তমান সরকারকে দ্রুত ক্ষমতা থেকে সরে যেতে হবে। রাজধানীর মতিঝিলের ইডেন কমপ্লেক্সে গণফোরামের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।
ড. কামাল হোসেন বলেন, আওয়ামী লীগ নির্বাচনের নামে জাতির সঙ্গে প্রহসন করেছে। রাষ্ট্রকে হাইজ্যাক করে আওয়াামী লীগ এখন মানুষের ভোটের অধিকারও হাইজ্যাক করেছে। এটা সংবিধানের লঙ্ঘন। বাংলাদেশে এটা করে কেউ পার পাবে না। এটা কসম করে বলছি। মানুষের অধিকার ফিরিয়ে দিয়ে দ্রুত ক্ষমা থেকে সরে পড়ার জন্য সরকারের প্রতি তিনি আহ্বান জানান।
তিনি বলেন, এ সরকার সংবিধান লঙ্ঘনকারী সরকার। তারা দেশের মানুষের সাথে প্রতারণা করেছে। ভোটের নামে যে প্রহসন করেছে তা দেশের মানুষ কিছুতেই মেনে নেবেনা। দেশে মানবাধিকার, আইনের শাসন সব কিছু আজ প্রশ্নের মুখে। এ অবস্থায় দেশের মানুষকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। ঐক্যই পারে সব জুলুম নির্যাতন থেকে মুক্তি দিতে। তিনি বলেন, দেশের মানুষকে পরাধীনতার শৃঙ্খলে আবদ্ধ করার যে অপচেষ্টা তা ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিহত করা হবে।
একাদশ সংসদ নির্বাচনে ঢাকা- ৬ আসনের ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত ধানের শীষের প্রার্থী এডভোকেট সুব্রত চৌধুরীর নির্বাচন পরবর্তী শুভেচ্ছা বিনিময়ে গণফোরামের উদ্যোগে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

 



 

Show all comments
  • Golam Mostafa ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:২৭ এএম says : 0
    অপেক্ষা করেন 2041 পর্যন্ত
    Total Reply(0) Reply
  • আন্দালিব ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
    যে নির্বাচন নিয়ে দেশি বিদেশি সকল জরিপ, সাধারন মানুষের মতামত, মিডিয়া, আওয়ামীলীগের তারকাবহুল, সঙ্গীতবহুল জাঁকজমক প্রচারনায় বিএনপির চেয়ে যোজন এগিয়ে সে নির্বাচনে আওয়ামী লীগের কি প্রয়োজন ভোট জালিয়াতি করে তাকে সন্দেহের ট্যাগ লাগাতে যাবে?
    Total Reply(0) Reply
  • নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
    "২০১৪ সালে শেখ হাসিনা গণতন্ত্রকে লাইফ সাপোর্টে পাঠিয়েছিলেন। আর এবার গণতন্ত্রকে লাশ করে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেন সুব্রত"--পেট্রল বোমা ,আগুনে পোড়ানোর আর হরতালে মানুষ এর জীবন যারা দুর্বিষহ করেছে তাদের মুখে গণতন্ত্র মানায় না।
    Total Reply(0) Reply
  • Rashidullah ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:২৯ এএম says : 0
    ড. কামাল হোসেন যাই বলুন, নির্বাচন হয়ে গেছে। আওয়ামী লীগ আরো পাঁচ বছরের জন্য ক্ষমতায় এসেছে। পৃথিবীর বহু দেশেই ভোট হয় না, তাতে কি আসে যায়?
    Total Reply(0) Reply
  • Shahin Ahmed ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:২৯ এএম says : 0
    ওয়ার্নিং দিয়ে আর কতদিন?
    Total Reply(0) Reply
  • রিদওয়ান বিবেক ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 1
    ক্ষমতাসীনদের লুটপাট থেকে শিশুদের ভিটামিন ক্যাপসুলও নিরাপদ নয় এখন।
    Total Reply(0) Reply
  • Mike Rundle ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
    আপনি অবসর নিন, গণতন্ত্রের মানসপুত্র এরশাদকে রাজনীতি করা সুযোগ দিন।
    Total Reply(0) Reply
  • সাঈদ, মুক্তিযোদ্ধা ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
    কোনো নির্বাচনে কি এই নেতা বিজয়ী হতে পেরেছেন তার সারাজীবনেও? পারেননি এবং কোনোদিন কি পারবেন? অযথা এই সব কথা বলে দেশের সম্পদ ও আমাদের সময় নষ্ট করছেন । যদি আপনাদের পক্ষে এতই সমর্থক থাকতো তবে কেন রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ করতে পারেননি? ১৯৬৯ সনে আমরা কি করেছিলাম তা কি মনে আছে? আইয়ুব/ইয়াহিয়ার সামরিক আইনকেও আমরা তোয়াক্কা করিনি, দেখেছিলেন কি সেই আন্দোলন? সুতরাং জনগনের সমর্থন নৌকার প্রতিই ছিল, সকলেই জানতাম নৌকাই জিতবে। তাই ভোটার উপস্থিতি কম ছিল মনে হয়।
    Total Reply(1) Reply
    • Mohammed Shah Alam Khan ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ২:৩০ এএম says : 0
      সহযোদ্ধা সাঈদ সাহেব আপনাকে ইনকিলাবে লিখতে দেখে ভালই লাগছে।আমি এই পত্রিকায় মনেহয় দেড় যুগের বেশী সময় ধরে লিখে আসছি আর বলেছি ইনকিলাব নিরপেক্ষ তাদের সাংবাদিক যারা যখন যে দলের সংবাদ করে সেই দলের হয়। এখন দেখুন আমার লিখা এনারা যেমন ছাপিয়ে যাচ্ছে তেমনি আপানার লিখাও ছাপিয়েছে। তাহলে আমরা কেন এদেরকে আওয়ামী লীগে বিরোধী বলি... এরা দেশের হয়ে কাজ করে এনারা অনেক অনেক পবিত্রতার সাথে সংবাদ পরিবেশন করে থাকে। আমরা আওয়ামী লীগের লোকজন যদি ইনকিলাবে না লিখি তাহলে এনাদের দোষটা কোথায়। সেদিন আমি রুপমের মন্তব্য এই পত্রিকায় পাঠ করেছি। কাজেই এখন আসুন লিখুন দেখবেন এনাদের সঠিক অবস্থান। আল্লাহ্‌ আমাদেরকে বুঝার জ্ঞান দান করুন। আমিন
  • msIqbal ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:৩১ এএম says : 0
    ভয় পাইছি...!
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Kowaj Ali khan ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ৫:৪০ এএম says : 2
    পাকিস্থান হানাদারেরা মনে করে নাই যে এই ভাবে লাতি খাইবে। ওদের কি হয়েছিল ? আজ ওরা যত ধরনের জালিয়াতি আছে করিয়াছে। ওরা যত বেশি দিন থাকিবে ততই মারাত্বক গজব ওদের উপরে পরিবে। দেখেন না নমরুদ নাই ফেরাউন নাই। ওদের নাম নিকৃষ্ট। সবাই ঘৃণা করেন। এই জালীমদের কি যে হয়? বিশ্ব অনেক শত বৎসর মনে রাখিবে। ওমুক তমুক না বলে এই সমস্থ অবুঝদের বুজান। ভালো হইবে। আর আপনারা দয়া করিয়া সত্যিকারের রাজনীতি শিক্ষা অরজন করেন। ইসলাম ধর্ম শান্তি, ইসলাম ধর্ম নুক্তি, ইসলাম ধর্ম শিফা, আর ইসলাম রাজনীতি। Islam complete code of life. World people please try to understand. Wai loui yaw ma e jil lil mukajjivin. That day unbilifer will suffer lots and lots. সেই দিন অবিশ্বাসীদের বড় বিনাশ হইবে! There is no dought. Come to Islam, learn Islam, make your life valueable. Please. INSALLAH.
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Shah Alam Khan ১৯ জানুয়ারি, ২০১৯, ৮:৪৪ পিএম says : 0
    কামাল মিয়া কোন ক্ষমতা বলে এসব কথা বলছেন সেটা এখন আইন প্রয়োগকারী সংস্থা গুলোকে খতিয়ে দেখতে হবে বলে আমরা মনেকরি। এ ধরনের কথা সেই বলতে পারে যে নাকি দেশের জন্যে নিবেদিত প্রাণ এবং দেশের মঙ্গল করছেন বা দেশবাসী যাকে চায় তিনি এসব কথা বলতে পারেন। সেদিক থেকে বিচার করলে আমরা দেখতে পাই কামাল মিয়া একবার জাতীর জনকের দয়ায় নির্বাচিত হয়েছিলেন এরপর আর তিনি নির্বাচিত হতে পারেননি তাই এবার তিনি নির্বাচনে প্রতিদন্দিতা করতে সাহস পাননি কারন জনগণ তাঁকে চায় না। কাজেই এইদিক থেকে বিচার করলে তার কোন ক্ষমতাই নেই সরকারকে এতবড় ধমক দেয়ার।
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Shah Alam Khan ২১ জানুয়ারি, ২০১৯, ১:১৯ এএম says : 0
    @ Mr. Mohammed Kowaj Ali khan, আমি আপনার লিখা সবসময় প্রতিটি শব্দ বুঝে পড়ার চেষ্টা করি কিন্তু আপনার মত অত জ্ঞান না থাকায় আপনার লেখা অর্ধেক বুঝতে পারিনা বলেই কোন সময় আমি জবাব দিতে চেষ্টা করি না। তারপরও আমার মনে হয় ২/১ বার জবাব দিয়েছি। আজ না দিয়েই পারছিনা যদিও অনেক লিখা বুঝি নাই। যেমন ‘পাকিস্থান হানাদারেরা মনে করে নাই যে এই ভাবে লাতি খাইবে। ওদের কি হয়েছিল ? আজ ওরা যত ধরনের জালিয়াতি আছে করিয়াছে।‘ আমি আপনার এই কথা সঠিক ভাবে বুঝিনি। যাইহোক আমি এখন শুধু বলতে চাই ইসলাম নিয়ে আপনার কথাগুলো শোভা পায়না বরং অপাত্রে ঢালা হয়। আপনার কথাগুলো বিষয়ের উপর হতে হবে। যেমন ধরুন আমি বলে থাকি পাকি মানে পাকিস্তান, এদের এবং এদের দোসরদেরকে আমি প্রতিহত নয় পারলে দেশ থেকে বিতাড়িত করতে পরামর্শ দিয়ে থাকি। আমি একজন মুক্তিযোদ্ধা আমি যুদ্ধ করেছি মুসলমান পাকিদেরকে তাড়িয়ে বাঙালী জাতীর (মুসলমান, হিন্দুসহ সব ধর্মের লোকজন) জন্যে একটি সুন্দর আবাস বাংলাদেশ তৈরীর জন্যে এটাই ছিল আমাদের মূল উদ্দেশ্য। কারন এরা আমাদেরকে (বাঙালি মুসলমানদেরকে) মুসলমান হিসাবে গ্রহণ করতো না বলতো আমরা হিন্দু থেকে মুসলমান হয়েছি আমাদের মধ্যে ইসলাম নেই তাই আমরা আমাদের নৈতিক অধিকার ও আমাদের সাথে তাদের বৈষম্য দূর করার জন্যে ২০ বছর আন্দোলন করলেও তারা আমাদের দাবী না মেনে আমাদেরক বাধ্য করেছে তাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনা করতে। আমাদের দাবী সঠিক হওয়াতেই আল্লাহ্‌ আমাদেরকে অতি অল্প সময়ে বিশ্বের শ্রেষ্ট সৈনিকদেরকে আতঙ্ক গ্রস্ত করে আত্মসমর্পণ করাতে বাধ্য করেছিলেন তাই আমরা মাত্র ৯ মাসে দেশ স্বাধীন করতে পরেছিলাম (এটা মুসলমান হিসাবেই আমি বিশ্বাস করি)। কাজেই আল্লাহ্‌ আমাদের দাবী মেনেছেন মানে এই বাংলাদেশ বাঙালী জাতীর দেশ এই দেশে বাঙালীরাই থাকবে পাকিদের কোন জায়গা এখানে নেই ক্ষমতায় যাওয়াতো বহু দূরের কথা। কিন্তু ভাগ্য চক্রে আমাদের সাথে থাকা কিছু পাকিদের চর ছিল ওরা কায়দা করে ’৭৫ ক্ষমতা পুন দখল করে নেয় এবং ২৮ বছর দেশের বারটা বাজিয়ে দেয়। এখন আপনি যদি প্রকৃতই ইসলাম বুঝেন তাহলে প্রথমেই আপনাকে জানতে হবে কেন আল্লাহ্‌ এই বাংলাদেশের সৃষ্টি করেছেন?? অনেক লিখেছি তারপরও আরও একটু না বললে সুন্দর সমাপ্ত হয়না তাই বলছি আপনি দয়া করে আল্লাহ্‌র হেকমত, আল্লাহ্‌র কর্ম পদ্ধতী, আল্লাহ্‌র রসুলের রাজনীতি সম্পর্কে জানুন এবং সেইভাবে নিজেকে চালিত করুন এবং সেইভাবেই কথা বলুন দেখবেন আপনার কথা মানুষ অবশ্যই শুনবে এটাও ইসলামেরই কথা। আল্লাহ্‌ বলেছেন আমি একবার কোন সিদ্ধান্ত নিয়ে নিলে সেটাকে আর পাল্টাই না। আল্লাহ্‌র এই কথার উপর ’৭১ সালের যুদ্ধকে বিবেচনায় নিন এবং সেই ভাবে কাজ করুন আল্লাহ্‌ সন্তুষ্ট হবেন ইনশ’আল্লাহ। আল্লাহ্‌ আমাকে সহ সবাইকে আল্লাহ্‌র হেকমত বুঝার এবং সেইভাবে চলার ক্ষমতা দান করুন। আমিন
    Total Reply(0) Reply
  • Rafiq ৩১ জানুয়ারি, ২০১৯, ২:১৪ পিএম says : 0
    অপেক্ষা করেন 2041 পর্যন্ত
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঐক্যফ্রন্ট

৩০ জানুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ